• Home
  • »
  • News
  • »
  • entertainment
  • »
  • TOLLYWOOD MOVIES YOUTUBER JHILAM GUPTA GIVES A BEFITTING REPLY TO ANJAN DUTT ON HIS MEDIOCRITY POST SWD

Anjan Dutt: ট্রেনের হকারদের সঙ্গে ইউটিউবারদের তুলনা! অঞ্জন দত্তের পোস্টের পাল্টা জবাব দিলেন ঝিলাম

ইউটিউবার ও ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে যাঁরা কনটেন্ট তৈর করেন তাঁদের ‌‌ট্রেনের হকারের সঙ্গে তুলনা করলেন পরিচালক তথা অভিনেতা অঞ্জন দত্ত (Anjan Dutt)।

ইউটিউবার ও ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে যাঁরা কনটেন্ট তৈর করেন তাঁদের ‌‌ট্রেনের হকারের সঙ্গে তুলনা করলেন পরিচালক তথা অভিনেতা অঞ্জন দত্ত (Anjan Dutt)।

  • Share this:

    #কলকাতা: ইউটিউবার ও ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে যাঁরা কনটেন্ট তৈর করেন তাঁদের ‌‌ট্রেনের হকারের সঙ্গে তুলনা করলেন পরিচালক তথা অভিনেতা অঞ্জন দত্ত (Anjan Dutt)। তাঁর সেই লম্বা ফেসবুক পোস্ট নিয়ে এই মুহূর্তে সরগরম নেট দুনিয়ায়। একদিকে যখন অঞ্জন দত্তের মতো ব্যক্তিত্বের এহেন পোস্ট দেখে তাঁর কয়েকজন অনুরাগী প্রশংসা করেছেন। তেমনই এমন মন্তব্যের জেরে অসন্তোষও ছড়িয়েছে ইউটিউবার ও ডিজিটাল ক্রিয়েটরদের মধ্যে। ফেসবুকে জনপ্রিয় ইউটিউবার ঝিলাম গুপ্তা (Jhilam Gupta) অঞ্জন দত্তের এই পোস্টের বিরুদ্ধে কথা বলেছেন। ঝিলামের ভিডিওটিও মুহূর্তে ভাইরাল হয়।

    কী লিখেছিলেন অঞ্জন দত্ত? তিনি লিখছেন, "গুচ্ছের বাংলা পোর্টাল এবং ইউটিউব প্ল্যাটফর্ম হয়েছে ডিজিটালাইজেশন এর দৌলতে। যারা ক্রমাগত ভুল বাংলা এবং খুব খারাপ ইংরিজিতে কথা বলে নানা বিষয় মন্তব্য করে যায়। কারুর "শ" এর দোষ, কারুর উচ্চারণ পরিষ্কার নয়। প্রায় সবাই Christopher Nolan এবং Quentin Tarantino র ছবির পোস্টার লাগিয়ে তাদের বাড়িতে বসে নানা জ্ঞান দিয়ে যাচ্ছেন। তাদের কাজ ট্রেলার রিভিউ করা। কেউ বই রিভিউ করেন না। কেউ গীতিকার দূরের কথা, গান নিয়ে আলোচনা করেন না। প্রায় সবাই যাদের গালমন্দ করেন, তাদের ইন্টারভিউ করতে গেলে ভিজে বেড়াল হয়ে যান।"

    এখানেই শেষ নয়। এর পরেই তিনি ট্রেনের হকারদের সঙ্গে তুলনা টেনে আনেন। তাঁর কথায়, "আজ যদি ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম না থাকতো, তাহলে এরা কী করতেন? লোকাল ট্রেন এর হকারি? কী করতেন? নিশ্চই করে খেতেন।" এই মন্তব্যতেই মূলত ছড়িয়েছে অসন্তোষ। অনেকের মতে, ট্রেনে হকারিই যাদের পেশা তাঁদেরকেই অসম্মান করে ফেলেছেন পরিচালক। পাশাপাশি এই ডিজিটাল মাধ্যমে যাঁরা কাজ করেন তাঁদের মধ্যমেধার মানুষ বলেও কটাক্ষ করেছেন তিনি।

    এর উত্তর ঝিলাম দিয়েছেন। প্রথমেই অঞ্জন দত্তকে যে তিনি সম্মান করেন, তা জানিয়েছেন। ঝিলাম বলছেন, "দেখুন সবার কনভেন্টে পড়ার সৌভাগ্য থাকে না। আমরা মধ্যবিত্ত ঘরের ছেলেমেয়ে। আমাদের ইংরেজিটা হয়তো অত ভালো না। তবে আমাদের চেষ্টা থাকে। অঞ্জন দত্তের ছবিতে দার্জিলিং থাকে। এছাড়া চরিত্রগুলি কখনও লেখক, চিত্রগ্রাহক। অর্থাৎ তারা সব সময়েই ইন্টেলেকচুয়াল ও এলিট। বাঙালি হয়েও যারা নিজেদের মধ্যে ইংরেজিতে কথা বলে এমন চরিত্র দেখা যায়।"

    এর পরেই হকারদের সঙ্গে তুলনা প্রসঙ্গে ঝিলাম বলছেন, "কেউ যদি ট্রেনে হকারি করেও রোজগার করতেন, তাহলেও কি খুব অসুবিধে হতো? আমি যতদূর জানি জার্মান শব্দ হকস্টার থেকে এসেছে হকার কথাটি। হকার কথার অর্থ, যে মানুষ নিজের প্রোডাক্ট সম্পর্কে চিৎকার করে বলে, তা বিক্রি করার চেষ্টা করেন। আমরা কি হকার নই? আমরা তো প্রতিদিন নিজেদের যোগ্যতা ও স্কিল বিক্রি করে খাই। তাই ক্রিয়েটরদের ছোট করতে গিয়ে হকারদের কথা বলে উনি নিজেকেই ছোট করে ফেললেন।"

    এর পরেই মধ্যমেধা প্রসঙ্গে ঝিলাম বলছেন, "দরকার মনে হয়েছে বলে আপনাকে গণেশ টকিজ-এর মতো ছবি বানাতে হয়েছিল এবং গীতিকার হিসেবে তোমার ঝাল লেগেছে, আমার ভাল লেগেছে, এই গানটিও লিখতে হয়েছিল আপনাকে।" এর পাশাপাশি ঝিলাম একজন বিকলাঙ্গ হকারের কথাও বলেছেন। ঝিলামের এই ভিডিও পোস্টের তলায়ও অনেকেই সমর্থন জানিয়েছেন।

    Published by:Swaralipi Dasgupta
    First published: