• Home
  • »
  • News
  • »
  • crime
  • »
  • WEST BENGAL NEWS FATHER RAPED MINOR GIRL YEAR AFTER YEAR VICTIM GIRL ATTEMPT SUICIDE IN CANNING SDG

Bangla News|| লজ্জা! বছরের পর বছর ধরে বাবার লালসার শিকার নাবালিকা মেয়ে! যে পরিণতি হল...

প্রতীকী ছবি।

Canning News| Rape Case: বছরের পর বছর ধরে বাবার লালসার (Rape Case) শিকার পনের বছরের (Minor Girl) মেয়ে। বহুবার 'পিশাচ' বাবাকে (Father) নোংরা এই কাজ থেকে বিরত করার চেষ্টা করেও সফল হতে পারেনি।

  • Share this:

    #ক্যানিং: মানবতার লজ্জা!

    বছরের পর বছর ধরে বাবার লালসার (Rape Case) শিকার পনের বছরের (Minor Girl) মেয়ে। বহুবার 'পিশাচ' বাবাকে (Father) নোংরা এই কাজ থেকে বিরত করার চেষ্টা করেও সফল হতে পারেনি। লোকলজ্জার ভয়ে বাইরেও কাউকে জানাতে পারেনি নিজের জীবনের যন্ত্রণার কথা। শেষ পর্যন্ত আজ বুধবার চরম সিদ্ধান্ত (Suicide attempt) নিতে বাধ্য হয় সে। যদিও শেষ পর্যন্ত প্রাণে বাঁচানো গিয়েছে নাবালিকাকে। ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার (South 24 Pargana) ক্যানিংয়ে (Canning)। অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

    পুলিশ (Canning Police) সূত্রে জানা গিয়েছে, ভয় দেখিয়ে বছরের পর বছর ধরে মেয়ের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক (Physical Torture) করত অভিযুক্ত বাবা (Accused Father) । কাউকে বললে প্রাণে মেরে দেওয়ার হুমকি দিত। এমনকি মায়ের সঙ্গে সংসার করতে দেবে না বলেও হুমকি দেওয়া হত। ফলে দীরঘইন ধরে ভয়ে চুপ করে ছিল সে। কিন্তু সম্প্রতি অত্যাচার মাত্রা ছাড়ায়। কিন্তু কোনওভাবেই বাবাকে বিরত করতে না পেরে, বুধবার আত্মহত্যা করতে যায় মেয়ে।

    পুলিশ প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে (Primary Investigation) জানতে পেরেছে, নাবালিকা মেয়ে এ দিন আত্মহত্যার চেষ্টা করলে, তখন বিষয়টি জানাজানি হয়। মেয়ে কেমন এমন ঘটনা ঘটেছে, জানার চেষ্টা করলে কান্নায় ভেঙে পড়ে সে। মাকে জানায় গুণধর বাবার কীর্তির কথা। তার আগে পর্যন্ত তাঁর নাবালিকার মা বিষয়টি নিয়ে অবগত ছিলেন না। এরপরেই নির্যাতিতার (Rape Victim) মা বিষয়টি স্থানীয় মহিলা সমিতির কাছে জানান। অভিযোগ পেয়েই তালদি মহিলা সমিতির উদ্যোগ নেয়। খবর দেওয়া হয় ক্যানিং থানায়। দায়ের হয় অভিযোগ। এরপরই অভিযুক্তকে গ্রেফতার (Accused Father Arrested) করে পুলিশ।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published: