Home /News /explained /
Explained: Pixel 6a লঞ্চ করছে গুগল! ভারতীয় বাজারে কী কী চ্যালেঞ্জের মুখে পড়বে টেক জায়েন্ট?

Explained: Pixel 6a লঞ্চ করছে গুগল! ভারতীয় বাজারে কী কী চ্যালেঞ্জের মুখে পড়বে টেক জায়েন্ট?

challenges google will face in India with pixel 6a

challenges google will face in India with pixel 6a

বেশ কয়েকটি চ্যালেঞ্জ অপেক্ষা করছে ভারতে টেক জায়ান্টের দ্বিতীয় ইনিংসের জন্য।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: অবশেষে দুই বছর পর গুগল (Google) আবার ভারতীয় স্মার্টফোনের বাজারে ফিরে আসতে চলেছে, আনুষ্ঠানিকভাবে তাদের পিক্সেল (Pixel 6a) লঞ্চের মাধ্যমে। তবে বেশ কয়েকটি চ্যালেঞ্জ অপেক্ষা করছে ভারতে টেক জায়ান্টের দ্বিতীয় ইনিংসের জন্য।

ভারতে গুগলের পিক্সেল সিরিজের খুব শক্তিশালী একটা ফ্যান ফলোয়িং রয়েছে। পিক্সেল 6 আনুষ্ঠানিকভাবে দেশে কখনই চালু হয়নি তা সত্ত্বেও অ্যামাজন (Amazon)-এর মতো ই-কমার্স সংস্থা ভালো প্রিমিয়ামের বিনিময়ে ভারতে Pixel 6-এর আমদানি করেছে এবং তার আনলক করা সংস্করণ বিক্রি করেছে। যদিও একজন সম্ভাব্য গ্রাহক ডিভাইসটির কোনও ওয়ারেন্টি দাবি করতে পারেননি এবং বেশ চড়া দামে কেনার পরেও মোটা অঙ্কের প্রিমিয়াম প্রদান করেছেন। এত সমস্যা থাকা সত্ত্বেও অনেক গ্রাহকই এই ফোনটি ক্রয় করেন এবং ব্যবহার করেন।

স্পষ্টতই, প্রযুক্তিগতভাবে উৎসাহী প্রচুর সংখ্যক মানুষ এবং সম্ভাব্য গ্রাহকরা Pixel 6a আনুষ্ঠানিকভাবে লঞ্চের জন্য অপেক্ষা করছেন। কিন্তু এটি কি সেই সফলতা লাভ করবে যা Google আশা রাখছে? এই প্রতিবেদন বিস্তারিত আলোচনা করা হল গুগল কী কী থাকা চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে পারে।

আরও পড়ুন - Howrah News: বাঁদর -হনুমান দল বেঁধে আসছে, তছনছ করে দিচ্ছে সব, আতঙ্ক চরমে

বিক্রির পরবর্তীকালের পরিষেবা নিয়ে কি সমস্যা হতে পারে?

গুগল যখন আনুষ্ঠানিকভাবে ভারতে তাদের ডিভাইসগুলি লঞ্চ করেছিল তখনও পিক্সেল পরিষেবাযোগ্য ডিভাইস নয় বলে পরিচিত ছিল। এর একটি অন্যতম প্রধান কারণ হল, মেরামত করতে পারে এমন পর্যাপ্ত পরিষেবা কেন্দ্রের অভাব। শুধু তাই নয় যে কয়েকটি আউটলেট পিক্সেলের ডিভাইসগুলিকে পরিষেবা দিতে সক্ষম ছিল, তাদের বেশিরভাগই ভয়ঙ্কর কাজ করেছে। গ্রাহকদের খুবই নিম্নমানের অভিজ্ঞতার মুখোমুখি হতে হয়েছে। মেরামতের সময়সীমা কয়েক সপ্তাহ পর্যন্ত বর্ধিত হওয়া এবং প্রায়শই ডিভাইসের মৌলিক প্রতিস্থাপনের অংশগুলি খুঁজে না পাওয়ার মতো দুঃস্বপ্নের মধ্যে দিয়ে যেতে হয়েছে গ্রাহকদের। Google যদি ভারতীয় স্মার্টফোনের বাজারে একটি উল্লেখযোগ্য অংশ দখল করতে চায় তাহলে স্পষ্টতই তাদের পরিষেবা কেন্দ্র এবং পরিষেবার নেটওয়ার্ক গুলিকে উন্নত করতে হবে। বাজারে গুগলের অন্যান্য সমসাময়িক স্মার্টফোন কোম্পানিগুলি গ্রাহকদের দুর্দান্ত পরিষেবা প্রদান করে। স্বাভাবিকভাবেই ভারতীয় বাজারে টিকে থাকতে হলে গ্রাহক পরিষেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

ডিভাইসের মূল্যও কি বাজার ধরার অসুবিধার কারণ?

