করোনার প্রকোপ একটু কমতেই বাংলায় বিয়ের হিড়িক! ৬ সপ্তাহে ৩৬হাজার বিয়ে

বাংলায় বিয়ে

করোনার (COVID19) প্রকোপ একটু কম হওয়ায় এবং সরকারি বিধি (Government Corona protocol) খানিক শিথিল হওয়ার সুযোগ আর হাত ছাড়া করতে চাননি কেউ৷

  • Share this:

    #কলকাতা: গোটা বাংলা তথা শহর কলকাতায় বিয়ের ধুম! করোনা সংক্রমণ কিছুটা কমেছে৷ যেই সুযোগের সৎব্যবহার করছেন পাত্র-পাত্রীরা৷ জুলাই মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে এখনও পর্যন্ত বাংলায় বসেছে প্রায় ৩৬ হাজার বিয়ের আসর! মে-জুন মাসে করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের ফলে বহু বিয়ের অনুষ্ঠান বাতিল করতে হয়৷ জমায়তের কোনও সুযোগ ছিল না৷ তাই বিয়ের দিনক্ষণ ঠিক থাকলেও সে পথে হাঁটেনি অনেক পরিবার৷ পিছিয়ে দেওয়া হয় বিয়ের দিন৷ করোনার বাড়বাড়ন্তের উপর নির্ভর করেই পরবর্তী বিয়ের দিন ঠিক করার কথা ভাবেন সকলে৷ সেই মতো করোনার প্রকোপ একটু কম হওয়ায় এবং সরকারি বিধি খানিক শিথিল হওয়ার সুযোগ আর হাত ছাড়া করতে চাননি কেউ৷ তড়ঘড়ি বসানো হয়েছে বিয়ের আসর৷ যার ফেল কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই হাজার হাজার বিয়ের সাক্ষী থাকল শহর৷ ৪হাজার বিয়ে হয়েছে গত ছ’সপ্তাহে৷

    সরকারি হিসেব অনুযায়ী ৯৯৪৬টি ম্যারেজ সার্টিফিকেট তৈরি করা হয়েছে৷ ১৫ অগাস্টের পর শেষ হয়েছে শ্রাবণ মাস৷ তারপর থেকে  এই সময় হিন্দুদের বিয়ে হয় না৷ একইভাবে ১০ অগাস্ট থেকে শুরু হয়েছে মহরম৷ এই সময় বন্ধ থাকে মুসলিম ধর্মে বিয়ে৷ তার আগেই হয়েছে সব বিয়ের অনুষ্ঠান৷

    আরও পড়ুন Coronavirus Child Vaccination:তৃতীয় ঢেউয়ের আগেই শিশুদের জন্য সুখবর, Johnson and Johnson চাইল ভ্যাকসিন ট্রায়েলের অনুমতি

    অনেকে সরকারি বিধিনিষেধের ফলে বিয়ে পিছিয়ে দিয়েছিলেন৷ অনেকে আবার করোনা আক্রান্ত হয়ে বিয়ে পিছনোর সিদ্ধান্ত নেন৷ বেদিকা ও রোহিতের বিয়ে স্থির হয় ১ জুলাই৷ তবে সরকারি নিয়মের ফলে বিয়ের দিন বদলের সিদ্ধান্ত নেয় পরিবার৷ ১৫ জুলাই তাঁদের চার হাত এক হয়৷

    অন্যদিকে সোহম রায় জানান যে তাঁর বিয়ের দিন ছিল ২৭ জুন৷ তবে পাত্র এবং পাত্রী, দু’জনেই করোনা আক্রান্ত হন৷ ফলে বিয়ে পিছিয়ে দিতে হয় তাদের৷ ২ অগাস্ট বিয়ে হয় তাদের৷

    Published by:Pooja Basu
    First published: