• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • Tripura Civic Elections: আগরতলা পুর নির্বাচনে সব আসনেই লড়বে তৃণমূল কংগ্রেস 

Tripura Civic Elections: আগরতলা পুর নির্বাচনে সব আসনেই লড়বে তৃণমূল কংগ্রেস 

File Photo

File Photo

TMC in Tripura Civic Elections: ৫ আসনে প্রার্থীপদ প্রত্যাহার বামেদের। ২ আসনে প্রত্যাহার করল কংগ্রেস ৷ 

  • Share this:

আবীর ঘোষাল, কলকাতা: ত্রিপুরার পুরভোটে লাগাতার ভয় দেখানো হচ্ছে ! তৃণমূল-সহ বিজেপি বিরোধী প্রার্থী ও কর্মী-সমর্থকদের হুমকি, ভয় দেখানো হচ্ছে, এমনকি বাড়িতে আগুন লাগানো, লুঠপাট করাও হচ্ছে ৷ এমনটাই অভিযোগ তৃণমূল কংগ্রেসের (TMC in Tripura Civic Elections) ৷

অভিযোগ সেই বিজেপির বিরুদ্ধে ৷ যদিও সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছে বিজেপি নেতৃত্ব। আগামী ২৫ নভেম্বর ত্রিপুরায় পুরভোট ৷ আগরতলা-সহ ত্রিপুরার ২০টি পুরসভার মোট ৩৩৪টি ওয়ার্ডে নির্বাচন রয়েছে। ইতিমধ্যেই মনোনয়ন জমা দেওয়া হয়ে গিয়েছে। ত্রিপুরা নির্বাচন কমিশন সূত্রে খবর, মোট ওয়ার্ডের এক-তৃতীয়াংশ আসন ইতিমধ্যেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জিতে গিয়েছে বিজেপি ৷

আরও পড়ুন-এই শীতেই প্রথম আন্তর্জাতিক মিউজিক ফেস্টিভ্যাল, রাজ্যবাসীকে 'বিশেষ' উপহার মমতার

জেলার ৭'টি পুরসভায় ইতিমধ্যেই সংখ্যাগরিষ্ঠ বিজেপি ৷ এর মধ্যে দুটি নগর পঞ্চায়েত ও ৫টি পুর পরিষদ আছে ৷ তৃণমূলের অভিযোগ ভয় দেখিয়ে, হুমকি দিয়ে বিরোধীদের প্রার্থী পদ প্রত্যাহার করানো হয়েছে৷ যদিও তৃণমূল কংগ্রেস আগরতলা পুরনিগমের ৫১টি ওয়ার্ডেই প্রার্থী দিয়েছে। তারা মনোনয়ন জমা দিয়েছেন। সেখানেও প্রচারে ভয় দেখানো হচ্ছে বলে অভিযোগ।

মোট ৩৩৪টি ওয়ার্ডে পুর নির্বাচন হচ্ছে ৷ তার মধ্যে সব আসনেই মনোনয়ন জমা দিয়েছে বিজেপি। বামেরা জমা দিয়েছে ২২৭ আসনে প্রার্থী। এর মধ্যে সিপিএমের আসন ২১৪টি। কংগ্রেস প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে ১০১টি ওয়ার্ডে। তৃণমূল কংগ্রেস প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে ১২৫টি ওয়ার্ডে। এ ছাড়া তিপ্রামোথা ও টিডিএফ পুর ভোটে লড়াই করছে। এর আগে ২০১৯ সালে ত্রিপুরার পঞ্চায়েত ভোটের সময়ে একই রকম সন্ত্রাসের অভিযোগ এনেছিল বিজেপি বিরোধী রাজনৈতিক দলের প্রতিনিধিরা।

আরও পড়ুন-Deep Vein Thrombosis: পায়ে রক্ত জমাট বাঁধলে কী করবেন? জেনে নিন বিশদে

গত ২০১৯-এর জুলাই মাসে ত্রিপুরায় পঞ্চায়েত ভোটে ব্যাপক সন্ত্রাস চালানোর অভিযোগ এনেছিল বিরোধীরা। ত্রিপুরা পঞ্চায়েতের ৯৬% আসনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জিতে গিয়েছিল বিজেপি৷ পঞ্চায়েত ভোটে যে আবহ তৈরি হয়েছিল সেই আবহ পুরভোটেও বজায় রাখছে বিজেপি এমন অভিযোগ আনছে তৃণমূল কংগ্রেস। মনোনয়ন প্রত্যাহার পর্ব অবধি এই অবস্থা চলেছে বলে অভিযোগ তৃণমূলের। ত্রিপুরা প্রদেশ তৃণমূল কংগ্রেসের স্টিয়ারিং কমিটির সদস্য সুবল ভৌমিক জানিয়েছেন, খোয়াই, উদয়পুর, বিলোনিয়া, সাব্রুমে রিটার্নিং অফিসারদের দফতর ঘেরাও করে রাখা হয়েছিল। তবে এ ভাবে তৃণমূলকে আটকানো যাবে না ৷ মানুষ যদি ভোট দিতে পারেন। তাহলে জোড়াফুল শিবিরের জয় নিশ্চিত হতে চলেছে।

Published by:Siddhartha Sarkar
First published: