• Home
  • »
  • News
  • »
  • business
  • »
  • বিনিয়োগকারীদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে SIP, এপ্রিল থেকে অক্টোবরে পৌঁছে গিয়েছে ৬৭,০০০ কোটিতে!

বিনিয়োগকারীদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে SIP, এপ্রিল থেকে অক্টোবরে পৌঁছে গিয়েছে ৬৭,০০০ কোটিতে!

অক্টোবর মাসেই নতুন করে ২৩.৮৩ লাখ বিনিয়োগকারী  SIP-তে বিনিয়োগ করা শুরু করেছে।

অক্টোবর মাসেই নতুন করে ২৩.৮৩ লাখ বিনিয়োগকারী SIP-তে বিনিয়োগ করা শুরু করেছে।

অক্টোবর মাসেই নতুন করে ২৩.৮৩ লাখ বিনিয়োগকারী SIP-তে বিনিয়োগ করা শুরু করেছে।

  • Share this:

#কলকাতা: বর্তমানে বিনিয়োগকারীদের কাছে ক্রমশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে SIP। চলতি আর্থিক বর্ষের প্রথম ৭ মাসেই অর্থাৎ এপ্রিল মাস থেকে অক্টোবর মাস পর্যন্ত মিউচুয়াল ফান্ডের এই SIP পৌঁছে গিয়েছে প্রায় ৬৭,০০০ কোটি টাকায়। এর থেকেই বোঝা যাচ্ছে যে বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগের প্রথম পছন্দ মিউচুয়াল ফান্ডের SIP। অ্যাসোসিয়েশন অফ মিউচুয়াল ফান্ডস ইন ইন্ডিয়ার রিপোর্ট অনুযায়ী জানা গিয়েছে যে, ২০২০-২১ আর্থিক বর্ষে SIP-তে বিনিয়োগের পরিমাণ ছিল প্রায় ৯৬,০৮০ কোটি টাকা। ২০১৬-১৭ আর্থিক বর্ষে SIP-তে বিনিয়োগের পরিমাণ ছিল প্রায় ৪৩,৯২১ কোটি টাকা।

আরও পড়ুন: পেট্রোল ও ডিজেলের নতুন দাম জারি, আগামী কয়েকদিনে কমতে পারে দাম....

অক্টোবরে পৌঁছেছে উচ্চমাত্রায়-

সেপ্টেম্বরেSIP-তে বিনিয়োগের পরিমাণ প্রায় ১০,৩৫১ কোটি টাকা হলেও, অক্টোবরে SIP-তে বিনিয়োগের পরিমাণ প্রায় ১০,৫১৯ কোটি টাকা। অক্টোবর মাসেই নতুন করে ২৩.৮৩ লাখ বিনিয়োগকারী SIP-তে বিনিয়োগ করা শুরু করেছে। এর ফলে চলতি আর্থিক বর্ষের প্রথম ৭ মাসেই অর্থাৎ এপ্রিল মাস থেকে অক্টোবর মাস পর্যন্ত প্রায় ১.৫ কোটি নতুন বিনিয়োগকারী SIP-তে বিনিয়োগ করা শুরু করেছে। আগের আর্থিক বছরে এর পরিমাণ ছিল প্রায় ১.৪১ কোটি।

আরও পড়ুন: সাধারনের জন্য স্বস্তি, আরও কমানো হতে পারে পেট্রোল ও ডিজেলের দাম ?

অনলাইনে SIP শুরু করার উপায়-

স্টেপ ১ - SIP শুরু করার জন্য প্যান কার্ড, একটি ঠিকানার প্রমাণ, একটি পাসপোর্ট সাইজ ফটো, একটি চেক বুকের দরকার হয়।

স্টেপ ২ - মিউচুয়াল ফান্ডে বিনিয়োগ করার জন্য সবার আগে কেওয়াইসি পূরণ করা দরকার।

স্টেপ ৩ - কেওয়াইসি পূরণ করার পর মিউচুয়াল ফান্ডের ওয়েবসাইট থেকে নিজেদের পছন্দ অনুযায়ী SIP বেছে নেওয়া যাবে।

স্টেপ ৪ - নতুন অ্যাকাউন্ট রেজিস্টার করার জন্য 'রেজিস্টার নাও' লিঙ্কে ক্লিক করতে হবে।

আরও পড়ুন: শীঘ্রই UAN এর সঙ্গে লিঙ্ক করিয়ে নিন Aadhaar, না হলে হতে পারে বড় লোকসান

স্টেপ ৫ - ফর্ম জমা করার আগে নিজেদের সকল পার্সোনাল ডিটেলস এবং ইনফরমেশন ফিল আপ করতে হবে।

স্টেপ ৬ - অনলাইন লেনদেনের জন্য একটি ইউজারনেম এবং পাসওয়ার্ড তৈরি করতে হবে।

স্টেপ ৭ - এর পর যে ব্যাঙ্কের অ্যাকাউন্টের থেকে SIP-এর টাকা কাটবে, সেই অ্যাকাউন্ট লিঙ্ক করাতে হবে।

স্টেপ ৮ - এর পর নিজেদের ইউজারনেম দিয়ে লগ ইন করার পর, যে স্কিমে বিনিয়োগ করতে চান সেটি বেছে নিতে হবে।

স্টেপ ৯ - এর পর রেজিস্ট্রেশন পুরো হয়ে গেলে কনফার্মেশন পাওয়ার পর বিনিয়োগ শুরু করা যেতে পারে।

স্টেপ ১০ - SIP সম্ভবত আনুমানিক ৩৫-৪০ দিন পর থেকেই শুরু হয়।

Published by:Dolon Chattopadhyay
First published: