• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • West Bengal Election : তৃতীয় দফা, ৩১ আসন : ২০১৯-এর ফলাফলের লেন্সে দেখে নিন কারা কোথায়

West Bengal Election : তৃতীয় দফা, ৩১ আসন : ২০১৯-এর ফলাফলের লেন্সে দেখে নিন কারা কোথায়

প্রতীকী চিত্র

প্রতীকী চিত্র

২০১৬-এর বিধানসভা (West Bengal Assembly Election) নির্বাচনে এই ৩১টির মধ্যে ৩০টি আসনেই জয়লাভ করেছিল তৃণমূল। কিন্তু তারপরে কতটা বদলে গিয়েছিল ভোট-সমীকরণ?

  • Share this:

    #কলকাতা : রাত পোহালেই ভোট( Assembly Election 2021)। বাংলায় আট দফার নির্বাচনের তৃতীয় দফা মঙ্গলবার। মোট ৩১টি কেন্দ্রে চলবে ভোট গ্রহণ। হাওড়া, হুগলি ও দক্ষিণ ২৪ পরগণা জেলার বেশ কিছু উল্লেখযোগ্য কেন্দ্র রয়েছে এই তালিকায়। মনোনয়ন পত্র জমা নেওয়া শেষ হয়েছে গত ১৯ মার্চ। প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ছিল ২২ মার্চ।

    দক্ষিণ ২৪ পরিগনার যে ১৬টি আসনে (Constituency) ৬ এপ্রিল ভোট নেওয়া হবে সেগুলো হল বাসন্তী, কুলতলি, কুলপি, রায়দিঘি, মন্দিরবাজার, জয়নগর, বারুইপুর পূর্ব, ক্যানিং পশ্চিম, ক্যানিং পূর্ব, বারুইপুর পশ্চিম, মগরাহাট পূর্ব, মগরাহাট পশ্চিম, ডায়মন্ড হারবার, ফলতা, সাতগাছিয়া, বিষ্ণুপুর। হুগলির ৮টি আসনে ভোটগ্রহণ হবে। এগুলি হল খানাকুল, জাঙ্গিপাড়া, গোঘাট, হরিপাল, আরামবাগ, ধনেখালি, পুরশুড়া, তারকেশ্বর। এছাড়া হাওড়ার ৭টি আসন হল উদয়নারায়ণপুর, জগৎবল্লভপুর, উলুবেড়িয়া উত্তর, উলুবেড়িয়া দক্ষিণ, বাগনান, শ্যামপুর, আমতা।

    ২০১৬-এর বিধানসভা (West Bengal Assembly Election) নির্বাচনে এই ৩১টির মধ্যে ৩০টি আসনেই জয়লাভ করেছিল তৃণমূল। শুধুমাত্র আমতায় কংগ্রেস জিতেছিল। কিন্তু ২০১৬ থেকে ২০১৯, এই তিন বছরে সমীকরণ পাল্টে যায়। ২০১৯ এর লোকসভা অভূতপূর্ব ফল করে বিজেপি। রাতারাতি তৃণমূলের প্রতিপক্ষ হিসেবে উঠে আসে গেরুয়া শিবির। আসুন দেখে নেওয়া যাক ২০১৯-এর নির্বাচনে এই ৩১টি আসনের মধ্যে কে কোথায় এগিয়েছিল।

    ২০১৯-এর লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল অনুযায়ী জয়নগর কেন্দ্রের অন্তর্গত বাসন্তী, কুলতলি, জয়নগর,মগরাহাট পূর্ব, ক্যানিং পশ্চিম, ক্যানিং পূর্ব বিধানসভা আসনে এগিয়েছিল তৃণমূল। বাসন্তীতে সেবার তৃণমূল পেয়েছিল ১ লক্ষ ১৩ হাজার ৩৮৪টি ভোট। আর বিজেপি পেয়েছিল ৭২ হাজার ২৩৬টি ভোট। বামপ্রার্থীর প্রাপ্ত ভোট ছিল ১২,৫৩৯। কুলতলিতে ঘাসফুল শিবির মোট ভোট পেয়েছিল ৮৭ হাজার ১০৬টি আর বিজেপি ভোট পেয়েছিল ৭৮ হাজার ৬৯৫টি। বাম প্রার্থী পেয়েছিলেন ১০,১২৫ ভোট।

    জয়নগর- তৃণমূল পেয়েছিল ৮৯ হাজার ৬৭২টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৭৩ হাজার ৯৫টি ভোট। ক্যানিং পূর্ব- তৃণমূল পেয়েছিল ১ লক্ষ ৬৬ হাজার ৮৯৭টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ২৩ হাজার ৭২৪টি ভোট। ক্যানিং পশ্চিম- তৃণমূল পেয়েছিল ১ লক্ষ ২ হাজার ৪০২টি ভোট। আর বিজেপি পেয়েছিল ৭৭ হাজার ৫৬টি ভোট।

