Home /News /kolkata /
Arms in West Bengal: বাংলার দিকেদিকে অস্ত্র উদ্ধার, গ্রেফতার 'দুষ্কৃতীরা'! মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশের পরই যা ঘটল...

Arms in West Bengal: বাংলার দিকেদিকে অস্ত্র উদ্ধার, গ্রেফতার 'দুষ্কৃতীরা'! মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশের পরই যা ঘটল...

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

Arms in West Bengal: মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশের পরেই মালদহের চাঁচোলে অস্ত্র উদ্ধার করল পুলিশ। রামপুরহাটের ঘটনার পর রাজ্যের সমস্ত থানার পুলিশকে বোম ও অস্ত্র উদ্ধারের নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

  • Share this:

    #কলকাতা: মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশিকার পরেই তৎপর পুলিশ প্রশাসন। হাবড়ায় গ্রেফতার দুই দুষ্কৃতী, উদ্ধার দুটি পাইপগান সহ চার রাউন্ড কার্তুজ (Arms in West Bengal)। ধৃত দুষ্কৃতীদের নাম প্রশান্ত লোধ(৫৬) এবং কিরণ বিশ্বাস (৩৬)। ধৃতদের মধ্যে প্রশান্তের বাড়ি হাবড়া বাণীপুর ইতনা নতুন কলোনি এলাকায়। বৃহস্পতিবার রাতে হাবড়া বাণীপুর শ্মশান এলাকায় যখন আগ্নেয়াস্ত্র বিক্রির উদ্দেশ্যে আসছিলেন, তখন হাবড়া থানার পুলিশ গোপন সূত্রে খবর পেয়ে প্রশান্তকে গ্রেফতার করে। তল্লাশি চালালে ধৃতের কাছ থেকে একটি পাইপগান এবং দু রাউন্ড গুলি উদ্ধার হয়। পাশাপাশি হাবড়া থানার পুলিশ গোপন সূত্রে খবর পেয়ে হাবড়া বিড়া নবপল্লী এলাকায় কিরণ বিশ্বাস (৩৬)-এর বাড়ি থেকে একটি পাইপগান এবং দুরাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করা হয় এবং কিরণকে গ্রেফতার করে। ধৃতদের বিরুদ্ধে আগেও একাধিক অসামাজিক কার্যকলাপ চালানোর অভিযোগ রয়েছে এবং গ্রেফতার হয়ে জেলও খেটেছে। হাবড়া থানার পুলিশের পক্ষ থেকে এদিন ধৃতদের বারাসাত আদালতে তোলা হয়।

    এদিকে, মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশের পরেই মালদহের চাঁচোলে অস্ত্র উদ্ধার করল পুলিশ। রামপুরহাটের ঘটনার পর রাজ্যের সমস্ত থানার পুলিশকে বোম ও অস্ত্র উদ্ধারের নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ওই নির্দেশের পরেই বৃহস্পতিবার রাতে মালদহের চাঁচল থানার পুলিশ পৃথক দুটি গ্রামে অভিযান চালিয়ে দুটি পাইপগান, দুটি কার্তুজ সহ দুই যুবককে গ্রেফতার করে। ধৃতদের শুক্রবার চাঁচল মহকুমা আদালতে পেশ করা হয়। পুলিশ জানিয়েছে, ধৃত মারুপ আলি (৩০), চাঁচলের মতিহারপুর পঞ্চায়েতের বাকিপুরের বাসিন্দা। অন্যজন অনুপ মালো (২০), চাঁচল পঞ্চায়েতের পাহাড়পুর এলাকার বাসিন্দা । ধৃত দুজনকেই তাদের বাড়ি থেকে আগ্নেয়াস্ত্র সহ গ্রেফতার করে পুলিশ। ধৃতদের মধ্যে পাহাড়পুরের বাসিন্দা অনুপ মালোর বিরুদ্ধে এর আগে পুরানো ডাকাতি মামলা রয়েছে।

    আরও পড়ুন: রাজ্যসভায় অঝোর কান্না রূপা গঙ্গোপাধ্যায়ের! কারণ শুনে কটাক্ষ তৃণমূলের

    এদিকে, এলাকার দুই কুখ্যাত দুষ্কৃতীকে আগ্নেয়াস্ত্র ও গুলিসহ গ্রেপ্তার করল বসিরহাট থানার পুলিশ। নাম শফিকুল গাজী এবং সিজারুল গাজী। গতকাল রাতে শফিকুলকে গ্রেফতার করা হয় সোলাদানা থেকে এবং সিজারুলকে গ্রেফতার করা হয় চাঁপাপুকুর রোড থেকে। বহুদিন ধরেই এদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন রকম সন্ত্রাসের অভিযোগ উঠেছিল। গতকাল রাতেই গোপন সূত্রে খবর পেয়ে এই দু'জনকে গ্রেফতার করে বসিরহাট থানার পুলিশ। তাদের কাছ থেকে উদ্ধার হয় দুজনের কাছ থেকে দুটি রিভলবার এবং এক রাউন্ড করে গুলি। আজ তাদের বসিরহাট মহকুমা আদালতে তোলা হয়।

    আরও পড়ুন: লক্ষ্য চব্বিশ, তেইশে মোদির 'ঘরে' আঘাত হানতে বড় সিদ্ধান্ত প্রশান্ত কিশোরের?

    আবার আগ্নেয়াস্ত্র সহ দুই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে নওদা থানার পুলিশও। বৃহস্পতিবার রাতে নওদার বর্ষারধার এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করেছে পুলিশ। উদ্ধার হয়েছে একটি ৯ এমএম পিস্তল চার রাউন্ড গুলি, একটি ৭.৬৫ এম পিস্তল ও একটি ম্যাগাজিন। তাদের শুক্রবার বহরমপুর আদালতে তোলা হয়েছে। পুলিশ হেপাজতে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করে এই ঘটনায় আর কে বা কারা জড়িত তা জানার চেষ্টা চলছে। ধৃত হাসিবুর সেখের বাড়ি নওদার সোনাটিকুরি ও প্রতীক ভৌমিকের বাড়ি নদীয়ার ধানতলা এলাকায়।

    Published by:Suman Biswas
    First published:

    Tags: Arms Recovered, Mamata Banerjee, West bengal Police

    পরবর্তী খবর