Home /News /kolkata /
Partha Chatterjee | Arpita Mukherjee:  শুধু ২১ কোটি নয়, অনুষ্ঠান বাড়ি থেকে আবাসন! নেল আর্ট পার্লার! কলকাতায় পার্থ-অর্পিতার টাকার পাহাড়! সামনে এল নয়া তথ্য!

Partha Chatterjee | Arpita Mukherjee:  শুধু ২১ কোটি নয়, অনুষ্ঠান বাড়ি থেকে আবাসন! নেল আর্ট পার্লার! কলকাতায় পার্থ-অর্পিতার টাকার পাহাড়! সামনে এল নয়া তথ্য!

Partha Chatterjee | Arpita Mukherjee: পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের বাড়িতে তল্লাশি অভিযান ও জিজ্ঞাসাবাদের পর কলকাতার সম্পত্তিতে নজর তদন্তকারীদের। সামনে এল নয়া তথ্য!

  • Share this:

#কলকাতা: ঝাঁ-চকচকে অনুষ্ঠান বাড়ি থেকে আবাসন। নেল আর্ট পার্লার। ইডি সূত্রের দাবি, মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে কলকাতায় এমনই একাধিক সম্পত্তির হদিশ মিলেছে। বিলাসবহুল বাড়ি থেকে নেল পার্লার। কলকাতায় কত সম্পত্তি পার্থ-অর্পিতার? এই প্রশ্নের উত্তর খুঁজতে গিয়ে রীতিমত চক্ষু চরক গাছ তদন্তকারীদের। কোথাও ঝাঁ-চকচকে ব্যাঙ্কয়েট হল। অনুষ্ঠান বাড়ি। কোথাও আবাসন। কোথাও আবার নেল আর্টের পার্লার। ইডি সূত্রের দাবি, মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং তাঁর ঘনিষ্ঠ অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে এমনই একাধিক সম্পত্তির হদিশ মিলেছে।

সূত্রের খবর, ইডির সিজার লিস্ট অনুযায়ী, পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে ইচ্ছে এন্টারটেইনমেন্টের নামে একাধিক ডিড মিলেছে।এই 'ইচ্ছে এন্টারটেইনমেন্ট প্রাইভেট লিমিটেডে'র ঠিকানা  কসবা।  মূলত শুটিং এবং নানা ধরনের সামাজিক অনুষ্ঠানের জন্য ভাড়া দেওয়া হয় কসবার ইচ্ছেতে। বাতানুকূল এই হলের প্রতিদিনকার ভাড়া ৬৫০০০ টাকা। কাদের মাধ্যমে বাড়িটি ভাড়া দেওয়া হত, সেটাই এখন তদন্ত করে দেখছে ইডি। তবে এখানেই শেষ নয়, আনন্দপুরের মাদুরদহ এলাকার আবাসনও এখন নজরে ইডির তদন্তকারীদের।

আরও পড়ুন:  এশিয়ার দ্বিতীয় বৃহত্তম শিবলিঙ্গ রয়েছে নদিয়াতেই! শ্রাবণ মাসে ভক্তদের ভিড়! রইল ভিডিও

ইডি সূত্রে দাবি, মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বাড়ি থেকে এই আবাসনের দলিল মিলেছে। প্রায় দেড় কোটি টাকায় এই আবাসনটি তিনি কেনেন বলে জানতে পেরেছেন তদন্তকারীরা।  সম্পত্তির দেখাশোনা করতেন অর্পিতা। সে কথা কবুল করেছেন পূর্বায়ন আবাসনের কেয়ারটেকার নিরাপত্তারক্ষীদের কথায়, 'শুনেছি পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের ফ্ল্যাট এটি'। নিউজ এইট্টিন বাংলা পৌঁছে গিয়েছিল সেই ঠিকানায়। মোবাইলে অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের ছবি দেখাতেই পূর্বায়ন  আবাসনের কেয়ারটেকার বললেন, 'হ্যাঁ হ্যাঁ ইনিই আমায় কাজে রেখেছেন'। তবে পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে তিনি কখনোও এখানে দেখেননি বলে দাবি করেন  কেয়ারটেকার। এই আবাসনের বেশির ভাগ ফ্ল্যাটই ভাড়ায় দেওয়া। রহস্য তালাবন্ধ একটি ফ্ল্যাটকে ঘিরে। এদিকে ইডির সিজার লিস্ট অনুযায়ী, অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের ফ্ল্যাট থেকে মিলেছে নেল আর্ট পার্লারের বেশ কিছু বিলের কপি। খাস কলকাতায় পার্লার থেকে আবাসন। ব্যাঙ্কয়েট হল থেকে টাকার পাহাড়। সম্পত্তির পাহাড়। এত কিছু হল কীভাবে। উত্তর খুঁজছে ইডি।

ভেঙ্কটেশ্বর লাহিড়ী  

Published by:Piya Banerjee
First published:

Tags: Arpita Mukherjee, ED, Partha Chatterjee

পরবর্তী খবর