Fake Sanitizer : সাবধান! বাজারে ভরপুর বিকোচ্ছে নকল স্যানিটাইজার, গ্রেফতার ৪

স্যানিটাইজার কালোবাজারি বাড়ছে ছবি : প্রতীকী

জালিয়াতিতে সক্রিয় হয়ে উঠেছে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী চক্র। চড়া দামে নকল হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিক্রি করছে তারা। ইতিমধ্যেই বর্ধমানে বেশ কয়েকশো লিটার হ্যান্ড স্যানিটাইজার(Fake Sanitizer) বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

  • Share this:

#বর্ধমান : নকল স্যানিটাইজার(Fake Sanitizer) থেকে সাবধান।এই অতিমারি পরিস্থিতির সুযোগ নিয়ে চলছে নকল স্যানিটাইজারের কালোবাজারি। করোনার হাত থেকে সুরক্ষিত রাখতে নাগরিকদের বারবার মাস্ক ব্যবহারের পাশাপাশি স্যানিটাইজারে হাত পরিষ্কার রাখার পরামর্শ দিয়ে আসছেন চিকিৎসকরা।অনেকে নিয়মিত হ্যান্ড স্যানিটাইজার কিনছেন। সেই সুযোগে জালিয়াতিতে সক্রিয় হয়ে উঠেছে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী চক্র। চড়া দামে নকল হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিক্রি করছে তারা। ইতিমধ্যেই বর্ধমানে বেশ কয়েকশো লিটার হ্যান্ড স্যানিটাইজার(Fake Sanitizer) বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

নকল স্যানিটাইজার বিক্রির অভিযোগে বর্ধমানে গ্রেফতার হয়েছে চক্রের চার পাণ্ডা।স্যানিটাইজার নিয়ে কালোবাজারির হদিস পে বর্ধমান পুলিশের এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চ ও ড্রাগ কন্ট্রোল ব্যুরো। বাজেয়াপ্ত হয়েছে চারশো লিটার নকল স্যানিটাইজার। পূর্ব বর্ধমান জেলা এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চ ও ড্রাগ কন্ট্রোল ব্যুরোর আধিকারিকরা গোপন সূত্রে খবর পেয়ে বর্ধমান শহরের একাধিক জায়গায় অভিযান চালায়। শহরের কালীবাজার এলাকার প্রসেনজিৎ দাস নামে এক ব্যক্তির বাড়ি থেকে ২৫০লিটার ভেজাল স্যানিটাইজার উদ্ধার হয়েছে।

পাশাপাশি শহরের অনিতা সিনেমা লেনে কল্যাণী মার্কেট সংলগ্ন এলাকা থেকে আরও ৫০লিটার ভেজাল স্যানিটাইজার বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।এই ঘটনায় ৪ জন স্যানিটাইজার বিক্রেতাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আরও বিভিন্ন জায়গায় অতর্কিতে অভিযান চালানো হবে। ড্রাগ ইন্সপেক্টর কৌশিক মাইতি বলেন, বিশেষ সূত্রে খবরের ভিত্তিতে বর্ধমান শহরের বেশ কয়েকটি জায়গায় নকল স্যানিটাইজার বিক্রির বিরুদ্ধে অভিযান চালানো হয়েছে। প্রায় চারশো লিটার স্যানিটাইজার বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। আর কোথায় কোথায় এই স্যানিটাইজার পাঠানো হয়েছিল তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তিনি জানিয়েছেন, স্যানিটাইজার বোতলগুলিতে কোনও ব্যাচ নং ছিল না।  উৎপাদনের তারিখ এবং মেয়াদ উত্তীর্ণ হওয়ার তারিখ ছাড়াই এই সমস্ত স্যানিটাইজার বিক্রি হচ্ছিল। যা সম্পূর্ণ বেআইনি। এই সমস্ত স্যানিটাইজারের গুনগত মান পরীক্ষার জন্য ল্যাবরেটরিতে পাঠানো হচ্ছে। জেলা জুড়ে নকল স্যাটাইজার বিক্রির বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানিয়েছেন ড্রাগ ইন্সপেক্টর।

Published by:Sanjukta Sarkar
First published: