• Home
  • »
  • News
  • »
  • sports
  • »
  • নাকে অক্সিজেন নল, পাশেই রাখা কনসেনট্রেটর মা করছেন রান্না, খাবার পৌঁছে দিতে চান Virender Shewag

নাকে অক্সিজেন নল, পাশেই রাখা কনসেনট্রেটর মা করছেন রান্না, খাবার পৌঁছে দিতে চান Virender Shewag

Mother preparing food though she is on Oxygen support - Photo Courtesy- Virender Shewag/ Twitter

Mother preparing food though she is on Oxygen support - Photo Courtesy- Virender Shewag/ Twitter

সেহওয়াগ ছবি শেয়ার করে জানিয়েছিলেন ‘‘মা মা হোতি হ্যায়, ইসে দেখকর আঁসু আ গেই৷ ’’

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: ভারতে করোনা ভাইরাস মহামারি  (Coronavirus)- দ্বিতীয় ঢেউ একেবারে বিধ্বস্ত করে দিচ্ছে৷ আর এই সেকেন্ড ওয়েভে অক্সিজেনের যোগান নিয়ে প্রচণ্ড টানাপোড়েন তৈরি হয়েছে৷ বহু মানুষ অক্সিজেনের যোগান না পেয়ে মৃত্যু অবধি হয়েছে৷ অক্সিজেনের কম হওয়ার দরুণ একাধিক মানুষ সাহায্যের হাত নিয়ে এগিয়ে এসেছেন৷ যেমন বহু সাধারণ মানুষ তেমনিই বহু সেলিব্রিটিও এগিয়ে এসেছেন৷ এই রকম  ভাবেই নিজের সাধ্যের মধ্যে থেকে সাধারণ মানুষের সাহায্যের জন্য এগিয়ে এসেছেন বীরেন্দ্র সেহওয়াগ  (Virender Sehwag) ৷

    বীরেন্দ্র সেহওয়াগ অক্সিজেন কনসেনট্রেটর ও কোভিড ১৯ রোগী ও তাঁর পরিবারের জন্য খাবারের ব্যবস্থা করা সবই করে যাচ্ছেন নিরবিচ্ছিন্নভাবে৷ তিনি সোশ্যাল মিডিয়াতে এও জানিয়েছেন যে যাঁদের এই ধরণের সাহায্য লাগবে তাঁরা যেন তাঁর ফাউন্ডেশনের সঙ্গে যোগাযোগ করেন৷

    সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় এক মায়ের ছবি ভাইরাল হয়েছে৷ সেই ছবিটাই শেয়ার করেছেন বীরেন্দ্র সেহওয়াগও৷  সম্প্রতি ভাইরাল হওয়া মায়ের ছবিতে দেখা যাচ্ছে মায়ের নাকে গোঁজা রয়েছে নল আর পাশে রাখা হয়েছে অক্সিজেন কনসেনট্রেটর৷ সেখান থেকে অক্সিজেন নিতে নিতেই পরিবারের জন্য তিনি রান্না করে যাচ্ছেন৷ এই ছবিতে প্রাথমিক ভাবে আনকনডিশানাল লাভ অর্থাৎ স্বার্থহীণ ভালোবাসা লেখা থাকলেও নেটিজেনরা এটা মোটেই ভালোভাবে নেননি৷  কতটা প্রবল শরীর খারাপ থাকলে একটি একজন মানুষকে অক্সিজেন কনসেনট্রেটর থেকে প্রশ্বাস নিতে হয় তা নিয়েই মানুষ রেগে আগুন৷ নেটিজেনদের সাফ প্রশ্ন ছিল কী করে একজন এতটা অসুস্থ হওয়া সত্ত্বেও রান্না করতে হচ্ছে তা নিয়ে তাঁরা সমালোচনায় মুখর হন৷

    সেহওয়াগ ছবি শেয়ার করে জানিয়েছিলেন ‘‘মা মা হোতি হ্যায়, ইসে দেখকর আঁসু আ গেই৷ ’’

    এবার সেহওয়াগ উঠে প়ড়ে লেগেছেন কে এই মা সন্ধান করার জন্য৷ তিনি একটি ফোন নম্বর দিয়ে সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট করে জানিয়েছেন যে পরিবারের তিনি মা তাঁদের জন্য খাবার পাঠাবেন সেহওয়াগ৷

    আসলে সেহওয়াগের ফ্যানরাই হয়ত নজফগড়ের নবাবের চোখ খুলিয়ে দিয়েছে৷ সেখানে তাঁকে লোকে স্পষ্ট ভাষায় বলেছেন যে মায়ের কাজ হিসেবে এটাকে বেশি গৌরবান্বিত না করে কেন তাঁর পরিবারের কেউ কাজ করছে না৷ এরপরেই সেহওয়াগ ওই পরিবারের সাহায্যের জন্য হাত বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন৷

    ২৪ মে ২০২১ অবধি ভারতে করোনা ভাইরাসে এখনও অবধি ৩ লক্ষ মানুষের মৃত্যু হয়েছে৷ গত বছর ফেব্রুয়ারি মাসে দেশে করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় স্ট্রেনের খোঁজ পাওয়া গিয়েছিল৷ আর এই মামলা বাড়তে বাড়তে এক হাজার থেকে দৈনিক চার হাজারও পেরিয়ে গিয়েছিল৷ করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের পিক আমরা পার করে নিয়েছি৷ নতুন করে করোনা সংক্রমিতের সংখ্যা ক্রমশই কমে চলেছে৷ সোমবার সকালে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ি গত ২৪ ঘণ্টায় ২.২২ লক্ষ নতুন করোনা সংক্রমণের কেস সামনে এসেছে৷ আর মৃত্যু হয়েছে ৪.৪৫৪ জনের৷

    Published by:Debalina Datta
    First published: