Home /News /west-bardhaman /
Paschim Bardhaman: অবৈধ কয়লা কারবারে রাশ টানতে কড়া পুলিশ

Paschim Bardhaman: অবৈধ কয়লা কারবারে রাশ টানতে কড়া পুলিশ

title=

অবৈধ কয়লা কারবার আটকাতে, অবৈধভাবে কয়লা পরিবহনের রাশ টানতে এবার কড়া হয়েছে আসানসোল দুর্গাপুর পুলিশ কমিশনারেট।

  • Share this:

    আসানসোল: অবৈধ কয়লা কারবার আটকাতে, অবৈধভাবে কয়লা পরিবহনের রাশ টানতে এবার কড়া হয়েছে আসানসোল দুর্গাপুর পুলিশ কমিশনারেট। জেলায় যাতে ভিন রাজ্য থেকে অবৈধভাবে কয়লা ভর্তি ট্রাক ঢুকতে না পারে, তার জন্য সতর্ক হয়েছে পুলিশ। লাগাতার চলছে নজরদারি। বাড়ানো হয়েছে আসানসোল ঝাড়খন্ড সীমান্তের ডুবুরডি চেকপোষ্টের পুলিশি তৎপরতা। ঝাড়খন্ড থেকে আসা সমস্ত কয়লা ভর্তি ট্রাকগুলির বৈধ কাগজপত্র দেখার পরেই, সেগুলিকে রাজ্যে ঢোকার অনুমতি দেওয়া হচ্ছে। যদিও এই নিয়ে আসানসোলের বিরোধী শিবির অভিযোগ তুলতে শুরু করেছে। অন্যদিকে ছাড়পত্র পাওয়ার জন্য দীর্ঘ অপেক্ষা করার ফলে, মাঝেমধ্যেই ট্রাকচালকরা ক্ষোভে ফুঁসছেন। কিন্তু পুলিশের পক্ষ থেকে দাবি করা হচ্ছে, অবৈধভাবে কয়লা পরিবহন আটকাতেই পুলিশ কড়া পদক্ষেপ করছে। যে সমস্ত ট্রাকের কয়লা পরিবহনের জন্য বৈধ কাগজপত্র রয়েছে, তাদের রাজ্যে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে। অবৈধ পরিবহন আটকাতেই এই পদক্ষেপ। ইসিএল বা বিসিসিএলয়ের তরফ থেকে সবুজ সঙ্কেত পাওয়ার পরেই ট্রাক গুলিকে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে। যাতে ট্রাকচালকদের অসুবিধা না হয়, তার জন্য চেকপোস্টের বাইরে এবং ঝারখন্ড সীমান্তের দিকে তালিকা তৈরি করে, তা নোটিশ বোর্ডে ঝুলিয়ে দেওয়া হচ্ছে।

    পাশাপাশি ট্রাকচালকদের চেকপোষ্টে অপেক্ষা করার সময় যাতে অসুবিধা না হয়, তার জন্য সবরকম সহযোগিতা করা হবে বলে আশ্বাস দিয়েছেন আসানসোল দুর্গাপুর পুলিশ কমিশনারেট এক শীর্ষ কর্তা। অন্যদিকে ঝাড়খন্ড পুলিশের সঙ্গে লাগাতার যোগাযোগ রাখছে জেলা পুলিশ। প্রশাসন সূত্রে খবর, শুধুমাত্র অবৈধ কয়লা কারবার রুখতে পুলিশ কড়া পদক্ষেপ করছে। এক্ষেত্রে তাদের কোনও রকম অসুবিধা হবে না।

    আরও পড়ুনঃ Paschim Bardhaman: এবার পুরবোর্ড গঠন নিয়ে হাইকোর্টে মামলা

    আরও পড়ুনঃ Durgapur News: মাদক পাচারের কৌশল দেখে চক্ষু চড়কগাছ গোয়েন্দাদের! কী কাণ্ড দুর্গাপুরে!

    তবে আসানসোল ঝাড়খন্ড সীমান্তে অবস্থিত ডুবুরডি চেকপোস্ট ট্রাকচালকদের ছাড়পত্র পাওয়ার জন্য দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করতে হচ্ছে বলে অভিযোগ। ঝাড়খণ্ডের দিকে দেখা যাচ্ছে কয়লা ভর্তি ট্রাকের লম্বা লাইন। দীর্ঘ অপেক্ষার জন্য কখনও কখনও বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন তারা। তবে জেলা পুলিশের দাবি, যাদের কয়লা পরিবহনের জন্য বৈধ কাগজপত্র রয়েছে, তাদের কোন সমস্যা হবেনা। কাগজপত্রের বৈধতা দেখার পরেই ট্রাকগুলিকে রাজ্যে ঢোকার অনুমতি দেওয়া হবে।

    Nayan Ghosh
    First published:

    Tags: Asansol, Coal, Paschim bardhaman

    পরবর্তী খবর