কেবিন ডোর খুলে, চলন্ত বিমান থেকে ঝাঁপ দিলেন কুকুর-সহ দম্পতি

এই দম্পতি তাঁদের কুকুরকে নিয়ে প্লেন থেকে নেমে যাওয়ার পর, প্লেনটি ফিরে আসে এয়ারক্রাফটে। এরপর অন্য যাত্রীদেরও নামিয়ে আনা হয় প্লেন থেকে এবং যাওয়ার ব্যবস্থা করা হয় অন্য প্লেনে।

এই দম্পতি তাঁদের কুকুরকে নিয়ে প্লেন থেকে নেমে যাওয়ার পর, প্লেনটি ফিরে আসে এয়ারক্রাফটে। এরপর অন্য যাত্রীদেরও নামিয়ে আনা হয় প্লেন থেকে এবং যাওয়ার ব্যবস্থা করা হয় অন্য প্লেনে।

  • Share this:

    #নিউ ইয়র্কঃ প্লেন তখন সবে চলতে শুরু করেছে রানওয়ে ধরে। শুধু ওড়ার অপেক্ষা। কিন্তু এমন সময় তাঁদের মনে হল, টেক-অফের আগেই ঝটপট নেমে যাওয়া উচিৎ প্লেন থেকে। যেই ভাবা, সেই কাজ। কেবিন ডোর খুলে, রানওয়েতে লাফিয়ে পড়লেন দু’জনে। একজন ৩১ বছরের অ্যান্টনিও মার্ডক, আর একজন ২৩ বছরের ব্রিয়ানা গ্রেকো। সঙ্গে রয়েছে আবার তাঁদের কুকুর। তাঁদের এই উদ্ভট আচরণে, সমস্যায় পড়লেন গোটা প্লেনের যাত্রীরা।

    সোমবার সকালেই এই দম্পতি ঘটিয়েছেন এমন ব্যাপার। অ্যান্টনিও এবং ব্রিয়ানা চড়েছিলেন ডেল্টা এয়ারলাইনসের একটি প্লেনে। নিউ ইয়র্কের লা গার্ডিয়া এয়ারপোর্টের অথরিটিকে তাঁরা অবশ্য জানিয়েছেন, পোস্ট ট্রমাটিক স্ট্রেস ডিজঅর্ডার আছে অ্যান্টনিও’র। প্লেনে চাপার ঠিক পরেই, এই সংক্রান্ত সমস্যা শুরু হয় তাঁর। আর সে কারণেই, এমারগেন্সি গেট দিয়ে প্লেন থেকে বেরিয়ে পড়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন দু’জনে।

    এমন অদ্ভুত ঘটনা চাক্ষুষ করেছেন ব্রায়ান প্লামার নামের অন্য এক যাত্রী। তাঁর কথায়, বিমান চলতে শুরু করার প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই, অ্যাটেন্ড্যান্টের কথা উপেক্ষা করে, কেবিন ডোর খুলে বাইরে লাফিয়ে পড়েন তাঁর দুই সহযাত্রী।

    এই দম্পতি তাঁদের কুকুরকে নিয়ে প্লেন থেকে নেমে যাওয়ার পর, প্লেনটি ফিরে আসে এয়ারক্রাফটে। এরপর অন্য যাত্রীদেরও নামিয়ে আনা হয় প্লেন থেকে এবং যাওয়ার ব্যবস্থা করা হয় অন্য প্লেনে। তবে এই গোটা ঘটনায়, কেউ আহত হননি। এছাড়া গ্রেফতার করা হয়েছে মার্ডক এবং গ্রেকো-কে। তাঁদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, বেপরোয়া এবং উশৃঙ্খল আচরণ, প্রশাসনকে বাধা দেওয়ার চেষ্টা ইত্যাদি।

    এর কিছুদিন আগেই, লাস ভেগাসে, প্লেন টেক-অফের আগে প্লেনের ডানায় উঠে গিয়েছিলেন এক ব্যক্তি। গ্রেফতার করা হয়েছিল তাঁকেও। তাঁর এই উদ্ভট স্টান্টের ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়াতে।

    Published by:Antara Dey
    First published: