Home /News /kolkata /
Howrah Bridge: গুটখার পিকে শেষ হয়ে যাচ্ছে গর্বের হাওড়া ব্রিজ? বিতর্ক উঠতেই 'বাস্তব' জানাল পোর্ট ট্রাস্ট

Howrah Bridge: গুটখার পিকে শেষ হয়ে যাচ্ছে গর্বের হাওড়া ব্রিজ? বিতর্ক উঠতেই 'বাস্তব' জানাল পোর্ট ট্রাস্ট

ধ্বংস হচ্ছে হাওড়া ব্রিজ?

ধ্বংস হচ্ছে হাওড়া ব্রিজ?

Howrah Bridge: গুটখা বা তামাকজাত দ্রব্যের কারণে হাওড়া ব্রিজের কোনও ক্ষতি হয়নি। হাওড়া ব্রিজের কোনও স্তম্ভেরও ক্ষতি হয়নি। স্পষ্ট করে দিল কলকাতা বন্দর কর্তৃপক্ষ।

  • Share this:

#কলকাতা: পানমশলার বিজ্ঞাপন নিয়ে গত কয়েকদিন ধরে জোর চর্চা চলছে বলিউডে। সম্প্রতি এক পান মশলার বিজ্ঞাপনের অংশ হয়েছিলেন বলিউডের ‘খিলাড়ি’ অক্ষয় কুমার। শাহরুখ খান, অজয় দেবগণের মতো বলিউড সুপারস্টাররা আগে থেকেই সেই সংস্থার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর ছিলেন। এই বিজ্ঞাপনী প্রচারের অংশ হওয়ায়, অক্ষয় কুমারের উপর ক্ষুব্ধ হয়েছিল একাশং নেটিজেন। পরে এ বিষয়ে ক্ষমা চেয়ে নিয়েছিলেন অক্ষয়। এরপরই একজন আইএএস অফিসার সোশ্যাল মিডিয়ায় গুটখা এবং পানমশলা সম্পর্কিত একটি বড় ইস্যু তুলে এই সেলিব্রিটিদের প্রশ্ন করেছেন। আর সেই প্রসঙ্গে তিনি তুলে ধরেছিলেন হাওড়া ব্রিজের ছবি। গুটখার কারণে কীভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে হাওড়া ব্রিজ, সেই বিষয়টিই ছিল ওই পোস্টের মূল উদ্দেশ্য। এবার এ বিষয়ে প্রতিক্রিয়া দিল কলকাতা বন্দর কর্তৃপক্ষ। গুটখা বা তামাকজাত দ্রব্যের কারণে হাওড়া ব্রিজের কোনও ক্ষতি হয়নি। হাওড়া ব্রিজের কোনও স্তম্ভেরও ক্ষতি হয়নি। স্পষ্ট করে দিল কলকাতা বন্দর কর্তৃপক্ষ।

সম্প্রতি হাওড়া ব্রিজের একাধিক ছবি ভাইরাল হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়। এক আইএএস ওই ছবি পোস্ট করেন। সেই পোস্টের সঙ্গে ট্যাগ করা হয়েছিল শাহরুখ খান, অজয় দেবগণ, অমিতাভ বচ্চন ও অক্ষয় কুমারকে।সেই ছবি রীতিমতো ভাইরাল হয়েছিল।

আরও পড়ুন: দিল্লির 'কড়া' নির্দেশ, লকেট চট্টোপাধ্যায়কে নিয়ে সিদ্ধান্ত 'বদল' বঙ্গ বিজেপির! তুমুল আলোড়ন

এবার বন্দর কর্তৃপক্ষ সাফ জানিয়ে দিল, ২০১৪ সাল থেকে হাওড়া ব্রিজের সব পিলারে ফাইবার গার্ড দেওয়া আছে। ২০২১ সালে পুরনো গার্ড বদল হয়েছে। এমনকী রবীন্দ্র সেতুর নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষাও করা হয় বলে দাবি বন্দর কর্তৃপক্ষের।

আরও পড়ুন: মমতার সঙ্গে দেখা করতে নবান্নে যাচ্ছেন সৌরভ! কোন প্রসঙ্গে সাক্ষাৎ? তুঙ্গে জল্পনা

যদিও ওই আইএএস অফিসারের শেয়ার করা ছবিতে দেখা গিয়েছিল, একই স্থানে বারবার মানুষ গুটখার পিক ফেলার কারণে ব্রিজের পিলারের রংও সম্পূর্ণ বদলে লাল হয়ে গিয়েছে। শাহরুখ খান, অজয় ​​দেবগণ এবং অক্ষয় কুমারকে ট্যাগ করে তিনি জিজ্ঞাসা করেন, ‘কলকাতা পোর্ট ট্রাস্ট বলছে, ৭০ ছরের পুরনো এই আইকনিক ব্রিজটিতে গুটখার থুতু ফেলার কারণে মরিচা পড়েছে। এবং নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। হাওড়া ব্রিজে হানা দিয়েছে গুটখা চোরাকারবারীরা।’ ওই আইএএস হাওড়া ব্রিজের আরেকটি ছবি শেয়ার করে লেখেন, 'দেখুন গুটকা প্রেমীদের সুবিধার জন্য 'কলকাতা পোর্ট ট্রাস্ট' কী দুর্দান্ত ব্যবস্থা নিয়েছে। এখন যারা গুটকা থুকছে, তাদের আর কোনো 'অপরাধে' পড়তে হবে না। সেই সঙ্গে 'গুটকার ক্ষতিকর রাসায়নিক' থেকেও রক্ষা পাবে সেতু।' বলিউড তারকারা এ নিয়ে মুখ না খুললেও প্রতিক্রিয়া দিল বন্দর কর্তৃপক্ষ। এবং উড়িয়ে দিল যাবতীয় অভিযোগ।

Published by:Suman Biswas
First published:

Tags: Howrah Bridge, Kolkata Port Trust

পরবর্তী খবর