• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • দাদার শ্যালকের সঙ্গে প্রেম! আত্মঘাতী তরুণী

দাদার শ্যালকের সঙ্গে প্রেম! আত্মঘাতী তরুণী

Representative image

Representative image

  • Share this:

    #অন্ডাল : দাদার শ্যালকের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে আত্মহত্যা করলেন তরুণী। ঘটানটি ঘটেছে অন্ডালের বহুলার রিয়েল জামবাদ এলাকায়।

    পারিবারিক সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই অঞ্চলের বাসিন্দা রেণু বাউরি তাঁর বড়দার শ্যালকের সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন। ২২ বছর বয়সি রেণু রাণীগঞ্জের টিডিবি কলেজ থেকে স্নাতক। প্রেমিক সমীর বাউরি ওই এলাকারই বাসিন্দা। এই ঘটনার পর অবশ্য সমীর পলাতক।

    সমীরের দিদি সুচিত্রা বাউরি জানিয়েছেন, সমীরের সঙ্গে রেণুর দীর্ঘদিনের সম্পর্ক! এই বিষয়ে সবাই-ই জানত । তাঁদের সম্পর্ক নিয়ে দুই বাড়ির মধ্যে আলোচনাও হয়। সমীরের পরিবারের সদস্যরা এই বিয়েতে রাজিও ছিলেন। কিন্তু রেণুর পরিবার এই বিয়েতে মত দেয় না। এরপরই তাঁরা লাউদোহা এলাকার মিন্টু বাউড়ি নামে এক যুবকের সঙ্গে রেণুর বিয়ে ঠিক করেন।

    কিন্ত, রেণুর অন্য কারও সঙ্গে বিয়ে হবে, এটা কিছুতেই মেনে নিতে পারেন না সমীর! অভিযোগ, রেণুর বিয়ের কথা জানার পর থেকেই তাঁকে নানাভাবে মানসিক অত্যাচার করতেন সমীর। অন্যদিকে, রেণুর দিদি রিঙ্কু বাউরির অভিযোগ, সমীর রেণুর হবু বর মিন্টুর সঙ্গে যোগাযোগ করে রেণু এবং তাঁর সম্পর্কের কথা জানান। শুক্রবার সকালে সমীর ও মিন্টু রেণুর বাড়িতে গিয়ে ঝগড়া, অশান্তিও করেন। এইরকম একটা অসহনীয় পরিস্থিতিতে রেণু বাধ্য হয় আত্মহত্যা করতে!

    নিজের ঘরে, গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেন রেণু বাউরি। মিন্টু ও সমীরের বিরুদ্ধে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগ এনেছে রেণুর পরিবার। পুলিশ মৃতদেহ ময়নাতদন্তর জন্য দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালে পাঠিয়েছে । ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে অন্ডাল থানার পুলিশ। তবে, এখনও পর্যন্ত কোনো অভিযুক্তই ধরা পড়েননি ।

    আরও পড়ুন-বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে নাবালিকাকে গণধর্ষণ

    First published: