Home /News /west-bardhaman /
Paschim Bardhaman: হাততালি আর আদিবাসী মন্ত্রে নিয়ামতপুরে হয় রথযাত্রা

Paschim Bardhaman: হাততালি আর আদিবাসী মন্ত্রে নিয়ামতপুরে হয় রথযাত্রা

আদিবাসীদের জীবনযাত্রা, উৎসবের প্রতি সমাজের অন্যান্য লোকেদের বিশেষ আকর্ষণ রয়েছেন। বিভিন্ন বিষয়ে তাদের বিচিত্র রকমের নিয়ম কানুন এই আকর্ষণের অন্যতম কারণ।

  • Share this:

    #আসানসোল : আদিবাসীদের জীবনযাত্রা, উৎসবের প্রতি সমাজের অন্যান্য লোকেদের বিশেষ আকর্ষণ রয়েছেন। বিভিন্ন বিষয়ে তাদের বিচিত্র রকমের নিয়ম কানুন এই আকর্ষণের অন্যতম কারণ। তাদের পরিবেশের প্রতি ভক্তি, নারী জাতির প্রতি শ্রদ্ধামূলক আচরণ সমাজের অন্যান্য শ্রেণীর দৃষ্টি আকর্ষণ করে খুব সহজেই। তাদের উৎসবে অচেনা নানারকম নিয়ম সাধারণ বিষয়কে অসাধারণ করে তোলে। উল্টোরথ, অর্থাৎ জগন্নাথ দেবের মাসির বাড়ি থেকে নিজের বাড়ি ফেরার উৎসবেও তেমনি বিচিত্র ছবি ধরা পড়েছে পশ্চিম বর্ধমান জেলার নিয়ামতপুরে। এখানে আদিবাসী মন্ত্রে হাততালির সঙ্গে পুজো নেন জগন্নাথ দেব। তবে শুধু জগন্নাথ দেব একা নন, অন্যান্য দেবতারাও এদিন পুজো পান আদিবাসী সম্প্রদায়ের মানুষের কাছে। তাছাড়াও, মহিলা এবং বয়স্করাও এদিন স্থানীয়দের কাছে শ্রদ্ধাঞ্জলি পান। নিয়ামতপুরের সিংহ রায় বাবার আশ্রমে রথযাত্রা পালিত হয় বিশেষ নিয়মে। আদিবাসীদের দ্বারা এই রথযাত্রা উৎসব পালন এবং আয়োজন করা হয়। আদিবাসী সম্প্রদায়ের মানুষজন হাততালি দিয়ে নিজস্ব মন্ত্রের সঙ্গে জগন্নাথ দেবের আরাধনা করেন।

    তারপর স্থানীয় বিভিন্ন মন্দিরে দেবতাদের পায়ে জল ঢেলে শ্রদ্ধাঞ্জলি দেন তারা। রথযাত্রা এবং উল্টো রথের দিন স্থানীয় মানুষ শিব, দুর্গা, অন্নপূর্ণা সহ বিভিন্ন মূর্তির পায়ে জল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। পাশাপাশি স্থানীয় মহিলাদের পায়ে জল দিয়ে নত মস্তকে তাদের প্রণাম করেন তাছাড়া বয়স্কদেরও একই নিয়মে শ্রদ্ধা জানান। এরপর জগন্নাথ দেবকে রথে চাপিয়ে এলাকায় ঘোরানো হয়। বিশেষ নিয়মে জগন্নাথ দেবের আরাধনা দেখতে বহু মানুষজন এখানে ভিড় করেন।

    আরও পড়ুনঃ যাত্রাশিল্পের উন্নতির জন্য বুকিং সেন্টার বাড়ানোর নিদান

    জগন্নাথ দেবের সামনে স্থানীয় মানুষজন গোল করে ঘিরে দাঁড়িয়ে হাত তালি দেন এবং মন্ত্র বলতে থাকেন। আর স্থানীয় পুরোহিত জগন্নাথ দেবকে পুজো দেন এবং তার মন্ত্র জপ করেন। বহু বছর ধরে এই একই নিয়মে সিংহ রায় বাবার মন্দিরে রথযাত্রা উৎসব পালিত হচ্ছে। তবে কতদিন ধরে এই নিয়ম চলে আসছে, তা নির্দিষ্ট করে বলতে পারেন নি স্থানীয় প্রবীণরাও।

    আরও পড়ুনঃ অমরনাথ গিয়ে চরম বিপদে আসানসোলের ১২ যুবক!

    তারা বলছেন, বহু ছোট বয়স থেকেই তারা এই নিয়মে রথযাত্রা পালন করতে দেখে আসছেন। তাদের কাছে রথযাত্রা উৎসবও বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য। কারণ আদিবাসী সম্প্রদায়ের বিভিন্ন উৎসবের পাশাপশি তারা ধুমধামের সঙ্গে রথযাত্রা পালন করে আসছেন নিজস্ব রীতিনীতিতে।

    Nayan Ghosh
    Published by:Soumabrata Ghosh
    First published:

    Tags: Asansol, Paschim bardhaman, Rath Yatra 2022

    পরবর্তী খবর