Home /News /south-bengal /
গাছ বাঁচিয়েই অর্থ উপার্জন! স্বপ্ন দেখাচ্ছেন এই প্রতিবন্ধী যুবকদের দল

গাছ বাঁচিয়েই অর্থ উপার্জন! স্বপ্ন দেখাচ্ছেন এই প্রতিবন্ধী যুবকদের দল

এভাবেই চলছে গাছ রক্ষণাবেক্ষণ।

এভাবেই চলছে গাছ রক্ষণাবেক্ষণ।

দু'মাসের মধ্যেই এখন রাস্তার ধার ভরেছে চোখ-জুড়ানো গাছ। সবুজের হাতছানি দিচ্ছে পথচলতি পথচারীদের।

  • Share this:

#মুরারই: অনেক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন বা সাধারণ মানুষ সমাজকে বার্তা দিয়ে রাস্তার ধারে গাছ লাগায়। সেখানে পোস্টারে লেখা থাকে ‘দূষণমুক্ত জীবন চাও? গাছ লাগাও গাছ বাঁচাও কিন্তু বেশির ভাগ জায়গাতে পরে সেই ছবি দেখা যায়না চারা  গাছ গুলি রক্ষণাবেক্ষণ অভাবে মারা যায় যারফলে যেই উদ্যেশে চারা গাছ লাগানো সেটা বিফলে যায়।শুধু গাছ লাগালেই হবে না, চাই রক্ষণাবেক্ষণ। তবেই গাছ লাগানো সার্থক হবে। সেই বার্তা বাস্তবে দেখা গেল বীরভূমের মুরারই ১ নম্বর ব্লকে।

রাজগ্রাম যাবার রাস্তার ধারে ধারে কয়েক মাস আগে লাগানো হয় কৃষ্ণচূড়া গাছ। সেই গাছকে সঠিকভাবে বাড়িয়ে তুলতে স্থায়ী কংক্রিটের বেড়া এবং রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্ব দেওয়া হয় এলাকার প্রতিবন্ধী যুবকদের। গাছের গায়ে নম্বর দেওয়া-সহ খুঁটিনাটি দেখভাল করছেন তাঁরাই। একদিকে গাছ বাড়ছে অন্য দিকে উত্তম রবিদাস,মকিবুদ্দিন শেখ এই যুবকরা পেয়েছেন কর্মসংস্থানের সুযোগ। দু'মাসের মধ্যেই এখন রাস্তার ধার ভরেছে চোখ-জুড়ানো গাছ। সবুজের হাতছানি দিচ্ছে পথচলতি পথচারীদের।

মুরারই ১ নাম্বার ব্লকের আধিকারিক নিশীথ ভাস্কর পাল বলছিলেন, শুধু গাছ লাগালেই হবে না, চাই রক্ষণাবেক্ষণ তবেই গাছ লাগানো সার্থক হবে। তাই সেই উদ্যেগে ব্লকের তরফ থেকে গাছ গুলি দেখভালের জন্য কিছু যুবকে নিয়োগ করা হয়েছে স্থানীয় বিশেষ ক্ষমতাসম্পন্ন যুবকদের। তাঁদের পারিশ্রমিক দিয়েই দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে, যাতে গাছগুলি সঠিকভাবে রক্ষণাবেক্ষণ হয়  পাশাপাশি এই কঠিন সময়ে এই যুবকরা  কর্মসংস্থান পান।

AKSHOY DHIBAR

Published by:Arka Deb
First published:

পরবর্তী খবর