• Home
  • »
  • News
  • »
  • technology
  • »
  • ডিজিটাল ডকুমেন্টে সিগনেচার যুক্ত করা ওয়ার্ক ফ্রম হোমের অঙ্গ; জানুন কীভাবে তা করা যায়

ডিজিটাল ডকুমেন্টে সিগনেচার যুক্ত করা ওয়ার্ক ফ্রম হোমের অঙ্গ; জানুন কীভাবে তা করা যায়

এক নজরে দেখে নেওয়া যাক কী ভাবে ডিজিটাল ডকুমেন্টে নিজেদের সিগনেচার যুক্ত করা যাবে।

এক নজরে দেখে নেওয়া যাক কী ভাবে ডিজিটাল ডকুমেন্টে নিজেদের সিগনেচার যুক্ত করা যাবে।

এক নজরে দেখে নেওয়া যাক কী ভাবে ডিজিটাল ডকুমেন্টে নিজেদের সিগনেচার যুক্ত করা যাবে।

  • Share this:

#কলকাতা: বর্তমানে ডিজিটাল ডকুমেন্ট (Digital document) খুবই একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। এর মাধ্যমে নিজেদের সার্টিফিকেট, দরকারি কাগজপত্র ডিজিটালি বিশ্বের যে কোনও প্রান্তে পাঠানো সম্ভব হয়। এর জন্য অনেক সময়ই সেগুলো এডিট অথবা ক্রিয়েট করার দরকার হয়। এর জন্য বাজারে নানা ধরনের সফটওয়্যার থাকলেও সব থেকে জনপ্রিয় হল গুগল ডকস (Google Docs)। এর মাধ্যমে কোনও ডকুমেন্টে নিজেদের সিগনেচারও (signature) যুক্ত করা যায়।

এক নজরে দেখে নেওয়া যাক কী ভাবে ডিজিটাল ডকুমেন্টে নিজেদের সিগনেচার যুক্ত করা যাবে।

-নিজেদের সিগনেচারের জন্য ট্যাবলেট অথবা টাচস্ক্রিন ডিভাইজ সব থেকে সেরা। কিন্তু এটা না থাকলে মাউস দিয়েও এই কাজটি সম্পন্ন করা সম্ভব। কিন্তু উন্নতমানের খুব ভালো স্ট্যান্ডার্ড সিগনেচার এর মাধ্যমে পাওয়া সম্ভব নয়।

আরও পড়ুন - ফোনে ভাইরাস নেই তো? কী ভাবে তা বোঝা যাবে?

-নিজেদের সিগনেচার ডিজিটালি ব্যবহার করার জন্য যে কোনও ড্রয়িং টুলসের (Drawing Tools) ব্যবহার করা যায়। এক্ষেত্রে আগে থেকে সেই ডকুমেন্টটি বেছে নিতে হবে, যেখানে নিজেদের সিগনেচার যুক্ত করা দরকার। গুগল ডকুমেন্ট (Google Document) খুলে সেখানে সিগনেচার যুক্ত করা যাবে। প্রথমেই ডকুমেন্টের ওপরে থাকা ইনসার্ট (Insert) সিলেক্ট করতে হবে। এর পর ড্রয়িং (Drawing) সিলেক্ট করতে হবে। তার পর নিউ (New) সিলেক্ট করতে হবে।

-এবার সেখানে ড্রয়িং করার জন্য খুলে যাবে ক্যানভাস, যেখানে নিজেদের পছন্দ অনুযায়ী নিজেদের ডকুমেন্টে নানা ধরনের স্কেচ অথবা ইমেজ বসানো যাবে। নিজেদের পছন্দ অনুযায়ী লাইন, অবজেক্ট, টেক্সট, অ্যারোজ আঁকা সম্ভব হবে, এমনকি যে কোনও ইমেজ মডিফাইও করা যাবে। নিজেদের সিগনেচার ঠিকঠাক করার জন্য স্ক্রিবল টুলের (Scribble Tool) ব্যবহারও করা যাবে। এটি পাওয়া যাবে সিলেক্ট লাইনের (Select Line) ড্রপ-ডাউন (Drop-Down) মেনুতে।

-এবার সেখানে কোনও কিছু ক্রিয়েট করার পর অথবা একটি লাইন টানার পরে, ডান দিকের ওপরে অনেকগুলো টুলস পাওয়া যাবে। এর মাধ্যমে সেটির সাইজ, থিকনেস, কালার ইত্যাদি সব কিছু ঠিক করা যাবে।

আরও পড়ুন - ইনকাম ট্যাক্স বেশি দিয়ে দিলেও চিন্তা নেই, জানুন কয়েক ক্লিকে রিটার্ন পাওয়ার উপায়

-নিজেদের পছন্দ অনুযায়ী আঁকা শেষ হয়ে গেলে সেভ অ্যান্ড ক্লোজ (Save And Close) বাটনে ক্লিক করতে হবে। এবার ডকুমেন্টে সেই ছবি বা সিগনেচার যা আঁকা হয়েছে, সেটি যুক্ত হয়ে যাবে।

অ্যাড-অনস (Add-Ons) ব্যবহার করার নিয়ম

-প্রথমেই টুল বারের অ্যাড-অনস অপশনে গিয়ে সেটি খুলতে হবে।

-এর পর সেখান থেকে নিজেদের পছন্দমতো অ্যাড-অনস অপশন বেছে নিতে হবে। সেখানে অ্যাড-অনস-এর অনেক অপশন পাওয়া যাবে।

-এর পর সেখানে নিজেদের সিগনেচার টাইপ করা যাবে অথবা আঁকা যাবে।

-এর পর সেটি ডকুমেন্টে পেস্ট করে দিতে হবে।

-এছাড়াও ডকুসাইন (DocuSign) অথবা হ্যালোসাইন (HelloSign) ব্যবহার করা যেতে পারে। সেখানে নানা ধরনের অপশন পাওয়া যায়।

Published by:Ananya Chakraborty
First published: