• Home
  • »
  • News
  • »
  • uncategorized
  • »
  • BJP West Bengal: দায়িত্ব পেয়েও বৈঠকে নেই অর্জুন- রাজু! পুরভোটে কী হবে, বিভ্রান্তি বিজেপি-তে

BJP West Bengal: দায়িত্ব পেয়েও বৈঠকে নেই অর্জুন- রাজু! পুরভোটে কী হবে, বিভ্রান্তি বিজেপি-তে

পুরভোটের প্রস্তুতি বৈঠকে অনুপস্থিত অর্জুন সিং৷

পুরভোটের প্রস্তুতি বৈঠকে অনুপস্থিত অর্জুন সিং৷

এ দিন হেস্টিংসে বিজেপি-র দফতরে কলকাতা পুরসভার নির্বাচনের পরিচালনা এবং দায়িত্ব বণ্টন সংক্রান্ত বৈঠক ছিল (KMC elections 2021৷ BJP West Bengal)৷

  • Share this:

#কলকাতা: তৃণমূল কংগ্রেস তো বটেই, প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করে দিয়েছে বাম- কংগ্রেসও (KMC Elections 2021)৷ সেখানে কলকাতা পুরভোট নিয়ে বিজেপি-র প্রস্তুতি বৈঠকেই গরহাজির দলের দুই দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা অর্জুন সিং (Arjun Singh) ও রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়৷ যে ঘটনাকে কেন্দ্র করে বিজেপি-র অন্দরেই প্রশ্ন উঠছে৷

দুই নেতারই অবশ্য দাবি, তাঁরা নাকি বৈঠকের কথাই জানতেন না৷ আর বিজেপি-র (BJP West Bengal) রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদারের দাবি, সময়মতো সবাই নিজের দায়িত্ব পালন করবেন৷ সব দেখেশুনে বৈঠকে উপস্থিত দলের নিচুতলার নেতাদের প্রশ্ন, প্রার্থী তালিকা ঘোষণার ক্ষেত্রেই দল চার নম্বরে চলে গেল৷ সেখানে কবে প্রার্থী ঘোষণা হবে, কবে দলের নেতারা প্রচারে নামবেন আর কবেই বা ভোটের রণনীতি ঠিক হবে? সবমিলিয়ে চূড়ান্ত বিভ্রান্তি গেরুয়া শিবিরের অন্দরে৷

আরও পড়ুন: জোড়া ফুলের প্রার্থী প্রয়াত বাম নেতা ক্ষিতি গোস্বামীর মেয়ে

এ দিন হেস্টিংসে বিজেপি-র দফতরে কলকাতা পুরসভার নির্বাচনের পরিচালনা এবং দায়িত্ব বণ্টন সংক্রান্ত বৈঠক ছিল৷ মূল উদ্দেশ্য ছিল ভোটের সময় কে কোন বরোর দায়িত্ব সামলাবে, কে কোন বুথ কমিটির দায়িত্ব থাকবে, তা ঠিক করে দেওয়াই বৈঠকের উদ্দেশ্য ছিল৷ অথচ সেই বৈঠকেই কলকাতা পুরভোটের দায়িত্বপ্রাপ্ত তিন নেতার মধ্যে সাংসদ জ্যোতির্ময় মাহাতোকে বাদ দিয়ে বাকি দুই নেতা অর্জুন সিং বা রাজু বন্দ্যোপাাধ্যায় উপস্থিত ছিলেন না৷

কলকাতার পুরসভা নির্বাচন সংক্রান্ত বৈঠকে মূল বক্তা ছিলেন অমিত মালব্য৷ কিন্তু কেন্দ্রীয় ওই নেতার দেড় ঘণ্টার দীর্ঘ বক্তব্য শোনার পর হতাশা অধিকাংশ নেতা, কর্মীরা৷ কারণ তাঁদের অভিযোগ, অমিত মালব্য যা যা করতে বলেছেন তা শুনতে ভাল লাগলেও বাস্তবের সঙ্গে সম্পর্ক নেই৷ অথচ এখন ঘরে বসে বক্তব্য না রেখেই ভোটের প্রস্ততিতে মাঠে নেমে পড়াই অনিবার্য বলে মনে করছেন দলের নিচু তলার নেতারা৷

আরও পড়ুন: একঝাঁক তরুণ মুখ, তৃণমূলের প্রার্থী তালিকায় মন্ত্রী-বিধায়কদের সন্তানরাও

মুকুল রায় বিজেপি-তে আসার পর রাজ্যে দলের নির্বাচন কমিটির দায়িত্বে তিনিই মূলত থাকতেন৷ তার পর থেকেই এই দায়িত্ব পড়ছে শুভেন্দু অধিকারী, অর্জুন সিংরা৷ ভবানীপুর উপনির্বাচনের ক্ষেত্রে দায়িত্ব পড়েছিল অর্জুন সিং-এর উপরে৷ ব্যারাকপুরের সাংসদ তখন যথেষ্ট তৎপরই ছিলেন৷ কিন্তু পুরভোটের দায়িত্ব পাওয়ার পর তিনি অনেকটা নিষ্প্রভ বলেই দলের অন্দরের খবর৷ অর্জুন সিং দাবি করেছেন, এ দিনের বৈঠকের কথা তিনি জানতেনই না৷ দলীয় সূত্রে অবশ্য খবর, গতকালই অর্জুন সিং-এর এলাকা ব্যারাকপুরে তাঁরই বহু অনুগামী তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন৷ পুরভোটের ঠিক আগে যা তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল৷

অর্জুন সিং, রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়দের অনুপস্থিতিকে অবশ্য গুরুত্ব দিতে নারাজ বিজেপি রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার৷ তাঁর দাবি, 'সময় মতো প্রত্যেকেই নিজের নিজের দায়িত্ব পালন করবেন৷' আবার দলেরই নেতা শমীক ভট্টাচার্য বলেন, 'এ দিনের বৈঠকে ওঁদের আসার প্রয়োজন ছিল না, তাই ওঁদের ডাকা হয়নি৷' এ সবের মধ্যেই এখন বিজেপি-র অন্দরে প্রশ্ন, প্রার্থী তালিকা ঘোষণা হতে আর কতদিন লাগবে? তাঁদের আশঙ্কা, বিধানসভা নির্বাচনের মতোই পুরভোটেও দলের কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব রাজ্য নেতাদের উপরে প্রার্থী তালিকা চাপিয়ে দিতে পারেন৷ সেক্ষেত্রে দলের অন্দরেই ফের একপ্রস্ত দোষারোপ, পাল্টা দোষারোপের পালা শুরু হবে বলেও আশঙ্কা করছেন বিজেপি-র নেতা কর্মীরা৷

Published by:Debamoy Ghosh
First published: