PM Modi on 7th Phase Vote: 'করোনা বিধি মানুন', বাংলার ভোটারদের কাছে আর্জি মোদির

PM Modi on 7th Phase Vote: 'করোনা বিধি মানুন', বাংলার ভোটারদের কাছে আর্জি মোদির

নরেন্দ্র মোদি।

একইসঙ্গে মনে করিয়ে দিলেন করোনাভাইরাসের (Coronavirus 2nd Wave) বাড়বাড়ন্তের কথা। তাই করোনা-বিধি (Covid-19 Rules) মেনেই ভোটদানের আর্জি জানিয়েছেন তিনি।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: নিয়ম করেই বাংলার নির্বাচনের সপ্তম দফার (West Bengal Election 2021 7th Phase) জন্য সকাল সকাল ট্যুইট করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Narendra Modi)। বাংলার ভোটারদের কাছে আবারও নিজেদের গণতান্ত্রিক অধিকার প্রয়োগের জন্য আবেদন করলেন তিনি। একইসঙ্গে মনে করিয়ে দিলেন করোনাভাইরাসের (Coronavirus 2nd Wave) বাড়বাড়ন্তের কথা। তাই করোনা-বিধি (Covid-19 Rules) মেনেই ভোটদানের আর্জি জানিয়েছেন তিনি।

    ট্যুইটারে মোদি এদিন লিখেছেন, 'আজ পশ্চিমবঙ্গে সপ্তমদফার ভোট চলছে। মানুষের কাছে ভোটাধিকার প্রয়োগ এবং কোভিড-১৯ বিধি মেনে ভোটগ্রহণে সামিল হওয়ার আবেদন জানাচ্ছি।' বিগত ছয় দফাতেও ভোটের শুরুতেই ভোটারদের কাছে বিশেষ বার্তা দিয়ে ট্যুইট করেছেন প্রধানমন্ত্রী। কখনও বিপুল হারে ভোট, আবার কখনও মহিলাদের বেশি করে ভোট দানে উৎসাহিত করেছেন মোদি। এছাড়াও নতুন ভোটারদেরও ভোট দেওয়ার জন্য আবেদন করেছিলেন তিনি। এদিনও তার ব্যতিক্রম হল না।

    অন্যদিকে, বাংলায় ট্যুইট করেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহও। তিনি লিখেছেন, 'আমি বাংলার সপ্তম দফার নির্বাচনে সকল ভোটারগণকে আবেদন করছি যে রাজ্যের উন্নয়নকে মূলধারার সাথে সংযুক্ত করার জন্য অধিকতর সংখ্যায় ভোট দান করুন।'

    এই পর্বে মোট ভোটার ৮১ লক্ষ ৯৬ হাজার ২৪২ দন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ৪২ লক্ষ ৭ হাজার ৫৪৮ জন আর মহিলা ৩৯ লক্ষ ৮৮ হাজার ৪৭৩ জন। তৃতীয় লিঙ্গের ভোটার রয়েছেন ২২১ জন।সপ্তম দফার ভোটে মোট বিধানসভা ৩৪ টি। প্ৰথমে ভোট হয়েছিল এই পর্বে ৩৬টি আসনে ভোট নির্ধারণ হবে। কিন্তু প্রার্থীর মৃত্যু হওয়ায় এই পর্বে সামসেরগঞ্জ ও জঙ্গিপুরে নির্বাচন হচ্ছে না। সপ্তম দফায় মোট ৫টি জেলায় ভোট। মালদহ, মুর্শিদাবাদ, পশ্চিম বর্ধমান, দক্ষিণ দিনাজপুর ও দক্ষিণ কলকাতায় শুরু হয়েছে ভোটদান। সপ্তম দফায় মোট ২৬৮ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এর মধ্যে ২৩১ জন পুরুষ এবং ৩৭ জন মহিলা প্রার্থী। তালিকায় রয়েছেন বহু হেভিওয়েট, বহু তারকা প্রার্থী।
    Published by:Raima Chakraborty
    First published: