Mamata in Nandigram: মমতার কালীঘাটের বাড়ির 'রেপ্লিকা' হবে নন্দীগ্রামেও! 'বিরাট' প্ল্যান 'অগ্নিকন্যার'

Mamata in Nandigram: মমতার কালীঘাটের বাড়ির 'রেপ্লিকা' হবে নন্দীগ্রামেও! 'বিরাট' প্ল্যান 'অগ্নিকন্যার'

কালীঘাটের বাড়ি হবে নন্দীগ্রামেও

নন্দীগ্রামে ভোটের শেষলগ্নে পৌঁছে প্রচারে ঝড় তুলছেন তৃণমূল নেত্রী। নন্দীগ্রাম তাঁর কতটা কাছের, তা বলতে গিয়ে মমতা বলেন, 'নিজের নাম ভুলে যাব, কিন্তু নন্দীগ্রামের নাম কখনও ভুলব না।'

  • Share this:

    #নন্দীগ্রাম: বিরোধী প্রার্থী এদিনও বলেছেন, 'বেগমকে আমি হারাবই।' আর ১ এপ্রিল ভোটের আগে পাকাপাকিভাবে নন্দীগ্রামে ঘাঁটি গেড়ে তৃণমূল প্রার্থী তথা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বললেন, 'নন্দীগ্রাম আমার প্রাণের জায়গা। আমি চলে এসেছি এখানে। এখন এখানেই থাকব। ভোট করিয়ে যাব। আর আমি এখানে এক বছরের জন্য বাড়িভাড়া নিয়েই নিয়েছি। ২ মে'র পর আবার নন্দীগ্রামের মানুষকে প্রণাম করতে আসব। আমার আসা যাওয়া লেগেই থাকবে। আর আমি তো এখানে আমার কালীঘাটের কুঁড়েঘরের মতোই একটা ঘর বানাব। রেপ্লিকা। আমি তো চিরদিন বেঁচে থাকব না, কিন্তু মানুষ সেই ঘর দেখবে।'

    নন্দীগ্রামে ভোটের শেষলগ্নে পৌঁছে প্রচারে ঝড় তুলছেন তৃণমূল নেত্রী। নন্দীগ্রাম তাঁর কতটা কাছের, তা বলতে গিয়ে মমতা বলেন, 'নিজের নাম ভুলে যাব, কিন্তু নন্দীগ্রামের নাম কখনও ভুলব না।' মনোনয়নপত্র পেশের দিন এই নন্দীগ্রামেই চোট পেয়েছিলেন তৃণমূল নেত্রী। আর তার নেপথ্যে বারবার বিজেপির ষড়যন্ত্রের কথাই তুলে ধরছেন তিনি। যদিও নরেন্দ্র মোদি, অমিত শাহরা বিষয়টিকে অন্য দিকে ঘুরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছেন। বলছেন, 'মমতা দিদি নন্দীগ্রামের মানুষকে অপমান করছেন। সারা দেশের কাছে তাঁদের অপমানিত করেছেন।'

    কিন্তু এদিন মমতা ফের নন্দীগ্রামের রেয়াপাড়ার সভা থেকে সেদিনের পূর্ণাঙ্গ ঘটনার বিবরণ দিয়ে বলেন, 'নন্দীগ্রামের মানুষ তো আমার সঙ্গে কিছু করেনি। তাঁরা তো আমাকে ভালোবাসেন। কিন্তু যাঁরা করেছে, তাঁরা তো বহিরাগতদের হাতের পুতুল এখন। বিহার, উত্তরপ্রদেশ থেকে গুন্ডা নিয়ে এসেছে নন্দীগ্রামে।'

    কেন তিনি নন্দীগ্রামে দাঁড়িয়েছেন, তা এদিনও স্পষ্ট করে দেন তৃণমূল নেত্রী। বলেন, 'নন্দীগ্রামের মানুষের যে লড়াই তাকে সম্মান জানানো কর্তব্য আমার। তাই নন্দীগ্রামে দাঁড়িয়েছি। এক কথায় সিদ্ধান্ত নিয়েছি। নন্দীগ্রামের আন্দোলনে মানুষের যে অবদান, তা রক্ষা করার জন্যই আপনাদের অনুমতি নিয়ে এখানে দাঁড়িয়েছি। আমাকে বহিরাগত বলছে, আমার কি ভোটে দাঁড়ানোর জায়গার অভাব রয়েছে? ভবানীপুর আমাক নিজের জায়গা, প্রতিদিন আমার যাতায়াত, থাকা, সবই। আমি নিশ্চিন্তে ভবানীপুরে দাঁড়াতেই পারতাম। কিন্তু নন্দীগ্রাম আমাকে ডেকেছিল। সেই ডাকে আমি সাড়া দিয়েছি।'

    Published by:Suman Biswas
    First published: