• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • Job Loss Survey Report: করোনায় চাকরি খুইয়ে ভিক্ষা করছেন বহু মানুষ! রিপোর্টে চাঞ্চল্যকর তথ্য

Job Loss Survey Report: করোনায় চাকরি খুইয়ে ভিক্ষা করছেন বহু মানুষ! রিপোর্টে চাঞ্চল্যকর তথ্য

ইনস্টিটিউট অফ হিউম্যান ডেভেলপমেন্ট- এর সেই সার্ভের রিপোর্ট বলছে, করোনা মহামারীর এই চূড়ান্ত দুঃসময়ে বহু মানুষ কাজ হারিয়েছেন।

ইনস্টিটিউট অফ হিউম্যান ডেভেলপমেন্ট- এর সেই সার্ভের রিপোর্ট বলছে, করোনা মহামারীর এই চূড়ান্ত দুঃসময়ে বহু মানুষ কাজ হারিয়েছেন।

ইনস্টিটিউট অফ হিউম্যান ডেভেলপমেন্ট- এর সেই সার্ভের রিপোর্ট বলছে, করোনা মহামারীর এই চূড়ান্ত দুঃসময়ে বহু মানুষ কাজ হারিয়েছেন।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি:

    করোনা মহামারীর জেরে দেশের আর্থিক পরিস্থিতি খুবই খারাপ। বহু মানুষ কাজ হারিয়েছেন। এমন সব খবর তো গত এক দেড় বছরে আপনারা অনেক পড়েছেন, শুনেছেন। কিন্তু এবার যে খবর সামনে আসছে সেটা শুনে আপনাদের মন খারাপ হয়ে যেতে পারে আরও কয়েকগুণ বেশি। দিল্লি সরকারের একটি সাম্প্রতিক সমীক্ষার রিপোর্ট বলছে, দিল্লির রাস্তায় গত কয়েক মাসে ভিখারির সংখ্যা বেড়েছে কয়েক গুণ। ইনস্টিটিউট অফ হিউম্যান ডেভেলপমেন্ট- এর সেই সার্ভের রিপোর্ট বলছে, করোনা মহামারীর এই চূড়ান্ত দুঃসময়ে বহু মানুষ কাজ হারিয়েছেন। বেকার হয়ে পড়েছেন অসংখ্য মানুষ। চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি থেকে এপ্রিল মাস পর্যন্ত এই সমীক্ষা চালানো হয়েছিল। সেখানে উঠে এসেছে এই চাঞ্চল্যকর তথ্য। দিল্লির রাস্তায় এখন 52 শতাংশ বেড়েছে বেকারের সংখ্যা। গত পাঁচ বছর ধরে বহু নতুন ভিখারি দেখা গিয়েছে দিল্লির রাস্তায়। সমীক্ষার রিপোর্ট বলছে, মাত্র ৮ শতাংশ ভিখারি ছোটবেলা থেকে ভিক্ষা করতে বাধ্য হয়েছে।

    আইএইচডি-র রিপোর্ট বলছে, দারিদ্র্য, বেকারত্ব, অশিক্ষা এবং শারীরিক সমস্যার জন্য ভিক্ষাবৃত্তিতে বাধ্য হয়েছেন অনেকে। সেই রিপোর্টে আরো বলা হয়েছে, দিল্লির বিভিন্ন রাস্তায় এমন মানুষদের ভিক্ষাবৃত্তি করতে দেখা গেছে যাঁরা করোনা মহামারীর সময় কাজ হারিয়েছেন। সেই রিপোর্টে আরও উল্লেখ করা হয়েছে, কুড়ি হাজারের বেশি সংখ্যক ভিখারি অর্থাৎ মোট ভিখারিদের 65% ২০০ টাকারও কম রোজকার করেন প্রতিদিন। অন্যদিকে 23% ভিখারি প্রতিদিন 200 থেকে 500 টাকার মধ্যে উপার্জন করে। মাত্র 12 শতাংশ ভিখারির রোজের উপার্জন 500 টাকার বেশি।

    আইএইচটি রিপোর্টে যে বিষয়গুলির উল্লেখ করা রয়েছে তা হলো-

    ভিক্ষাবৃত্তিকে পেশা হিসেবে বেছে নিতে বাধ্য হয়েছেন যাঁরা তাঁদের মধ্যে 50 শতাংশ মানুষের মাথার উপরে ছাদ নেই। অর্থাৎ শীত-গ্রীষ্ম-বর্ষায় মাথা গোঁজার কোন ঠাই নেই তাঁদের।

    দিল্লির রাস্তায় ভিক্ষাবৃত্তি করা মানুষদের 45 শতাংশ ঝুপড়িতে থাকতে বাধ্য হন।

    করোনা মহামারীর জন্য কাজ হারিয়ে ভিক্ষা করতে বাধ্য হওয়া মানুষদের সংখ্যাটা উল্লেখযোগ্য। তাঁদের মধ্যে অনেকেই অবশ্য ছোটখাটো কাজ করেন। কিন্তু হাতে যা টাকা আসে তা দিয়ে সংসার চলে না। ফলে বাড়তি উপার্জনের জন্য তারা ভিক্ষাবৃত্তি অবলম্বন করছেন।

    কুড়ি শতাংশ ভিখারি এমন রয়েছেন যাঁরা এই পেশায় আসার আগে দিনমজুর, ফ্যাক্টরি শ্রমিক, পরিচারক বা পরিচারিকা, কাগজ কুড়ানী হিসেবে কাজ করতেন।

    ভিখারিদের মধ্যে অনেকেই দিল্লির রাস্তায় বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে ঘুরে ভিক্ষা করেন।

    যে সব মানুষেরা কম উপার্জনের কাজ করতেন তারাই এখন কাজ হারিয়ে রাস্তার ভিক্ষাবৃত্তি করতে বাধ্য হয়েছে।

    Published by:Suman Majumder
    First published: