corona virus btn
corona virus btn
Loading

পিছিয়ে গেল টোকিও অলিম্পিক্স ,যৌথ সিদ্ধান্ত IOC ও জাপানের প্রধানমন্ত্রীর

পিছিয়ে গেল টোকিও অলিম্পিক্স ,যৌথ সিদ্ধান্ত IOC ও জাপানের প্রধানমন্ত্রীর
Photo- AP

যা ভাবা হয়ছিল তাই হল

  • Share this:

#টোকিও: অলিম্পিক্স পিছিয়ে নেওয়ার চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে সহমতে পৌঁছলেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে ও আইওসি প্রধান থমাস বাক ৷ একবছরের জন্য অলিম্পিক গেমসের পিছোনোর সিদ্ধান্তে সহমতে পৌঁছেছে দু পক্ষই ৷ নিজেদের একটি যুগ্ম বিবৃতিও ইতিমধ্যেই সামনে এসেছে ৷ ২০২১ সালে টোকিও অলিম্পিক্স আয়োজন করা হবে ৷

তবে একবছরের জন্যে পিছিয়ে গেলেও একে ২০২০ অলিম্পিক্স বলা হবে বলে জানানো হয়েছে ইন্টারন্যাশানাল অলিম্পিক কমিটির পক্ষ থেকে ৷ নিজেদের যৌথ বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘ আইওসি প্রেসিডেন্ট এবং প্রধানমন্ত্রী সহমত হয়েছেন যে গেমস ২০২০ -র পর নতুন তারিখে করা হবে ৷ তবে সেটা ২০২১ -র গ্রীষ্মের মধ্যেই তা করা হবে ৷ এটা সমস্ত অ্যাথলিট, অলিম্পিক গেমস ও আন্তর্জাতিক সমাজের শুভ হওয়ার জন্যেই এই সিদ্ধান্ত ৷ ’

আরও বলা হয়েছে, ‘নেতারা সহমত হয়েছে যে টোকিওর অলিম্পিক গেমস সারা পৃথিবীর কাছে আশার আলো, তাই সারা পৃথিবী যখন খারাপ সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে তাই অলিম্পিকের আগুন জ্বলে রইল ৷ জাপানেই থাকবে এই আগুন ৷ ’

এদিকে এর আগেই অলিম্পিক্স পিছিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত জানিয়ে দিলেন আইওসি সদস্য ডিক পাউন্ড ৷ রবিবারই আইওসি জানিয়েছিল তারা অলিম্পিক্স নিয়ে ভাবনাচিন্তা করছে আর সোমবার এই কথা জানালেন আইওসি সদস্য ৷

IOC র সবথেকে দীর্ঘদিনের সদস্য জানিয়েছেন এটা সিদ্ধান্ত হয়ে গেছে যে অলিম্পিক্স ২৪ জুলাই শুরু হচ্ছে না ৷ তিনি আরও জানিয়েছেন সম্ভবত ২০২১ সালে হবে অলিম্পিক্স ৷ করোনা ভাইরাস প্যানডেমিক নিয়ে সারা বিশ্ব উত্তাল ৷ এরমধ্যে কানাডা সর্বপ্রথম দেশ হিসেবে সিদ্ধান্ত নিয়েছিল যে যদি অলিম্পিক্স নির্ধারিত সময়ে হয় তাহলে তারা অংশ গ্রহণ করবেন না ৷

ডিক পাউন্ড আরও জানিয়েছেন যে অলিম্পিক্স পিছোনোর সিদ্ধান্ত হয়ে গেছেল তবে এই ভাইরাসের ভয়াবহতার ওপর বাকি জিনিস নির্ভর করা হচ্ছে ৷ ডিক পাউন্ড জানিয়েছেন, ‘এর মারণ ভাইরাসের তীব্রতা এখনও পরিমাপ করা যাচ্ছে না ৷ তবে এটা নিশ্চিত ২৪ জুলাই এটা শুরু হচ্ছে না ৷ ’

তিনি আরও বলেছেন, ‘এটা ধাপে ধাপে আসছে , তবে এরপর এটাকে কীভাবে আয়োজন করা সম্ভব হবে সেটা সিদ্ধান্ত নিতে হবে, কারণ সেই চাপটা মারাত্মক ৷ ’

এদিকে এর আগে করোনা ভাইরাস এই মুহূর্তে বিশ্ব জুড়ে মহা মহামারী৷ এবার  অলিম্পিক্স নিয়ে মুখ খুললেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে ৷ তিনি জানিয়ে দিলেন অলিম্পিক্স পিছিয়ে যাওয়া এখন সময়ের অপেক্ষা ৷ এই বিষয়টি এখন কোনও ভাবেই এড়ানো যাবে না ৷ ২৪ জুলাই ২০২০ থেকে টোকিওতে অলিম্পিক্সের আসর শুরু হওয়ার কথা ছিল ৷

সারা পৃথিবীতে এক অদ্ভুত ভয়ানক মহামারীর জায়গায় রয়েছে ৷ কানাডার  অলিম্পিক ও প্যারা অলিম্পিক কমিটি ইতিমধ্যেই সিদ্ধান্ত নিয়ে নিয়েছে এবারের অলিম্পিক্স নির্ধারিত সময়ে হলে তারা দল পাঠাবে না ৷ তাদের নিজেদের সাধারণ মানুষ ও অ্যাথলিটদের স্বাস্থ্যের কথা ভেবে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে ৷

 এদিকে অস্ট্রিলিয়ার অলিম্পিক কমিটি জানিয়েছে ২০২১ সালে - অলিম্পিক্সের জন্য প্রস্তুতি নিতে বলেছে ৷ অস্ট্রেলিয়ার শ্যেফ অফ দ্য মিশন ইয়ান চেস্টারম্যান জানিয়েছেন জুলাই মাসে টুর্নামেন্ট হচ্ছে না তা নিশ্চিত ৷

জাপানের অলিম্পিকের আধিকারিকরাও জানিয়েছেন জুলাই মাসে টুর্নামেন্ট আয়োজনের জন্য তারা সেভাবে প্রস্তুতি সারছেন ৷  পুরো বিষয়টাই এখন ঘোর গোলযোগের মধ্যে ৷

Photo- AFP Photo- AFP

জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে জানিয়েছেন, ‘তারা কমপ্লিট গেমস করতে চাইছে ৷ তবে সবার ক্ষেত্রেই অ্যাথলিটরা প্রথম প্রায়োরিটি ৷ তাই এই গেমস পিছনো একেবারে অবশ্যম্ভাবী ৷ ’

তিনি আরও জানিয়েছেন, ‘বাতিল করে দেওয়াটা কোনও অপশন নয় ৷ তিনি বলেছেন, এভাবে গেমস বাতিল করে দেওয়া কোনও অসুবিধার সমাধান করবে না , কাউকে সাহায্যও করবে না ৷ ’

 IOC -ও রবিবার নিজেদের অবস্থান বদল করে জানিয়েছে যেভাবে সারা পৃথিবী জুড়ে পরিবর্ত পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে তাতে গেমস নিয়ে তারা নতুন ভাবে ভাবছে ৷ তবে গেমসের সময় বদল করলেই বদল করে নেব বললে তো হয় না কারণ , গেমসের জন্য ইতিমধ্যেই সব রকমের ব্যবস্থা হয়ে গেছে সেগুলি সব বাতিল করতে হবে, পাশাপাশি নতুন সময়ে সেগুলিকে অ্যাকমোডেট করাও হবে বড় চ্যালেঞ্জ ৷

First published: March 24, 2020, 6:58 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर