• Home
  • »
  • News
  • »
  • entertainment
  • »
  • Sahana Bajpaie: এক মাস গান গাওয়া বন্ধ সাহানার! গলায় রক্তক্ষরণ গায়িকার

Sahana Bajpaie: এক মাস গান গাওয়া বন্ধ সাহানার! গলায় রক্তক্ষরণ গায়িকার

এক মাস গান গাওয়া বন্ধ সাহানার! গলায় রক্তক্ষরণ গায়িকার

এক মাস গান গাওয়া বন্ধ সাহানার! গলায় রক্তক্ষরণ গায়িকার

Sahana Bajpaie: নিজেই ফেসবুক পোস্টের মাধ্যমে জানিয়েছেন, স্বরযন্ত্রে রক্তক্ষরণের জন্য গলাকে বিশ্রামে রাখতে হবে তাঁর।

  • Share this:

    #কলকাতা: গায়িকা সাহানা বাজপেয়ীর (Sahana Bajpaie) কণ্ঠে গান শুনে বিভোর হন এমন ভক্তের সংখ্যা গুনে শেষ করা যায় না। তাঁদের জন্য খারাপ খবর। টানা এক মাস গান গাইতে পারবেন না সাহানা। কারণ গলায় হয়েছে জটিল সমস্যা। নিজেই ফেসবুক পোস্টের মাধ্যমে জানিয়েছেন, স্বরযন্ত্রে রক্তক্ষরণের জন্য গলাকে বিশ্রামে রাখতে হবে তাঁর। আর এই পোস্ট দেখেই মন ভেঙেছে বহু ভক্তদের।

    তবে শুধু গান গাওয়াই নয়। কথা বলাতেও রাশ টানতে হবে গায়িকাকে। সাহানা (Sahana Bajpaie) ফেসবুক পোস্টে লিখছেন, "একটি পরীক্ষার মাধ্যমে দেখা গিয়েছে আমার স্বরযন্ত্রে রক্তক্ষরণ হয়েছে। সেরে ওঠার জন্য আমায় চিকিৎসক এক মাস কথা বলতে, চিৎকার করতে এবং গান গাইতে নিষেধ করেছেন। একটু আমায় সহ্য করুন। কারণ এই নীরবতা আমাকেও সহ্য করতে হচ্ছে। নিজের এই দিকটা আমারও বোঝা বাকি। যাদের সঙ্গে আমি সবচেয়ে বেশি চিৎকার করি তাদের কয়েকটা দিন আমার থেকে দূরে থাকতে অনুরোধ করছি।"

    আরও পড়ুন- আরিয়ানের জন্মদিনে নেই কোনও হইচই! মন্নত-এ ছেলের জন্য কী আয়োজন শাহরুখের

    চিকিৎসকরা জানান, কণ্ঠস্বর যখন মাত্রাতিরিক্ত ব্যবহৃত হয় তখন এই সমস্যা হতে পারে। গায়িকা হিসেবে সাহানাকেও (Sahana Bajpaie) অতিরিক্ত কণ্ঠের ব্যবহার করতে হয়। আর তাই এই সমস্যা হয়েছে। এই সমস্যা থেকে দ্রুত মুক্তি পেতেই চিকিৎসকরা গলাকে বিশ্রাম দিতে বলেন।

    আরও পড়ুন- এই পুরনো রাজবাড়িতে ভিকি-ক্যাটরিনার বিয়ে, অনুষ্ঠানস্থলে রেইকি করতে গেলেন জুটির ১০ কর্মী!

    প্রসঙ্গত, সাহানা বাজপেয়ী (Sahana Bajpaie) বর্তমানে একজন অতি জনপ্রিয় গায়িকা। তাঁর কণ্ঠে রবীন্দ্রসঙ্গীত, লোকগীতি থেকে শুরু করে আধুনিক সমস্ত রকমের গানই শুনেছেন শ্রোতারা। বাংলা (Tolllywood) প্লেব্যাক জগতেও এক অন্যতম নাম সাহানা। ষড়রিপু, হাওয়া বদল, কণ্ঠ, ইত্যাদি ছবিতে গান গেয়েছেন তিনি।

    Published by:Swaralipi Dasgupta
    First published: