Home /News /cooch-behar /
Cooch Behar: ঝড়-বৃষ্টিতে উপড়ে গিয়ে বিপজ্জনকভাবে হেলে বটগাছ, দুশ্চিন্তা স্থানীয় বাসিন্দাদের

Cooch Behar: ঝড়-বৃষ্টিতে উপড়ে গিয়ে বিপজ্জনকভাবে হেলে বটগাছ, দুশ্চিন্তা স্থানীয় বাসিন্দাদের

মাটি উপড়ে গিয়ে হেলে পড়েছে বহু পুরনো বিশাল বটগাছ! দুশ্চিন্তায় স্থানীয়রা

মাটি উপড়ে গিয়ে হেলে পড়েছে বহু পুরনো বিশাল বটগাছ! দুশ্চিন্তায় স্থানীয়রা

কোচবিহার জেলায় বিগত কয়েকদিন ধরেই একটানা বৃষ্টির জেরে নাজেহাল সাধারণ মানুষেরা। এই বৃষ্টি সঙ্গে উপরি পাওনা হল ঝড়ো হাওয়া।

  • Share this:

    তুফানগঞ্জ: কোচবিহার জেলায় বিগত কয়েকদিন ধরেই একটানা বৃষ্টির জেরে নাজেহাল সাধারণ মানুষেরা। এই বৃষ্টি সঙ্গে উপরি পাওনা হল ঝড়ো হাওয়া। বৃষ্টির সঙ্গে আচমকা এই ঝড়ের দাপটের কারণেই রবিবার তুফানগঞ্জ ২নং ব্লকের শালবাড়ি ১নং গ্রাম সংলগ্ন বাজার এলাকায় বিপজ্জনকভাবে হেলে পড়েছে বহু প্রাচীন একটি বিশাল বটগাছ। এই ঘটনার জেরে ইতিমধ্যেই তিনটি দোকান ভেঙে গিয়েছে। সম্পূর্ণ গাছটি উপরে পড়লে ব্যাপক ক্ষয়-ক্ষতি হবে বলে রীতিমত আশঙ্কায় রয়েছেন স্থানীয় ব্যবসায়ীরা সহ এলাকার মানুষেরা। এই বিশাল গাছটি উপড়ে পড়ার কারণে রীতিমত চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়েছে গোটা এলাকা জুড়ে। এই এলাকায় আরোও বহু পুরনো কিছু বিশাল গাছ রয়েছে। যেভাবে এই গাছটি পড়ে গিয়েছে ঠিক একই ভাবে অন্যান্য বাকি গাছ গুলিও উপড়ে পড়ে যেতে পারে। যেভাবে প্রতিদিন বৃষ্টি হচ্ছে তার জেরে সমস্ত জায়গার মাটি আলগা হয়ে রয়েছে।

    আর এই সমস্ত পুরোনো গাছ গুলির ওজন মাটি যদি ধরে রাখতে না পারে। তবে যেকোন মুহুর্তে ঘটতে পারো আরো বড় কোন দূর্ঘটনা। তাই এই ঘটনার জেরে আরোও বড় কোন দুর্ঘটনা ঘটার আশঙ্কায় রয়েছেন স্থানীয় মানুষেরা। স্থানীয়দের মানুষদের কাছে এই গাছটি উপড়ে পড়ার ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে দ্রুত এসে পৌঁছানতুফানগঞ্জ ২নং ব্লক বিডিও প্রসেনজিৎ কুণ্ডু এবং বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর একটি দল। তড়িঘড়ি ঘিরে দেওয়া হয় গাছ সংলগ্ন গোটা এলাকা।

    আরও পড়ুনঃ স্থায়ী পরিকল্পনার অভাবে ধুঁকছে কোচবিহারের তেকোনিয়া ইকো-পার্ক

    প্রশাসনের এই ধরণের দ্রুত তৎপরতার কারণে খুশি সমস্ত ব্যবসায়ী সহ এলকার মানুষ। স্থানীয় ও প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, রবিবার বিকেলের দিকে বৃষ্টির সঙ্গে আচমকা কয়েক মিনিটের ঝড় হয় শালবাড়ি বাজার এলাকায়। আর তার জেরেই এই বহু পুরনো একটি বটগাছ প্রায় অর্ধেক উপরে পড়ে গিয়েছে। সকালের মধ্যে হয়তো সম্পূর্ন গাছটিই উপরে পড়বে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

    আরও পড়ুনঃ কোচবিহারে তামাক চাষে আগ্রহ দেখাচ্ছে নতুন প্রজন্মের চাষীরা

    তাতে বাজার লাগোয়া প্রায় আরো ছয় থেকে সাতটি দোকানের ব্যাপক ক্ষয়-ক্ষতির আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। যদিও এলাকাটি ঘিরে রাখার পাশাপাশি গোটা এলাকার উপর কড়া নজর রাখছেন প্রশাসনিক কর্তারা। তবে বিডিওর এহেন ভূমিকায় দারুণ খুশি শালবাড়ির ব্যবসায়ীরা সহ এলাকার স্থানীয় মানুষেরা।

    Sarthak Pandit
    First published:

    Tags: Cooch behar, Tufanganj

    পরবর্তী খবর