• Home
  • »
  • News
  • »
  • sports
  • »
  • FOOTBALL ITALY SLIGHTLY AHEAD OF INJURY RAVAGED BELGIUM IN QUEST FOR SEMIFINAL SPOT RRC

রেড ডেভিলসদের সামলে শেষ চারের টিকিট নিশ্চিত করতে মরিয়া ইতালি

আজুরি নাকি রেড ডেভিলস, কে করবে বাজিমাত ?

কোয়ার্টার ফাইনালের এই ম্যাচে প্রথমবারের জন্য ইতালি নামবে ফেভারিট হিসেবে নয়। অস্ট্রিয়ার বিরুদ্ধে জয় তাদেরকে যেমন উদ্বুদ্ধ করবে ঠিক তেমনই কোচ রবার্তো মানচিনি চাইবে ওই ম্যাচের ভুল ত্রুটি শুধরে নিয়ে বেলজিয়ামের বিরুদ্ধে খেলতে

  • Share this:

    #মিউনিখ: ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর শেষ ইউরো কাপ ব্যর্থ করে দিয়েছে তাঁরা। থর্গণ হ্যাজার্ডের গোলে টুর্নামেন্টের অন্যতম দাবিদার পর্তুগালকে ১-০ গোলে হারায় বেলজিয়াম। যার ফলস্বরূপ ইউরো ২০২০ এর কোয়ার্টার ফাইনালে জায়গা পায় রেড ডেভিলস। কিন্তু পর্তুগালের বিরুদ্ধে সেই জয়ের দাম দিতে হয় তাদের। খেলা শেষের আগেই, দলের দুই তারকা ফুটবলার এডেন হ্যাজার্ড এবং কেভিন ডি ব্রুয়েনকে চোটের কারণে মাঠ ছাড়তে হয়। কিন্তু তবুও বেলজিয়াম এই টুর্নামেন্টে তাদের চতুর্থ জয়লাভ করে। অন্যদিকে ৩১ ম্যাচ অপরাজিত থাকার রেকর্ড নিয়ে ডার্ক হর্স বেলজিয়ামের বিরুদ্ধে খেলতে নামবে ইতালি।

    কিন্তু প্রাক কোয়ার্টার ফাইনালে অস্ট্রিয়ার বিরুদ্ধে জিততে অনেকটা কষ্ট করতে হয় আজুরীদের। খেলার অতিরিক্ত সময়ে ২টি গোল করে ইতালি। অস্ট্রিয়াই একমাত্র দল যারা তাদের গোল দেয়। প্রায় ১৯ ঘণ্টা পর গোল হজম করেছিল ইতালির ডিফেন্স। কোয়ার্টার ফাইনালের এই ম্যাচে প্রথমবারের জন্য ইতালি নামবে ফেভারিট হিসেবে নয়। অস্ট্রিয়ার বিরুদ্ধে জয় তাদেরকে যেমন উদ্বুদ্ধ করবে ঠিক তেমনই কোচ রবার্তো মানচিনি চাইবে ওই ম্যাচের ভুল ত্রুটি শুধরে নিয়ে বেলজিয়ামের বিরুদ্ধে খেলতে।

    এই ম্যাচে ইতালির থেকে আরো ভাল খেলার আশা করছেন অনেকে। দলে পরিবর্তনের তেমন কোনো সুযোগ নেই। মিডফিল্ডে জর্জিনহ এর গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা থাকবে এই বেলজিয়াম ম্যাচে। লুকাকুকে আটকানোর দায়িত্ব থাকবে বনুচ্চির উপর। আজ চোট কাটিয়ে ফেরার সম্ভাবনা রয়েছে অভিজ্ঞ ডিফেন্ডার চিলিনির। বেলজিয়াম যেমন আক্রমনাত্মক খেলা পছন্দ করে তাতে এডেন হ্যাজার্ড এবং কেভিন ডি ব্রুয়েন এক অপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। কোয়ার্টার ফাইনালের আগে এই দুই ফুটবলের চোট বেলজিয়াম দলকে ভোগাবে বলে অনেকে মনে করছেন।

    উইটসেল, থর্গন হ্যাজার্ডের উপর দায়িত্ব বেড়ে গেল দলের দুই তারকা ফুটবলার না থাকার কারণে। ড্রিজ মার্টিন্স এবং করাস্কোকে তৈরি রেখেছেন কোচ মার্টিনেজ। গোলের জন্য বেলজিয়ামকে ভরসা করতে হবে সেই লুকাকুর ওপরেই। কিন্তু বেলজিয়াম মিডফিল্ডের সমস্ত খেলোয়াড় গোল করার ক্ষমতা রাখে। তাই ইতালির ডিফেন্সকে যেকোনো মুহূর্তে বিপদে ফেলতে পারে এই বেলজিয়াম।

    হেভিওয়েট এই দুই প্রতিপক্ষ একে অপরের মুখোমুখি হয়েছে মোট ১১ বার। যার মধ্যে ৩ বার জিতেছে বেলজিয়াম এবং ৪ বার জিতেছে ইতালি। জার্মানির আলিয়াঞ্জ এরিনাতে মানচিনি বনাম রবার্তো মার্টিনেজ এর দ্বৈরথ দেখার জন্য তাকিয়ে  গোটা বিশ্ব। বেলজিয়াম ডিফেন্সে টবি, ভার্তনগেন, ভার্মালিন দারুণ ভরসা দিয়েছেন। কিন্তু ইতালির আক্রমণভাগে চিয়েসা, পেসিনা, লকোতেল্লি, বারেলার মত ফুটবলার রয়েছে। ফুটবল পণ্ডিতরা সামান্য হলেও এগিয়ে রাখছেন চারবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের। কিন্তু ফিফা তালিকায় এক নম্বরে থাকা বেলজিয়াম যদি শেষ হাসি হাসে, তাহলে অবাক হওয়ার মত কিছুই ঘটবে না।

    ইতালি বনাম বেলজিয়াম

    আজ রাত -১২.৩০

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: