‘১৮ নয়, মেয়েদের বিয়ের বয়স হওয়া উচিত আরও কম’

Representational Image

‘সংবাদমাধ্যমের হাতে মশালা খবর তুলে দেবেন না ৷’ প্রধানমন্ত্রীর এই নির্দেশেও শেষরক্ষে হল না ৷ কে শোনে কার কথা ?

  • Share this:

    #ভোপাল: ‘সংবাদমাধ্যমের হাতে মশালা খবর তুলে দেবেন না ৷’ প্রধানমন্ত্রীর এই নির্দেশেও শেষরক্ষে হল না ৷ কে শোনে কার কথা ? ফের বিতর্কিত মন্তব্য করে মোদি সরকারকেই বিপাকে ফেলে দিলেন মধ্যপ্রদেশের বিজেপি বিধায়ক গোপাল পার্মার ৷

    মেয়েদের বিয়ের জন্য ১৮ বছর অবধি কেন অপেক্ষা করা হয় ? কেন শিশু বয়সে বিয়ে দিয়ে দেওয়া হয়না তাদের ? তাহলে অল্প বয়সে বাড়ি থেকে পালিয়ে যাওয়া কিংবা লাভ জিহাদের মত ঘটনা অনেকাংশে কমে আসবে ৷ মেয়েদের বিয়ের বয়স নির্ধারিত করার পাশাপাশিই সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের প্রতিই তিনি নিশানা করলেন ৷

    একদিকে দেশের মেয়েদের বাল্যবিবাহ রুখতে বেটি বাঁচাও বেটি পড়াও স্কিমের সূচনা করেছেন প্রধানমন্ত্রী ৷ অপরদিকে, সেই দলের অন্দরে থেকেই এহেন বিতর্কিত মন্তব্য যথেষ্ট বিপাকে ফেলেছে বিজেপি সরকারকে ৷ কারণ বিজেপির এই কেন্দ্রীয় মন্ত্রী উল্টে বাল্য বিবাহের প্রতিই সরব হয়েছেন ৷

    পার্মারের কথায়,

    আজকালকার যুগে মেয়েদের প্রতি একেবারেই নজর দেওয়া হয় না ৷ পড়তে যাওয়ার নাম করে তারা অন্য ছেলেকে বিয়ে করে পালিয়ে যায় ৷ আর এতেই আমাদের সমাজ অবক্ষয়ের দিকে এগিয়ে চলেছে ৷ আর শুধু পালিয়ে যাওয়াই নয় ৷ লাভ জিহাদের মত ঘটনাও ঘটছে এর ফলে ৷

    মেয়েদের বিয়ের জন্য ১৮ বছর নির্ধারিত করা হয়েছে ৷ কিন্তু সেই বয়সটার জন্যই নাকি মেয়েরা বারবার ভুলের ফাঁদে পা দিচ্ছে ৷ তাই এই সিদ্ধান্তটি সামাজিক সমস্যার উদ্রেক করছে বলেই দাবি করেন পার্মার ৷

    First published: