Home /News /national /
Allahabad High Court: বিয়ের বয়স নিয়ে এলাহাবাদ হাইকোর্টের নজিরবিহীন রায়, লাভ ম্যারেজ নিয়ে পারিবারিক আপত্তি ধোপে টিকবে না!

Allahabad High Court: বিয়ের বয়স নিয়ে এলাহাবাদ হাইকোর্টের নজিরবিহীন রায়, লাভ ম্যারেজ নিয়ে পারিবারিক আপত্তি ধোপে টিকবে না!

Allahabad High Court

Allahabad High Court

Allahabad High Court: নিজের ইচ্ছায় ছেলের সঙ্গে বেরিয়ে যাওয়া অপহরণের অপরাধ হতে পারে না বলেও জানানো হয়েছে আদালতের তরফে।

  • Share this:

Report: Sarvesh Dubey

#এলাহাবাদ: লাভ ম্যারেজ নিয়ে করা মেয়ের পিটিশনে বড় সিদ্ধান্ত জানালো এলাহাবাদ হাই কোর্ট (Allahabad High Court) । সম্প্রতি আদালতের তরফে বলা হয়েছে যে, ১৮ বছরের বেশি বয়সী একজন প্রাপ্তবয়স্ক মেয়ের নিজের ইচ্ছামতো বসবাস করার এবং বিয়ে করার অধিকার রয়েছে (Love Marriage) । নিজের ইচ্ছায় ছেলের সঙ্গে বেরিয়ে যাওয়া অপহরণের অপরাধ হতে পারে না বলেও জানানো হয়েছে আদালতের তরফে। এর সঙ্গেই আদালত ওই মেয়েকে অপহরণের জন্য ছেলের বিরুদ্ধে মেয়ের বাবা যে এফআইআর দায়ের করেছিলেন, তা বাতিল করেছে।

আরও পড়ুন-মধুচন্দ্রিমায় নয়, বিয়ের পরে ইউক্রেনের এই দম্পতি গেলেন যুদ্ধক্ষেত্রে!

এলাহাবাদ হাই কোর্ট বলেছে, ছেলের বয়স ২১ বছরের কম হলে বিয়ে বাতিল হবে না। যদিও এটি হিন্দু বিবাহ আইনের ১৮ নং ধারার অধীনে শাস্তিযোগ্য হতে পারে, তবে বিবাহ প্রশ্নবিদ্ধ হতে পারে না। প্রতীক্ষা সিং এবং অন্যদের আবেদন মঞ্জুর করে বিচারপতি অশ্বনী কুমার মিশ্র এবং বিচারপতি শামিম আহমেদের ডিভিশন বেঞ্চ এই আদেশ দিয়েছে (Allahabad High Court)।

জানা যাক পুরো বিষয়টি কী

আসলে, ওই মেয়েটির বাবা ইউপির চান্দৌলির কান্ডওয়া থানায় একটি এফআইআর দায়ের করে অভিযোগ করেছিলেন যে তাঁর মেয়েকে অপহরণ করা হয়েছে। তিনি আরও বলেন যে, তাঁর মেয়েকে বিক্রি করা হয়েছে বা তাঁকে হত্যা করা হয়েছে। প্রতীক্ষা সিং এবং তাঁর স্বামী করণ মৌর্য ওরফে করণ সিং এই এফআইআরকে চ্যালেঞ্জ করেছিলেন। মেয়েটির কথায়, তিনি একজন প্রাপ্তবয়স্ক এবং তিনি নিজের ইচ্ছায় বিয়ে করতে আইনত সক্ষম। আপাতত স্বামীর সঙ্গেই বসবাস করছেন তিনি, সুতরাং তাঁকে অপহরণ করার প্রশ্নই নেই। এই দিক থেকে হত্যার অভিযোগও খাটে না। সঙ্গত কারণেই এফআইআর ভিত্তিহীন। অপহরণের মতো কোনও অপরাধ করা হয়নি, তাই মেয়েটির মতে এই এফআইআর বাতিল করা উচিত।

আরও পড়ুন-Viral News: স্বামী পরকীয়ায় আসক্ত, হাতেনাতে ধরতে গোয়েন্দাদেরও হার মানালেন স্ত্রী !

একই সঙ্গে ওই মেয়ের চ্যালেঞ্জের পর আদালত নোটিশ জারি করে তাঁর বাবার কাছে জবাব চেয়েছে। বাবার তরফে বলা হয়েছে, ছেলের বয়স ২১ বছরের কম হওয়ায় এই বিয়ে বেআইনি, তাই এফআইআর বাতিল করা যাবে না। এর পরে, আদালত জানিয়েছিল যে হিন্দু বিবাহ আইনের ৫নং ধারা অনুসারে, বিয়ের জন্য মেয়ের বয়স ১৮ বছর এবং ছেলের বয়স ২১ বছর হতে হবে। হাই স্কুলের রেকর্ড অনুযায়ী মেয়েটির বয়স ১৮ বছরের বেশি, কিন্তু ছেলেটির বয়স ২১ বছরের কম। দু'জনেই নিজেদের ইচ্ছায় বিয়ে করে একসঙ্গে শান্তিপূর্ণ জীবনযাপন করছেন, সে কারণেই আদালতের মতে এটা অপহরণের অপরাধ হতে পারে না।

Published by:Siddhartha Sarkar
First published:

Tags: Allahabad, Wedding

পরবর্তী খবর