• Home
  • »
  • News
  • »
  • sports
  • »
  • Litton Das's Wife Protests: বিশ্বকাপে হারের পর উত্তাল বাংলাদেশ, লিটন দাসকে নিয়ে 'ব্যবসা'র প্রতিবাদে স্ত্রী

Litton Das's Wife Protests: বিশ্বকাপে হারের পর উত্তাল বাংলাদেশ, লিটন দাসকে নিয়ে 'ব্যবসা'র প্রতিবাদে স্ত্রী

Litton Das Wife: লিটন দাস কম রান করুক, কী করে এমন প্রার্থনা করে বাংলাদেশের কিছু সংস্থা! প্রশ্ন তুলেছেন সঞ্চিতা।

Litton Das Wife: লিটন দাস কম রান করুক, কী করে এমন প্রার্থনা করে বাংলাদেশের কিছু সংস্থা! প্রশ্ন তুলেছেন সঞ্চিতা।

Litton Das Wife: লিটন দাস কম রান করুক, কী করে এমন প্রার্থনা করে বাংলাদেশের কিছু সংস্থা! প্রশ্ন তুলেছেন সঞ্চিতা।

  • Share this:

    #ঢাকা: বেশ কিছুদিন ধরেই ফর্মে নেই বাংলাদেশের উইকেটকিপার-ব্যাটার লিটন দাস। ব্যাট থেকে রান আসছে না। এমনকী ক্যাচও ফেলেছেন গুরুত্বপূর্ণ সময়ে। তাঁকে দলে রাখা নিয়েও ক’দিন ধরেই প্রশ্ন উঠছিল। তার উপর এখনও পর্যন্ত টি-২০ বিশ্বকাপে সুপার টুয়েলভে একটি ম্যাচেও জয় পায়নি বাংলাদেশ। ফলে এমনিতেই বাংলাদেশের ক্রিকেট সমর্থকরা ক্ষোভে ফেটে পড়েছেন। তার উপর বাংলাদেশ দলে একের পর এক তারকা ফ্লপ-শো-তেও বিরক্ত তাঁরা।

    খারাপ পারফরমেন্স-এর জন্য বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লিটন দাসকে নিয়ে মিম ছড়ানো হচ্ছে। সমালোচনা হচ্ছে লিটন দাসকে নিয়ে। শুক্রবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজে ম্যাচের আগে ওপার বাংলার কয়েকটি ই-কমার্স সংস্থা তাদের ফেসবুক পেজে লিটন দাসের রান সংখ্যার নিরিখে পণ্যের দামে ডিসকাউন্ট দেওয়ার ঘোষণা করে। যা নিয়ে রীতিমতো ইস্যু খাঁড়া হয়ে যায়। কেউ তা নিয়ে মজা করেছেন। কেউ আবার ব্যাপারটিকে সিরিয়াস নজরে দেখেছেন।

    আরও পড়ুন- জলে বল চুবিয়ে বোলিং শামি, বুমরাহদের, রবিবার টস যার, ম্যাচ তার!

    এবার লিটন দাসের স্ত্রী দেবশ্রী বিশ্বাস সঞ্চিতা ব্যাপারটি নিয়ে সমালোচনা করেছেন। স্বামীর সমর্থনে এগিয়ে এসেছেন তিনি। লিটন দাসের স্ত্রী সেই সব সংস্থার তুলোধনা করেছেন। তিনি বলেছেন, লিটন দাসকে ব্যবহার করে এই ধরণের ব্যবসা কুরুচিকর। লিটন দাসের নাম ব্যবহার করে এই ধরণের ব্যবসায়িক ফায়দা তোলাটা অন্যায়।

    সঞ্চিতা লিখেছেন, ‘কেউ ক্যাচ মিস করলে বা কম রান করলে সেটা আসল সমস্যা নয়। সমস্যা শুধুমাত্র নির্দিষ্ট ব্যক্তি বা তাঁর নামের সঙ্গে হয়। মানুষের উপহাস বা মিম তৈরি করা দেখে আমাদের খারাপ লাগে না। কারণ আমরা ইতিমধ্যেই এসবে অভ্যস্ত। কিন্তু কিছু ব্যবসায়িক পেজ তাঁর (লিটন দাস) নাম ব্যবহার করে পরোক্ষভাবে খারাপ পারফরম্যান্সের জন্য প্রার্থনা করে। এটা তাদের ব্যবসা করার কায়দা। এসব দেখে আমি ভাষা হারিয়ে ফেলি! মানুষ এত নিচু মানসিকতার কীভাবে হয়! একজন ক্রিকেটার যেন আপনার ব্যবসায়িক কৌশলের জন্য ম্যাচে খারাপ রান করে! এটা কখনও কেউ প্রার্থনা করতে পারে! ছি:, লজ্জার ব্যাপার!’

    Published by:Suman Majumder
    First published: