• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • SUDIP ROY BARMAN CRITICIZES BIPLAB DEB FOR ATTACK ON OPPOSITION IN TRIPURA DMG

Sudip Roy Barman criticizes Biplab Deb: 'মানুষ ক্ষমা করবে না', বিপ্লব দেব সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন সুদীপ রায় বর্মন

ফের বিপ্লব দেবকে নিশানা করলেন সুদীপ৷

সুদীপ রায় বর্মনের সঙ্গে বিপ্লব দেবের (Biplab Deb) সংঘাত অনেক দিন ধরেই বিজেপি-র মাথাব্যথার কারণ৷ এমন কি, বিক্ষুব্ধ এই বিধায়ক তৃণমূলে (TMC) যোগ দিতে পারেন, এই জল্পনাও তুঙ্গে (Sudip Roy Barman criticizes Biplab Deb)৷

  • Share this:

#আগরতলা: ফের কার্যত বিপ্লব দেব সরকারের বিরুদ্ধেই তোপ দেগে বিজেপি-র অস্বস্তি বাড়ালেন সুদীপ দেব বর্মন৷ ত্রিপুরার আইনশৃঙ্খলা নিয়েই সরাসরি প্রশ্ন তুলে দিয়েছেন ত্রিপুরার এই বিক্ষুব্ধ বিজেপি বিধায়ক (Sudip Roy Barman criticizes Biplab Deb)৷ সুদীপ রায় বর্মনের অবশ্য দাবি, ত্রিপুরায় বিরোধীদের উপরে যেভাবে আক্রমণ হচ্ছে, তা দলের শীর্ষ নেতৃত্বও পছন্দ করে না৷

সুদীপ রায় বর্মনের সঙ্গে বিপ্লব দেবের (Biplab Deb) সংঘাত অনেক দিন ধরেই বিজেপি-র মাথাব্যথার কারণ৷ এমন কি, বিক্ষুব্ধ এই বিধায়ক তৃণমূলে (TMC) যোগ দিতে পারেন, এই জল্পনাও তুঙ্গে৷ তা সত্ত্বেও এখনও বিপ্লব দেবের উপরেই ভরসা রেখেছে বিজেপি-র কেন্দ্রীয় নেতারা৷ কয়েকদিন আগে বিপ্লব দেব সরকারের মন্ত্রিসভার সম্প্রসারণ হলেও তাতে জায়গা হয়নি সুদীপ রায় বর্মন বা তাঁর কোনও অনুগামীর৷ তার পরে ফের এ দিন রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে সরব হয়ে দলকে ফের একবার নিজের মনোভাব বুঝিয়ে দিলেন বিজেপি বিধায়ক (BJP)৷

আরও পড়ুন: আগরতলায় অভিষেকের মিছিলের অনুমতি চেয়ে ফের আবেদন তৃণমূলের, এবার আদালতে যাওয়ার হুঁশিয়ারি

গত কয়েকদিন ধরেই রাজনৈতিক সংঘর্ষের ঘটনায় উত্তপ্ত ত্রিপুরা৷ তৃণমূলের পর সিপিএমের সঙ্গেও বিজেপি-র সরাসরি সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে, জ্বলেছে আগুন৷ এই প্রসঙ্গ তুলেই সুদীপ রায় বর্মন বলেন, ''নরেন্দ্র মোদীর 'সবকা সাথ, সবকা বিকাশ' থেকে সরে এলে মানুষ আমাদের ক্ষমা করবে না।

গত কয়েকদিন ধরে যারা অশান্তি করেছে তাদের মানুষ ক্ষমা করবে না। এরা কেউই বিজেপির হিতাকাঙ্ক্ষী নয়। আমি দিল্লিতে জে পি নাড্ডা, অমিত শাহ, বি এল সন্তোষ এবং হিমন্ত বিশ্ব শর্মার সঙ্গে দেখা করেছি। তাঁদের সামনে রাজ্যের অবস্থা তুলে ধরেছি। দলের শীর্ষ নেতৃত্ব এই আচরণের কথা শুনে ধিক্কার জানিয়েছে।দল কোনও দিন এই সব কাজে প্রশ্রয় দেয় না। পুলিশ অভিযুক্তদের চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নিক।''

এখানেই না থেমে সুদীপ রায় বর্মনের দাবি, 'এভাবে চলতে থাকলে মানুষ ভাববে অরাজকতা চলছে, আইনশৃঙ্খলা বলে কিছু নেই।মুখ্যমন্ত্রী সবার নিরাপত্তা নিশ্চিত করুন।ক্রিমিনালরা ক্রিমিনালই হয়। এদের বিরুদ্ধে প্রশাসন ও দলগত ভাবে ব্যবস্থা নেওয়া হোক।' রাজনৈতিক মহলের ব্যাখ্যা, এই ধরনের মন্তব্য করে মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবের উপরে একদিকে যেমন চাপ সৃষ্টি করলেন, তেমনই তিনি দলবিরোধী নন, শীর্ষ নেতৃত্বের প্রশংসা করে সেটাই বুঝিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করলেন পোড়খাওয়া এই রাজনীতিক৷ যদিও শেষ পর্যন্ত বিজেপি-র সঙ্গে সুদীপের সম্পর্ক কতদিন স্থায়ী হয়, তা নিয়েই এখন ত্রিপুরার রাজনীতিতে জোর চর্চা৷

Published by:Debamoy Ghosh
First published: