Home /News /purba-bardhaman /
East Bardhaman News: টোটো দূর্ঘটনা কমাতে নির্দেশিকা কেতুগ্রাম প্রশাসনের

East Bardhaman News: টোটো দূর্ঘটনা কমাতে নির্দেশিকা কেতুগ্রাম প্রশাসনের

দূর্ঘটনা এড়াতে টোটো নিয়ে বিশেষ পদক্ষেপ পূর্ব বর্ধমান জেলার কেতুগ্রাম পুলিশ প্রশাসনের

  • Share this:

    #পূর্ব বর্ধমান: দূর্ঘটনা এড়াতে টোটো নিয়ে বিশেষ পদক্ষেপ পূর্ব বর্ধমান জেলার কেতুগ্রাম পুলিশ প্রশাসনের।টোটো দূর্ঘটনা এবং যাত্রী সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে কেতুগ্রাম পুলিশ প্রশাসন টোটো চালকদের উদ্দেশ্য কয়েকটি নির্দেশ দিয়েছে প্রশাসন। টোটোতে ডানদিকে গার্ডের ব্যবস্থা করতে হবে, দুদিক থেকে প্যাসেঞ্জার তোলা বা নামানো যাবে না। শুধু মাত্র টোটোর বাঁদিকে প্যাসেঞ্জার তোলা এবং নামাতে হবে, টোটোতে পাঁচ জনের বেশি যাত্রি তোলা যাবে না। এই নিয়মে সহমত জানিয়েছে টোটো চালক থেকে যাত্রি সকলেই।

    টোটো নিয়ে সবসময়ই সমস্যায় পড়তে হয় প্রশাসনকে। টোটোর জন্য নাজেহাল হতে হয় জেলার প্রশাসনিক মহলকে। প্রায় প্রতিদিনই টোটোর দূর্ঘটনা ঘটছে। যার মূলত কারণ টোটোর দুদিক থেকে মেসেঞ্জার নামেন। অন্যদিকে টোটোর ওজন খুবই হালকা, তবে চালকরা টোটোতে যাত্রী নেন পাঁচ জন। যা টোটো চলার ক্ষেত্রে ঝুঁকিপূর্ণ। ফলে দূর্ঘটনা ঘটে প্রায়। তাই টোটোর দূর্ঘটনা এড়াতে এই বিশেষ নির্দেশ দিল কেতুগ্রাম প্রশাসন।

    আরও পড়ুন - দুর্গাপুরে জোর দৌড়াদৌড়ি, ড্রেনের জলে হুড়মুড়িয়ে ভেসে আসছে ৫০০ টাকার নোট, তারপর

    কেতুগ্রামের এক টোটো চালক দেবাশীষ বিশ্বাস বলেন, টোটো চালকরা বললেও কোনও কথা শুনতে চাননা যাত্রীরা। টোটো যেহেতু দুদিক খোলা টাই দুদিক থেকেই নামেন। যার ফলে অনেক সময় দূর্ঘটনা ঘটে। তবে এখন প্রশাসন যে নির্দেশ দিয়েছে তাতে এবার থেকে আর কেউ ডান দিক থেকে নামতে পারবেন না। টোটোতে দড়ি, রড যে যা পেরেছে লাগিয়ে দিয়েছে। এবার টোটোর দূর্ঘটনা কিছুটা হলেও কমবে।

    এ নিয়ে এক টোটো যাত্রী তাপস ঘোষ বলেন, প্রসাশনের এই নির্দেশ খুবই ভালো। এই নির্দেশের পর কিছুটা হলেও সাধারণ মানুষ সচেতন হবেন। শুধু টোটো চালকদের দোষ নয়। অনেক ক্ষেত্রে টোটো যাত্রীরাও নিজের ইচ্ছে মত ডান দিক থেকে নামতে যান আর তখনই পিছন থেকে আসা কোনো গাড়ি এসে দূর্ঘটনা ঘটায়।

    সব মিলিয়ে কেতুগ্রাম প্রশাসনের এই নির্দেশে খুশি সকলেই। তবে এখন এটাই দেখার কত দিন এই নির্দেশ মেনে চলেন সকলে।

    Malobika Biswas

    Published by:Ananya Chakraborty
    First published:

    Tags: Bardhwan news, East Bardhaman

    পরবর্তী খবর