Home /News /national /

Assembly Election 2022 Schedule: পাঁচ রাজ্যের বিধানসভা ভোটে কোভিড নিয়ে কড়া কমিশন, ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত মিছিল, রোড শো-এ নিষেধাজ্ঞা

Assembly Election 2022 Schedule: পাঁচ রাজ্যের বিধানসভা ভোটে কোভিড নিয়ে কড়া কমিশন, ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত মিছিল, রোড শো-এ নিষেধাজ্ঞা

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

Covid 19: কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশনের পক্ষ থেকে বলা হয়, পরিস্থিতি দ্রুত পরিবর্তনশীল। তাই আপাতত কয়েকদিনের জন্য় সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, পরবর্তীতে অবস্থা বুঝে ব্যবস্থা নেবে কমিশন।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: করোনার (Covid 91) তৃতীয় ঢেউ যখন সংক্রমণের শীর্ষে পৌঁছতে পারে, সেই জানুয়ারির শেষ ও ফেব্রুয়ারির মাঝামাঝিতেই দেশের পাঁচ রাজ্যে চলবে বিধানসভা নির্বাচন (Election In Five States)। ভোটের দিন ক্ষণ ঘোষণার করার সঙ্গে সঙ্গে তাই কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশনের প্রধান সুশীল চন্দ্র মনে করিয়ে দিলেন, কোভিডের কারণে এ বার গোটা নির্বাচনী প্রক্রিয়া কড়া হাতে পরিচালনা করবে কমিশন। কমিশনের প্রধান সাংবাদিক বৈঠক থেকেই স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত কোনও মিছিল বা রোড-শো করা যাবে না। এর উপর সম্পূর্ণ নিষেধাজ্ঞা থাকবে।

    আরও পড়ুন - ঘোষিত হল উত্তরপ্রদেশ-সহ পাঁচ রাজ্যে বিধানসভা ভোটের নির্ঘণ্ট, দেখে নিন বিস্তারিত

    কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশনের পক্ষ থেকে বলা হয়, পরিস্থিতি দ্রুত পরিবর্তনশীল। তাই আপাতত কয়েকদিনের জন্য় সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, পরবর্তীতে অবস্থা বুঝে ব্যবস্থা নেবে কমিশন। কমিশনের পক্ষ থেকে সাংবাদিক বৈঠকে স্পষ্ট করে দেওয়া হয়, কোভিড বিধি মেনে নির্বাচন করার বিষয়ে সমস্ত রকম ব্যবস্থা নেবে কমিশন। বাড়বে ভোটদানের সময়, বুথের সংখ্যা। বুথে বুথে থাকবে প্রয়োজনীয় স্যানিটাইজার, থার্মাল গান থেকে শুরু করে সব কিছুই। সমস্ত নির্বাচনী কর্মীদের দুটি টিকা ও একটি বুস্টার ডোজ দেওয়া হবে, কারণ তাঁরা প্রথম সারির করোনা যোদ্ধা। বৈঠক থেকে এ দিন সুশীল চন্দ্র পরিসংখ্যান দিয়ে বলেন, যে পাঁচ রাজ্যে নির্বাচন হচ্ছে, তার পরিস্থিতি কেমন! এর মধ্যে বেশিরভাগ রাজ্যে পজিটিভিটি রেট কম। কেবল গোয়ায় তা বেশি, কারণ সেখানে বর্ষশেষের হুল্লোড়ে মেতেছিল জনতা।

    আরও পড়ুন - বিদেশি অনুদানে আর বাধা নেই, ছাড়পত্র পেল মাদার টেরেজার সংস্থা

    পুরোটা মাথায় রেখে কমিশন জানিয়েছে, প্রার্থীরা যতটা সম্ভব নিজের প্রচার কর্মসূচি ভার্চুয়ালি সেরে রাখবেন। কোনও স্থানীয় স্তরের জমায়েত বা মিটিং চলবে না। ভোট গণনার পরে বিজয় মিছিলেও নিষেধাজ্ঞা চাপিয়েছে কমিশন। সমস্ত রাজনৈতিক দলকেই করোনা পরিস্থিতি নিয়ে সচেতন থাকতে বলেছে কমিশন। কমিশনের প্রস্তাব রাজনৈতিক দলের প্রার্থীরা যখন বাড়ি বাড়ি গিয়ে প্রচার করবেন, তখন যেন সাধারণ মানুষের হাতে তাঁরা মাস্ক, গ্লাভস, স্যানিটাইজার জাতীয় সামগ্রী পৌঁছে দেন। কমিশনের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য সচিব, স্বরাষ্ট্র সচিবের ও চিকিৎসা বিজ্ঞানীদের সঙ্গে কথা বলে কোভিড মুক্ত নির্বাচন করার বিষয়ে অনেক ব্যবস্থাই নিচ্ছে কমিশন।

    Published by:Uddalak B
    First published:

    Tags: UttarPradesh

    পরবর্তী খবর