Home /News /education-career /
Kolkata Police: শুরু হতে বাকি মাত্র কিছু ক্ষণ, ব্যস্ত রাস্তায় গাড়ি বিকলের পর কলকাতা পুলিশের উদ্যোগে নির্বিঘ্নে মাধ্যমিকের কেন্দ্রে দুই কিশোরী

Kolkata Police: শুরু হতে বাকি মাত্র কিছু ক্ষণ, ব্যস্ত রাস্তায় গাড়ি বিকলের পর কলকাতা পুলিশের উদ্যোগে নির্বিঘ্নে মাধ্যমিকের কেন্দ্রে দুই কিশোরী

পাশে দাঁড়াল কলকাতা পুলিশ

পাশে দাঁড়াল কলকাতা পুলিশ

সকালবেলা ব্যস্ত সময়ে আর হয়তো পরীক্ষাকেন্দ্রে পৌঁছনোই হল না! সে সময়ে পাশে দাঁড়াল কলকাতা পুলিশ (Kolkata Police)

  • Share this:

    কলকাতা : মাধ্যমিক পরীক্ষা (Mdhyamik 2022) দিতে যাওয়ার পথে বিকল গাড়ি৷ ভিতরে বসে ভয়ে হাত পা ঠান্ডা হয়ে যাচ্ছে দুই পরীক্ষার্থিনী এবং তাঁদের অভিভাবকের৷ সকালবেলা ব্যস্ত সময়ে আর হয়তো পরীক্ষাকেন্দ্রে পৌঁছনোই হল না! সে সময়ে পাশে দাঁড়াল কলকাতা পুলিশ (Kolkata Police)৷ ট্র্যাফিক গার্ডের অ্যাডিশনাল ওসি-র কল্যাণে নির্ধারিত সময়েই তাঁরা পৌঁছে গেলেন পরীক্ষাকেন্দ্রে৷ পরীক্ষা দিলেনও নির্বিঘ্নে৷

    আরও পড়ুন : পলাশ-লাল পুরুলিয়ার জঙ্গলে চিতাবাঘ! ধরা পড়ল বন দফতরের ক্যামেরার ছবিতে

    বিঘ্ন কাটিয়ে পরীক্ষায় বসার এই পর্ব শেয়ার করা হয়েছে কলকাতা পুলিশের ফেসবুক পেজে৷ সেখানে জানানো হয়েছে শনিবার সকাল ১১ টা ৩৫ নাগাদ শ্যামবাজার পাঁচমাথার মোড়ে ট্র্যাফিক নিয়ন্ত্রণ করছিলেন শ্যামবাজার ট্রাফিক গার্ডের অ্যাডিশনাল ওসি সৌমিক সেনগুপ্ত। হঠাৎই ওয়্যারলেসে তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করেন ট্র্যাফিক গার্ডের সার্জেন্ট রাজীব কুমার সিং। তিনি জানান, আরজিকর রোডের উপর খারাপ হয়ে গিয়েছে একটি গাড়ি৷ গাড়িতে অপেক্ষা করছেন দুই মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী এবং তাদের এক অভিভাবক। ১০ মিনিটের মধ্যে তাঁদের পৌঁছতে হবে ডাফ স্ট্রিটে, সেন্ট মার্গারেট স্কুলে৷ সেখানেই তাঁদের মাধ্যমিক পরীক্ষাকেন্দ্র৷ পরীক্ষা দিতে পারবে না, এই আশঙ্কায় কান্নাকাটি শুরু করে দেয় দুই কিশোরী৷ উদ্বেগে দিশেহারা হয়ে পড়েন তাঁদের সঙ্গে থাকা অভিভাবকও৷

    আরও পড়ুন : নদীতে উদ্ধার হয় গলাকাটা দেহ, নৃশংস হত্যাকাণ্ডে ধৃত ৩

    আরও পড়ুন : তীব্র গরমে উচ্চ রক্তচাপ থেকে মুক্তি চান? ঠোঁট ছোঁয়ান ডাবের জলে

    ওয়্যারলেস বার্তায় পরিস্থিতি বুঝে মুহূর্তের মধ্যে ঝড়ের বেগে ঘটনাস্থলের উদ্দেশে রওনা দেন সৌমিক৷ দুই পরীক্ষার্থিনী ও তাদের অভিভাবককে নিয়ে নেন তাঁর নিজের গাড়িতে৷ তার পর অত্যন্ত দ্রুততা ও ক্ষিপ্রতার সঙ্গে পরীক্ষার্থিনীদের পৌঁছে দেন সেন্ট মার্গারেট স্কুলে, মাধ্যমিক পরীক্ষা কেন্দ্রে৷ সৌমিকের শুভেচ্ছাবার্তা নিয়েই নির্দিষ্ট সময়ে পরীক্ষা দিতে ঢুকে যায় দুই কিশোরী৷ তার আগে অসংখ্য ধন্যবাদ জানাতেও ভোলেনি তারা৷ কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন তাদের অভিভাবকও৷

    কলকাতা ফেসবুকে পেজে এই ঘটনা প্রকাশিত হতেই উচ্ছ্বসিত নেটিজেনরা৷ কলকাতা পুলিশের এই উদ্যোগ তথা পদক্ষেপকে সাধুবাদ জানিয়েছেন সকলে৷

    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published:

    Tags: Kolkata Police, Madhyamik2022

    পরবর্তী খবর