ভারতীয় বাজার মূল্যের দিক থেকে অত্যন্ত সংবেদনশীল। মূল্যের কারণে বেশিরভাগ স্মার্টফোন নির্মাতারা একটি ডিভাইস লঞ্চ করার সময় তাদের গ্রাহকদের আকর্ষণীয় কিছু হার্ডওয়্যার এবং ভালো ডিল দিয়ে থাকে। গুগলের জন্য খারাপ খবর হল যে দামের নিরিখে তারা Pixel 6a লঞ্চ করতে চলেছে (যা প্রায় ৪০,০০০ টাকা) সেটিকে ভারতে একপ্রকার প্রিমিয়াম সেগমেন্ট হিসেবে বিবেচনা করা হয়। অন্যান্য স্মার্টফোন নির্মাতারা এর থেকে কম দামে শক্তিশালী SoCs এবং আকর্ষণীয় ক্যামেরার মতো বেশ কিছু অ্যাডভান্সড ফিচারের সুবিধা আগে থেকেই প্রদান করছে। গুগলের জন্য ভাল খবর হল যে ভারতীয় গ্রাহকদের মধ্যে ৪০,০০০ টাকার সেগমেন্টের ফোনের চাহিদা বৃদ্ধি পাচ্ছে। দেখার বিষয় গুগলের মতো একজন বড় মাপের খেলোয়াড় অন্যদের থেকে ভিন্ন কী কী ফিচার এবং সুবিধা প্রদান করছে। তাদের কাছে SoC এবং উন্নত সফ্টওয়্যার রয়েছে এই খেলায় টিকে থাকার জন্য। তবে এই মূল্যে যে ধরনের ক্যামেরা দেওয়া হচ্ছে তা একমাত্র চিন্তার বিষয়।

ইউনিটের প্রাপ্যতাই বা কেমন থাকতে পারে?

অনুমান যদি সত্যি হয়েই থাকে তাহলে গুগল দশেরা বা দীপাবলি উৎসবের সময় Pixel 6a লঞ্চ করার পরিকল্পনা করতে পারে। যদি তারা সত্যিই তখন ডিভাইসগুলি বিক্রি করতে শুরু করে তবে কোনও প্রকারেই তাদের ইউনিটের সরবরাহে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করলে চলবে না। তাদের স্টক এবং ইনভেন্টরি উভয়ই এমনভাবে পরিচালনা করতে হবে যা তারা গত দু'বছরে করেনি। উৎসবের সময় গ্রাহকদের চাহিদা বাড়ে। এই সময় যদি গ্রাহকদের সন্তুষ্ট করতে পারে তবে তা ভবিষ্যতে তাদের সাহায্য করবে।

২ বছরের বিরতি কি প্রতিযোগিতায় পিছিয়ে রাখবে গুগলকে?

এর আগের গুগল মার্কেট স্মার্টফোন এনেছিল যা খুব একটা সফল হয়নি। সাধারণত স্মার্টফোন কোম্পানিগুলি সারা বছর ধরেই নতুন নতুন ফোন লঞ্চ করতে থাকে। গত ২ বছরে গুগল Pixel মডেলের কোনও ফোন লঞ্চ করেনি। লম্বা বিরতির পর ফের বাজারেরে পিক্সলের আগমনের ফলে গ্রাহকদের মধ্যে এই ফোন নিয়ে আগ্রহ বাড়বে বলে অনুমান করা হচ্ছে। গুগল হল একটি শীর্ষস্থানীয় ব্র্যান্ড এবং তাদের ওপর গ্রাহকদের আস্থা রয়েছে। ভালো পরিষেবা প্রদান করতে পারলে গুগলও খুব কম সময়ে ভারতীয় স্মার্টফোন মার্কেটে নিজের জায়গা করে নিতে পারে।

Published by:Debalina Datta
First published:

Tags: Google

পরবর্তী খবর