এই সরকারি স্কিমে মাত্র ৭ টাকা ইনভেস্ট করে প্রতি মাসে পেয়ে যাবেন ৫০০০ টাকা

কোনও ব্যক্তি ১৮ বছর বয়সে অটল পেনশন যোজনায় যুক্ত হলে ৬০ বছরের পর প্রতি মাসে পেয়ে যাবেন ৫০০০ টাকা পর্যন্ত পেনশন ৷

কোনও ব্যক্তি ১৮ বছর বয়সে অটল পেনশন যোজনায় যুক্ত হলে ৬০ বছরের পর প্রতি মাসে পেয়ে যাবেন ৫০০০ টাকা পর্যন্ত পেনশন ৷

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: অটল পেনশন যোজনা (Atal Pension Yojana) অসংগঠিত ক্ষেত্রের কর্মীদের অর্থনৈতিক নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করার ক্ষেত্রে একটি অত্যন্ত নির্ভরযোগ্য ও গুরুত্বপূর্ণ স্কিম। এ যোজনায় ১৮-৪০ বছরের যে কোনও ভারতীয় বাসিন্দাই সংশ্লিষ্ট স্কিমের জন্য আবেদন করতে পারেন। এই স্কিমের নিয়ন্ত্রক সংস্থা হল পেনশন রেগুলেটরি অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট অথরিটি (PFRDA)। স্কিমটির উপভোক্তাদের মাসিক পেনশনের পরিমাণ ১০০০-৫০০০ টাকা পর্যন্ত। এই সরকারি স্কিম আপনি যত তাড়াতাড়ি ইনভেস্ট করা শুরু করবেন তত বেশি ফান্ড জমা হবে ৷ এই স্কিম ২০ বছরের জন্য ইনভেস্ট করতে হবে ৷ এই যোজনায় ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের সঙ্গে লিঙ্ক থাকতে হবে আধার কার্ড ৷

    অটল পেনশন স্কিমে আপনি কত টাকা পেনশন পাবেন সেটা নির্ভর করবে আপনার বয়স এবং আপনি কত টাকা ইনভেস্ট করবেন যোজনায় ৷ এই যোজনায় ১০০০, ২০০০, ৩০০০, ৪০০০ ও অধিকতম ৫০০০ টাকা পর্যন্ত পেনশন পাবেন প্রতি মাসে ৷ এই পেনশন যোজনায় আপনি রেজিস্ট্রেশন করাতে চাইলে আপনার সেভিংস অ্যাকাউন্ট, আধার নম্বর ও মোবাইল নম্বর থাকতে হবে ৷

    কোনও ব্যক্তি ১৮ বছর বয়সে অটল পেনশন যোজনায় যুক্ত হলে ৬০ বছরের পর প্রতি মাসে পেয়ে যাবেন ৫০০০ টাকা পর্যন্ত পেনশন ৷ তবে এর জন্য প্রতি মাসে ২১০ টাকা জমা করতে হবে ৷ অর্থাৎ প্রতিদিন ৭ টাকা করে জমা করে প্রতি মাসে পেয়ে যাবেন ৫০০০ টাকা পেনশন ৷ এই যোজনায় ১০০০ টাকা পেনশনের জন্য প্রতি মাসে ৪২ টাকা জমা করতে হবে, ২০০০ টাকার জন্য ৮৪ টাকা, ৩০০০ টাকার জন্য ১২৬ টাকা ও ৪০০০ টাকার জন্য মাসে ১৬৮ টাকা জমা করতে হবে ৷

    এই যোজনায় সাবস্ক্রাইবারের যদি মৃত্যু হয়ে যায় তাহলে স্ত্রী নমিনি হয়ে যাবেন৷ তিনি যোজনার সমস্ত লাভ পাবেন ৷ সাবস্ক্রাইবারের যত পেনশন পাওয়ার কথা ততটাই স্ত্রীও পাবেন ৷

    Published by:Dolon Chattopadhyay
    First published: