Bengal Corona Update: গত ২৪ ঘণ্টায় বাংলায় আরও কিছুটা কমল দৈনিক সংক্রমণ, তবে মৃত্যু এখনও ভাবাচ্ছে!

কার্যত লকডাউনের প্রভাব পড়ছে বাংলায়?

করোনাভাইরাসের (Coronavirus) জেরে গত ১৬ মে থেকে রাজ্যজুড়ে চলছে কার্যত লকডাউন (West Bengal Lockdown)। রাজ্যের করোনা আক্রান্তের হার ও মৃত্যুতে তার কি প্রভাব পড়ল?

  • Share this:

    #কলকাতা: করোনাভাইরাসের (Coronavirus) জেরে গত ১৬ মে থেকে রাজ্যজুড়ে চলছে কার্যত লকডাউন (West Bengal Lockdown)। রাজ্যের করোনা আক্রান্তের হার ও মৃত্যুতে তার কি প্রভাব পড়ল? আদৌ কি কোনও লাভ হচ্ছে লকডাউনে? ফের একবার এই প্রশ্নই ঘুরপাক খাচ্ছে রবিবার রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতরের হেলথ বুলেটিন প্রকাশ পাওয়ার পর থেকে। শনিবারের তুলনায় গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্তের (Coronavirus Positive) হার কিছুটা কমেছে। একদিনে ফের রাজ্যে আক্রান্ত হয়েছেন ১৮ হাজার ৪২২ জন। এ নিয়ে রাজ্যে মোট করোনা রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল ১২,৪৮,৬৬৮ জন।

    দৈনিক সংক্রমণ খানিকটা কমলেও, মৃত্যুর হার ভাবাচ্ছে স্বাস্থ্য দফতরকে। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে (Death Toll) আরও ১৫৬ জনের। এ নিয়ে রাজ্যে করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়াল ১৪ হাজার ৩৬৪ জনে। রবিবার রাজ্যে মোট করোনা স্যাম্পল পরীক্ষা হয়েছে ৬৯ হাজার ১৪৫ জনের। এ নিয়ে রাজ্যে মোট স্যাম্পল পরীক্ষা হল ১,১৮,৫৬,৪১৬ জনের।

    স্বাস্থ্য দফতরের রিপোর্টে জানানো হয়েছে, সুস্থতার হারের দিকেও নজর দিতে হবে। গত একদিনে বাংলায় করোনাজয়ী হয়েছেন আরও ১৯ হাজার ৪২৯ জন। শনিবারের তুলনায় বেশ কয়েকজন বেশি সুস্থ হয়েছেন। রবিবার করোনায় আক্রান্তের তুলনাতেও এর হার বেশি থাকায় স্বাভাবিক ভাবেই এটি ইতিবাচক খবর। লকডাউনের ইতিবাচক প্রভাবও বটে। এ নিয়ে রাজ্যে এখনও পর্যন্ত করোনা জয় করেছেন মোট ১১,২২,২০১ জন। রাজ্যে এই মুহূর্তে করোনার মোট সক্রিয় রোগী রয়েছেন ১,৩০,৫২৫ জন।

    সংক্রমণের দিক থেকে সবচেয়ে উপরে রয়েছে উত্তর ২৪ পরগনা। গত ২৪ ঘণ্টায় এই জেলায় ৩৭৭১ জন করোনা রোগীর খোঁজ মিলেছে। এর পরেই রয়েছে কলকাতা। একদিনে কলকাতায় আক্রান্ত ৩০৫৬ জন। এর পর রয়েছে হাওড়া, নদিয়া, দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, পশ্চিম মেদিনীপুরের মতো জেলা। দুই বর্ধমানেরও পরিস্থিতি খারাপ। বীরভূমেও বাড়ছে করোনার প্রকোপ। বিশেষজ্ঞদের মত, এই পরিস্থিতি চলতে থাকলে, বিশেষ করে করোনায় মৃতের সংখ্যা না কমলে ফের হয়তো কার্যত লকডাউন আরও বাড়ানোর কথাই ভাববে নবান্ন। যদিও তা নিয়ে এখনও সরকারি ভাবে কোনও নির্দেশিকা দেওয়া হয়নি। আপাতত ৩০ মে পর্যন্ত কার্যত লকডাউন চলছে গোটা বাংলায়।

    Published by:Raima Chakraborty
    First published: