Home /News /birbhum /
Birbhum: মর্মান্তিক! ১৪ নং জাতীয় সড়কে বাসের সঙ্গে অটোর মুখোমুখি সংঘর্ষ, মৃত ৯!

Birbhum: মর্মান্তিক! ১৪ নং জাতীয় সড়কে বাসের সঙ্গে অটোর মুখোমুখি সংঘর্ষ, মৃত ৯!

বাসের সঙ্গে অটোর মুখোমুখি সংঘর্ষে মৃত্যু হল চালক ও আট জন মহিলা যাত্রীর। মৃতরা প্রত্যেকেই আদিবাসী মহিলা শ্রমিক বলে জানা যাচ্ছে।

  • Share this:

    #বীরভূম : বাসের সঙ্গে অটোর মুখোমুখি সংঘর্ষে মৃত্যু হল চালক ও আট জন মহিলা যাত্রীর। মৃতরা প্রত্যেকেই আদিবাসী মহিলা শ্রমিক বলে জানা যাচ্ছে। মঙ্গলবার এমন ভয়ঙ্কর দুর্ঘটনাটি ঘটেছে বীরভূমের মল্লারপুর থানার অন্তর্গত মেটেলডাঙা গ্রামের কাছে ১৪ নম্বর জাতীয় সড়কের উপর। ঘটনার পর ঘাতক বাসের চালক এবং খালাসি ঘটনাস্থল থেকে চম্পট দিয়েছেন। জানা যাচ্ছে, এদিন এই দুর্ঘটনায় যে নয় জন শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে তাদের বাড়ি বীরভূমের রামপুরহাট থানার অন্তর্গত পারকান্দি গ্রামে আদিবাসী। এই গ্রাম থেকে তারা মল্লারপুর ব্লকের অন্তর্গত একটি গ্রামে ধান রোপণ করার কাজে গিয়েছিলেন। সেখান থেকে ফেরার পথেই এই ভয়ংকর দুর্ঘটনাটি ঘটে। প্রত্যক্ষদর্শী শিবদাস লেট জানিয়েছেন, \"একেবারে সামনাসামনি এমন ঘটনা ঘটে গেল। কেউ কিছু বুঝে ওঠার আগেই ঘটনাটি ঘটে। অথচ যে অটোটির সঙ্গে এই দুর্ঘটনাটি ঘটে, সেই অটোটি নিজের সাইটে যাচ্ছিল। বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ওই অটোটিকে মুখোমুখি ভাবে ধাক্কা মারে। যারা মারা যান তারা প্রত্যেকেই আদিবাসী শ্রমিক।\"

    দুর্ঘটনার সময় মালদা থেকে দুর্গাপুরগামী একটি সরকারি বাস রামপুরহাট ছেড়ে সিউড়ির দিকে যাচ্ছিল। অন্যদিকে মল্লারপুর থেকে ওই শ্রমিকদের অটোতে চাপিয়ে অটোটি যাচ্ছিল রামপুরহাটের দিকে। এমন অবস্থাতেই দুর্ঘটনাটি ঘটে। দুর্ঘটনার পর দুমড়ে মুচড়ে যায় অটোটি এবং যাত্রীরা ছড়িয়ে ছিটিয়ে রাস্তার উপর পড়ে যান। তার উপর দিয়েই বাসটি চলে যায়।

    আরও পড়ুনঃ রীতি মেনে বীরভূমে পালিত মহরম

    এই দুর্ঘটনায় আট জন আদিবাসী মহিলা শ্রমিক সহ মৃত্যু হয় চালকের। মৃতদের মধ্যে যাদের পরিচয় এখনো পর্যন্ত জানা গিয়েছে তারা হলেন অটো চালক সীতারাম হেমরম (২৬)। বাকিরা হলেন যশোমতী হেমরম (৫০), হাপন কালী বেসতা (৩০), হোপেন হেমব্রম (২৬), পাকার হেমব্রম (২০), সন্দই হেমব্রম (৪৫), শাকিলা হেমব্রম (৫৪), বাসন্তী সরেন (৪০)।

    আরও পড়ুনঃ বৃষ্টির দেখা নেই আকাশে, ঝুঁকি নিয়েই সেচের জলে চাষ শুরু বীরভূমে

    একজনকে এখনও সনাক্ত করা যায়নি। ঘটনার পর মৃত চালক ও যাত্রীদের রামপুরহাট সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়েছে। জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার অভিষেক রায় বলেন, “বাসটি নিয়ন্ত্রন হারিয়ে ধাক্কা মারে। আমরা ঘটনার তদন্ত করছি”।

    Madhab Das
    Published by:Soumabrata Ghosh
    First published:

    Tags: Birbhum, Rampurhat

    পরবর্তী খবর