হোম /খবর /পশ্চিম বর্ধমান /
পর্যটন কেন্দ্র মাইথনকে প্লাস্টিক দূষণমুক্ত করতে বিশেষ উদ্যোগ

West Bardhaman News: জেলার অন্যতম পর্যটন কেন্দ্র মাইথনকে প্লাস্টিক দূষণমুক্ত করতে বিশিষ্টদের নিয়ে আলোচনা সভা

আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখছেন পুলিশ কমিশনার সুধীর কুমার নীলকান্তম।

আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখছেন পুলিশ কমিশনার সুধীর কুমার নীলকান্তম।

পর্যটকদের অসাবধানতা এবং প্লাস্টিকের যথেচ্ছ ব্যবহারের ফলে প্লাস্টিক দূষণে জর্জরিত হয়ে পড়ছিল এই জায়গাটি। তাই জেলার অন্যতম এই পর্যটন কেন্দ্রটিকে প্লাস্টিক দূষণ মুক্ত করতে নেওয়া হল বিশেষ উদ্যোগ

  • Hyperlocal
  • Last Updated :
  • Share this:

#মাইথন, পশ্চিম বর্ধমান: পশ্চিম বর্ধমান জেলার পর্যটন মানচিত্রে অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ জায়গা মাইথন। দামোদর নদীর জলাধারকে কেন্দ্র করে মাইথন পর্যটন কেন্দ্রটি তৈরি করা হয়েছে (Maithon)। শীতকালে পিকনিকের সময় মাইথনে অগণিত মানুষের ভিড় লেগে থাকে। তাছাড়াও বছরের অন্যান্য সময় এই পর্যটন কেন্দ্রে মানুষের যাতায়াত চোখে পড়ে(West Bardhaman News)।

পাহাড়-জঙ্গল এবং দামোদর নদীর জলাধারের সংমিশ্রণে তৈরি মাইথন, পর্যটকদের কাছে আকর্ষণীয় অন্যতম জায়গা। কিন্তু পর্যটকদের অসাবধানতা এবং প্লাস্টিকের যথেচ্ছ ব্যবহারের ফলে প্লাস্টিক দূষণে জর্জরিত হয়ে পড়ছিল এই জায়গাটি। তাই জেলার অন্যতম এই পর্যটন কেন্দ্রটিকে প্লাস্টিক দূষণ মুক্ত করতে নেওয়া হল বিশেষ উদ্যোগ।

মাইথনের মতো সুন্দর পর্যটন কেন্দ্রকে প্লাস্টিক দূষণ মুক্ত করতে এবার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছিল ডিস্ট্রিক্ট লিগাল সার্ভিস অথরিটি অফ পশ্চিম বর্ধমান ক্রিমিনাল কোর্ট এর তরফ থেকে। এদিন বাংলা-ঝাড়খণ্ড সীমানায় মাইথনের মজুমদার নিবাস সংলগ্ন জলাধারের সামনেই একটি সচেতনতা শিবিরের আয়োজন করা হয় (West Bardhaman News)।

এই আলোচনা শিবিরে উপস্থিত হয়ে অতিথিরা সবাই আলোচনা করেন, কিভাবে মাইথনের মত সুন্দর একটা পরিবেশকে দূষণ মুক্ত করা যায়। এই প্রসঙ্গে জাস্টিস রাজশ্রী ভরদ্বাজ বলেন, পরিবেশ সুরক্ষা করতে হলে আগে নিজেদের সচেতন হতে হবে। প্লাস্টিক বর্জন করতে হলে সাধারণ মানুষদের কাছে গিয়ে তাদের বোঝাতে হবে, প্লাস্টিক পরিবেশের পক্ষে কতটা ক্ষতিকর। প্লাস্টিক দূষণের প্রভাব কত দীর্ঘস্থায়ী হয়, তাও মানুষকে বোঝাতে হবে। তবেই প্লাস্টিক দূষণ থেকে মুক্তি পাওয়ার একটা পথ পাওয়া যেতে পারে। পাশাপাশি সুন্দর জায়গাকে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখার দায়িত্ব নিতে হবে পর্যটকদেরও। যত্রতত্র প্লাস্টিক আবর্জনা ফেলা বন্ধ করতে হবে। তবেই পাওয়া যাবে সমাধান (West Bardhaman News)।

এই প্রসঙ্গে পুলিশ কমিশনার সুধীর কুমার নীলকান্তম বলেন, সবার প্রথম একটা টিম গঠন করে সকল মানুষকে সচেতন করতে হবে। পাশাপাশি পুলিশের তরফে যতটা সম্ভব সাধারণ মানুষকে সচেতন করা সম্ভব, পুলিশ তা করবে। এক্ষেত্রে পুলিশ কমিশনার নিজেও সাধারণ মানুষকে সচেতন হওয়ার আবেদন জানিয়েছেন। পাশাপাশি প্লাস্টিক ব্যবহারের ক্ষেত্রে ব্যবসায়ীদেরও কিছুটা সাবধানী পদক্ষেপ করার আবেদন জানিয়েছেন তিনি।

উল্লেখ্য, এদিনের এই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি রূপে উপস্থিত হন হাইকোর্টের জাস্টিস রাজশ্রী ভরদ্বাজ। তাছাড়াও আলোচনা সভায় অংশগ্রহণ করেছিলেন ডিস্ট্রিক্ট কমার্শিয়াল কোর্টের বিচারপতি সৌরভ ভট্টাচার্য, সিভিল জর্জ জুনিয়ার ডিভিশন থার্ড কোর্ট নিরঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায় এবং লীনা লাম্বা, সেক্রেটারি অফ ডিএলএসএ, আসানসোল দূর্গাপুর পুলিশ কমিশনার সুধীর কুমার নীলকান্তম, এসিপি কুলটি সুকান্ত ব্যানার্জী, সালানপুর থানার ইনচার্জ অমিত হাতি, কল্যানেশ্বরী ফাঁড়ির ইনচার্জ উজ্জ্বল সাহা, ডিভিসি মুখ্য জনসংযোগ আধিকারিক অপূর্ব সাহা, পলিউশন বিভাগের সুবীর মন্ডল, অসীম রায়, সমাজসেবী মনোজ তেওয়ারী সহ আরও অনেকে।

আলোচনা সভায় অংশগ্রহণ সকলেই মাইথন পর্যটক কেন্দ্রকে দূষণমুক্ত করার আহ্বান জানিয়েছেন। দূষণ নিয়ন্ত্রণের সঙ্গে যুক্ত সমস্ত সরকারি দফতরে যেমন এই কাজে এগিয়ে আসার কথা বলা হয়েছে, তেমনভাবেই পর্যটক, স্থানীয় বাসিন্দা এবং ব্যবসায়ীদেরও জেলার অন্যতম পর্যটন কেন্দ্রকে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখার আবেদন জানানো হয়েছে।

Nayan Ghosh

Published by:Samarpita Banerjee
First published:

Tags: Maithon, West Bardhaman