    মগরাহাট পূর্ব- তৃণমূল পেয়েছিল ৯৯ হাজার ৯৫১টি বত। বিজেপি পেয়েছিল ৬২ হাজার ৩০৭টি ভোট। মগরাহাট পশ্চিম- তৃণমূল পেয়েছিল ৯৯ হাজার ৫১১টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৪৮ হাজার ৪২০টি ভোট। ডায়মন্ডহারবার- তৃণমূল পেয়েছিল ১ লক্ষ ৯ হাজার ১৩৪টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৭৩ হাজার ৬৭৩টি ভোট।

    ফলতা- তৃণমূল পেয়েছিল ১ লক্ষ ১৪ হাজার ৬৮৯টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৭০ হাজার ৯১২টি ভোট। সাতগাছিয়া- তৃণমূল পেয়েছিল ১ লক্ষ ১৪ হাজার ৬৮৯টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৮৬ হাজার ৭৬১টি ভোট। বিষ্ণুপুর- তৃণমূল পেয়েছিল ১ লক্ষ ১৭ হাজার ৬১৭টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৭৩ হাজার ৫২৯টি ভোট।

    কুলপি- তৃণমূল পেয়েছিল ৯০ হাজার ৫১২টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৬৪ হাজার ৮২৪টি ভোট। রায়দিঘী- তৃণমূল পেয়েছিল ১ লক্ষ ৪ হাজার ২৬১টি ভোট বিজেপি পেয়েছিল ৯১ হাজার ৩৪২টি ভোট। মন্দিরবাজার- তৃণমূল পেয়েছিল ৯৩ হাজার ৮১৯টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৭২ হাজার ৫৯৫টি ভোট। বারুইপুর পূর্ব- তৃণমূল পেয়েছিল ৯৯ হাজার ৭১৯টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৭২ হাজার ২১৪টি ভোট। বারুইপুর পশ্চিম- তৃণমূল পেয়েছিল ৯৪ হাজার ৩৫৯টি ভোট। বিজেপি পেয়েছিল ৫৯ হাজার ৩২৭টি ভোট।

    উলুবেড়িয়া উত্তর- ৮২ হাজার ৮৭১ ভোট পেয়ে ছিল তৃণমূল। বিজেপির প্রাপ্ত ভোট ৬৮ হাজার ৮৮৮ ভোট। উলুবেড়িয়া দক্ষিণ- ৯৬ হাজার ৪৪৫ ভোট পেয়ে এগিয়ে তৃণমূল। বিজেপি ৭১ হাজার ৪৯৮। শ্যামপুর- তৃণমূল ১ লক্ষ ৭ হাজার ৮৬৭। বিজেপি ৭৬ হাজার ৫৭৩। বাগনান- তৃণমূল ১ লক্ষ ৯ হাজার ৭০। বিজেপি ৬০ হাজার ৭৭৬।আমতা- তৃণমূল ১ লক্ষ ৪ হাজার ২৫৯। বিজেপি ৬৬ হাজার ৭৮৫। উদয়নারায়ণপুর- তৃণমূল ১ লক্ষ ৭ হাজার ৯২৬। বিজেপি ৬৮ হাজার ১০৫। জগৎবল্লভপুর- তৃণমূল ১ লক্ষ ৫৭১। বিজেই ৮৮ হাজার ৬৪১।

    হুগলি জেলার পরিসংখ্যানের নিরিখে দেখলে জাঙ্গিপাড়া- তৃণমূল ৯৩ হাজার ৯৫৮। বিজেপি ৮২ হাজার ২৬। হরিপাল- তৃণমূল ৯৫ হাজার ২৯৫। বিজেপি ৮৫ হাজার ৭৩১। তারকেশ্বর- তৃণমূল ৮৮ হাজার ৯৬। বিজেপি ৮৩ হাজার ৭৫৩। পুরশুড়া- বিজেপি ১ লক্ষ ৭ হাজার ৭৫৯। তৃণমূল ৮১ হাজার ৯১৭। আরামবাগ- তৃণমূল ৯৩ হাজার ৮৮৩। বিজেপি ৮৯ হাজার ৮৭৬। গোঘাট- বিজেপি ৯৫ হাজার ২৮৪। তৃণমূল ৮১ হাজার ২১৭। খানাকুল- তৃণমূল ৯৬ হাজার ৪০৫। বিজেপি ৮২ হাজার ১৮৩। ধনেখালি- তৃণমূল ১ লক্ষ ৯ হাজার ৪৮২। বিজেপি ৯৭ হাজার ৪৮০।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: