• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • TMC reaction on farm laws repealed: 'মোদি যুগের শেষের শুরু', দাবি সুখেন্দুর, গণতন্ত্রের জয় দেখছেন সৌগত

TMC reaction on farm laws repealed: 'মোদি যুগের শেষের শুরু', দাবি সুখেন্দুর, গণতন্ত্রের জয় দেখছেন সৌগত

কৃষি আইন প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তে খুশি তৃণমূল৷ Photo-PTI/ANI

কৃষি আইন প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তে খুশি তৃণমূল৷ Photo-PTI/ANI

এ দিনই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ঘোষণা করেছেন, সংশোধিত তিনটি কৃষি আইনই প্রত্যাহার করে নিচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকার (Farm Laws Repealed)৷

  • Share this:

    #কলকাতা: মোদি যুগের শেষের শুরু৷ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি তিন কৃষি আইন প্রত্যাহারের ঘোষণা করার পর এমনই প্রতিক্রিয়া দিলেন তৃণমূল সাংসদ সুখেন্দুশেখর রায় (TMC reaction on farm laws repealed)৷ আর এক তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায় অবশ্য কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্তকে গণতন্ত্রের জয় হিসেবেই দেখছেন৷ তার দাবি, সংসদের শীতকালীন অধিবেশনের সময় বিক্ষোভ এড়াতেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার (=farm laws repealed)৷

    এ দিনই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Modi Speech) ঘোষণা করেছেন, সংশোধিত তিনটি কৃষি আইনই প্রত্যাহার করে নিচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকার৷ আগামী ২৯ নভেম্বর থেকে সংসদে অধিবেশন শুরু হলেই আইন প্রত্যাহারের সাংবিধানিক প্রক্রিয়া সরকার শুরু করবে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী৷ কৃষকদের আন্দোলন প্রত্যাহার করে বাড়ি ফিরে নেওয়ার জন্য অনুরোধও করেছেন প্রধানমন্ত্রী৷

    আরও পড়ুন: তিন কৃষি আইন প্রত্যাহার, দেশবাসীর কাছে ক্ষমা চেয়ে বড় ঘোষণা নরেন্দ্র মোদির

    প্রথম থেকেই কৃষকদের এই আন্দোলনে সমর্থন জানিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং তৃণমূল কংগ্রেস৷ দিল্লি সীমান্তে গিয়ে আন্দোলনরত কৃষকদের সঙ্গে দেখা করে আসেন তৃণমূল সাংসদরা৷ তিন আইন প্রত্যাহারের দাবিতে সরব হন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ কলকাতায় এসে মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে যান কৃষক নেতা রাকেশ টিকায়েত৷ ফলে কৃষি আইন প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তে স্বভাবতই খুশি তৃণমূল৷

    কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্তকে গণতন্ত্রের জয় বলে ব্যাখ্যা করে তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায় বলেন, 'কৃষকরা দিল্লির সীমান্তে নিরবিচ্ছিন্ন আন্দোলন করেছেন৷ রোদ, জল, ঠান্ডার মধ্যে আন্দোলন করতে গিয়ে অনেক কৃষক মারা গিয়েছেন৷ লখিমপুরে বিজেপি-র মন্ত্রীর ছেলে গাড়ি চাপা দিয়ে চারজন কৃষককে মেরেছে৷ হরিয়ানার কোনও গ্রামে মন্ত্রীদের ঢুকে সভা করতে দেয়নি কৃষকরা৷ অবশেষে কেন্দ্রীয় সরকার এবং নরেন্দ্র মোদি কৃষকদের দাবির সামনে নত হয়েছেন৷ কৃষককরা আগে থেকেই বলেছিলেন, এই তিন আইন চালু হলে ন্যূনতম সহায়ক মূল্যের ব্যবস্থা বন্ধ হবে, পুঁজিপতি ব্যবসায়ীরা লাভবান হবেন৷ এই আইন প্রত্যাহারের ফলে কৃষকদের সেই আশঙ্কা দূর হল৷'

    আর এক তৃণমূল সাংসদ সুখেন্দুশেখর রায় বলেন, 'এই সিদ্ধান্ত থেকেই স্পষ্ট মোদি যুগের শেষের শুরু৷ ফেব্রুয়ারি মাসে যে রাজ্যগুলিতে নির্বাচন আছে, সেখানে নিজেদের হার নিশ্চিত বুঝতে পেরেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার৷' তৃণমূলের রাজ্যসভার সাংসদের আরও দাবি, শুধু কৃষি আইন প্রত্যাহার করলেই হবে না৷ বরং কৃষি আইন প্রত্যাহারের দাবিতে আন্দোলন করতে গিয়ে যে কৃষকদের মৃত্যু হয়েছে, তাঁদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দিতে হবে কেন্দ্রীয় সরকারকে৷ কৃষি আইন প্রত্যাহার আসলে 'অহঙ্কারের পরাজয়' বলে কটাক্ষ করেছেন তৃণমূল সাংসদ ডেরেক ও ব্রায়েন৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: