সিট বেল্ট বেঁধে গাড়িতে মোনালিসা, দা ভিঞ্চি কোড অফ সেফটি বলে শেয়ার করল মুম্বই পুলিশ!

সিট বেল্ট বেঁধে গাড়িতে মোনালিসা, দা ভিঞ্চি কোড অফ সেফটি বলে শেয়ার করল মুম্বই পুলিশ!

প্রত্যেকেরই প্রচারে থাকে অভিনবত্ব, থাকে সৃজনশীলতা।

প্রত্যেকেরই প্রচারে থাকে অভিনবত্ব, থাকে সৃজনশীলতা।

  • Share this:

সাধারণ মানুষের মতো সোশ্যাল মিডিয়ায় আজকাল বেশ অ্যাক্টিভ প্রশাসনিক আধিকারিকরাও। অ্যাক্টিভ প্রশাসনের বিভিন্ন বিভাগ। বিভিন্ন বিষয়ে সচেতনা গড়ে তুলতে বা বিভিন্ন বিষয় প্রচার করতে সব সময়েই সোশ্যাল মিডিয়াকে মাধ্যম করা হয়। প্রত্যেকেরই প্রচারে থাকে অভিনবত্ব, থাকে সৃজনশীলতা। আর এই লিস্টেই সব চেয়ে উপরে রয়েছে মুম্বই পুলিশ। বিভিন্ন হিউম্যারাস জোকসের মাধ্যমে বা পোস্টের মাধ্যমে মুম্বইয়ের জনগণকে সচেতন করার কাজ করে তারা।

সম্প্রতি এমনই এক সচেতনতামূলক পোস্ট নজর কেড়েছে সবার। লিওনার্দো দা ভিঞ্চির অসামান্য সৃষ্টি মোনালিসা ছবিকে কাজে লাগিয়ে এই পোস্ট করা হয়েছে। যাতে দেখা যাচ্ছে, মোনালিসা একটি গাড়ির ভিতরে বসে এবং তিনি সিট বেল্ট বেঁধেছেন।

আসলে ১১ তারিখ থেকে শুরু হয়েছে রোড সেফটি উইক। এই সপ্তাহে রোড সেফটি সম্পর্কে মানুষকে বোঝাতে ও সিট বেল্ট বাঁধার সচেতনতা গড়ে তুলতে এই পোস্টটি তৈরি করা হয়। ক্যাপশনে লেখা হয়, দা ভিঞ্চি কোড অফ সেফটি।

পোস্টটি করার সঙ্গে সঙ্গেই কার্যত ভাইরাল হয় সেটি। নেটিজেনদের প্রশংসা কুড়িয়ে নেয় মুম্বই পুলিশ। অনেকেই তাদের সৃজনশীলতার প্রশংসাও করে। বহু মানুষ সেটি শেয়ার করেন। অনেকেই লেখেন, রেসপেক্ট ট্র্যাফিক পুলিশ।

তবে, এরই মাঝে আবার মজা করে কয়েকজন লেখে, মোনালিসার মাস্ক কোথায়? যেহেতু করোনা পরিস্থিতি এখনও নিয়ন্ত্রণে নয়, মাস্কের প্রয়োজনীয়তা আছে, তাই মাস্ক পরা নিয়েও প্রচার চালাচ্ছে মুম্বই পুলিশ।

কিছুদিন আগে করোনা পরিস্থিতিতে সচেতনতা নিয়ে তাদের আরও একটি পোস্ট ভাইরাল হয়। যাতে তারা ব়্যাপার বাদশাহ-র একটি গানকে কোট করে লেখে, পার্টি (নহি) চলেগি টিল সিক্স ইন দ্য মর্নিং।

এখানেই শেষ নয়, কিছু দিন আগে Tesla-র কর্ণধার এলন মাস্ক (Elon Musk) হোয়াটসঅ্যাপের (WhatsApp) পরিবর্তিত পলিসি নিয়ে ট্যুইট করেন এবং লেখেন, ইউজ সিগন্যাল। এখানে তিনি সিগন্যাল (Signal) অ্যাপের কথা বলেছিলেন। কিন্তু মুম্বই পুলিশ সেটিকেই কোট করে লেখে, যাঁরা রাস্তায় বের হন, তাঁরা অবশ্যই সিগন্যাল ব্যবহার করুন।

রোড সেফটি নিয়ে আমেরিকান সিটকমের একটি দৃশ্যও শেয়ার করে তারা। যাতে দেখা যায় রস তার বন্ধুদের বলছে, আওয়াজ কম করতে। মুম্বই পুলিশ তাকেই কোট করে লেখে, অকারণে রাস্তায় ঘুরে বেড়ানো থেকে ব্রেক নেওয়া হোক!

Published by:Elina Datta
First published: