Home /News /technology /
OnePlus || ওয়ানপ্লাসের ফোন কিনবেন ভাবছেন? কোন মডেল হতে পারে খাস আপনার জন্যই জুতসই?

OnePlus || ওয়ানপ্লাসের ফোন কিনবেন ভাবছেন? কোন মডেল হতে পারে খাস আপনার জন্যই জুতসই?

OnePlus || প্রফেশনাল থেকে শুরু করে শিক্ষার্থীদের জন্য, দামি থেকে শুরু করে মিড রেঞ্জ- সব রকমের সব ডিভাইসই থাকছে OnePlus-এর তালিকায়।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: এই মুহূর্তে দেশের সেরা স্মার্টফোনের তালিকায় শীর্ষে রয়েছে OnePlus। ক্লিন ইন্টারফেস, ভালো পারফরম্যান্স এবং ভালো ক্যামেরা কোয়ালিটির জন্য অনেক গ্রাহকরাই এখন OnePlus-কেই পছন্দের তালিকায় রাখছেন। প্রফেশনাল থেকে শুরু করে শিক্ষার্থীদের জন্য, দামি থেকে শুরু করে মিড রেঞ্জ- সব রকমের সব ডিভাইসই থাকছে OnePlus-এর তালিকায়। বিশেষ করে যাঁরা কম খরচে ভালো স্মার্টফোনের অভিজ্ঞতা নিতে চান তাঁদের জন্য OnePlus ভালো বিকল্প হতে পারে।

আরও পড়ুন-ফের মূল্যবৃদ্ধি! ১৮ জুলাই থেকে ব্যাপক বাড়ছে কোন নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের দাম, রইল তালিকা

OnePlus সাধারণত আগে বছরে এক বা দুটি ডিভাইস লঞ্চ করত। কিন্তু এখন প্রতি বছরেই সম্ভবত গ্রাহকদের চাহিদার কথা মাথায় রেখে বিভিন্ন সেগমেন্টে বেশ কয়েকটি ডিভাইস লঞ্চ করছে। আগামীতে কোম্পানি আরও বেশ কিছু আপডেটেড ডিভাইস লঞ্চ করতে চলেছে এমন ইঙ্গিত মিলছে। যাঁরা OnePlus-এর স্মার্টফোন কিনতে চান তাঁরা এই কয়েকটি ডিভাইসের কথা মাথায় রাখতে পারেন।

OnePlus 10 Pro– প্রিমিয়াম ডিভাইস

কাদের কেনা উচিত-

প্রফেশনাল, পাওয়ার ইউজার এবং গেমারদের জন্য উপযুক্ত। যাঁরা পাওয়াফুল ডিভাইসসের সঙ্গে সঙ্গে ক্লিন ইন্টারফেস, ভালো পারফরম্যান্স এবং ভালো ক্যামেরা খুঁজছেন তাঁদের জন্য উপযুক্ত।

OnePlus 10 Pro আপাতত কোম্পানির সর্বশেষ আপডেটেড ফ্ল্যাগশিপ ডিভাইস। লেটেস্ট হার্ডওয়্যার এবং প্রিমিয়াম ডিজাইনের এই সেটটি প্রফেশনালদের জন্য আদর্শ, যাঁদের কাজের জন্য নানা দিক থেকে একান্ত ভাবেই ফোনের ওপর ভরসা করতে হয়।

এটিতে একটি ৬.৭ ইঞ্চি Quad HD+ AMOLED ডিসপ্লে রয়েছে যা 120Hz রিফ্রেশ রেট দেয় এবং এতে বাইরের আলোতেও ডিসপ্লেকে উজ্জ্বল দেখায়। বড় ডিসপ্লে এবং উচ্চ রিফ্রেশ রেটযুক্ত এই ডিভাইসটি গেমিং এবং স্ট্রিমিংয়ের জন্যেও দারুন। এছাড়াও ফোনটিতে রয়েছে Snapdragon 8 Gen 1 চিপসেট এবং 12GB পর্যন্ত RAM ও 256GB ইন্টারনাল স্টোরেজ পাওয়ার। ডিভাইসের পেছনে একটি ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ রয়েছে এবং সামনে 32MP সেলফি ক্যামেরা সেটআপ রয়েছে। এছাড়াও 80W যুক্ত দ্রুত চার্জিং পাওয়ার সমেত ফোনটিতে 5,000mAh ব্যাটারি পাওয়ার রয়েছে যা দ্রুত চার্জিংয়ে সহায়তা করে। ডিভাইসটির ভালো পারফরম্যান্স, বড় ডিসপ্লে ফ্রেমওয়ার্ক এবং দুর্দান্ত কোয়ালিটির ডিসপ্লের সুবিধে রয়েছে, তবে ডিভাইসটি উপলব্ধ ফিচারের তুলনায় অনেকটা দামি।

OnePlus 9 Pro 5G-

গত বছরেই এই ফোনটি লঞ্চ করেছে সংস্থা, এখনও পর্যন্ত বহু গ্রাহকই ফোনটি কিনেছেন এবং তাঁদের ভালো অভিজ্ঞতা শেয়ার করেছেন। কাদের কেনা উচিত- প্রফেশনাল, পাওয়ার ইউজার এবং গেমারদের জন্য ঠিকঠাক, যাঁরা সাশ্রয়ী মূল্যের মধ্যে বিকল্প খুঁজছেন তাঁরা এটি কিনতে পারেন। গত বছর লঞ্চ করা OnePlus 9 Pro 5G এখনও ভালো বিকল্প হিসেবে পারফরম্যান্স দিচ্ছে। OnePlus 9 Pro 5G-তে রয়েছে 120Hz রিফ্রেশ রেট সহ ৬.৭-ইঞ্চি Quad HD+ Fluid AMOLED ডিসপ্লে সেটআপ। উচ্চ রিফ্রেশ রেটযুক্ত হওয়ায় এবং বড় আকারের স্ক্রিন থাকায় তা গেম খেলার জন্য উপযুক্ত। ডিভাইসটিতে রয়েছে 12GB RAM এবং 256GB ইন্টারনাল স্টোরেজ সহ Snapdragon 888 চিপসেট। ডিভাইসটির পিছনে রয়েছে একটি ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ এবং সামনে রয়েছে 16MP সেলফি ক্যামেরা সেটআপ। এছাড়াও থাকছে স্মার্ট ডিসপ্লে ফিচার। যাতে বাইরের আলোতেও ডিসপ্লেকে উজ্জ্বল দেখায়। সঙ্গে রয়েছে দুর্দান্ত মানের ক্যামেরা যাতে দিনের আলো এবং কম আলোতে দারুন ছবি ওঠে। ডিভাইসটি 4,500mAh ব্যাটারি দ্বারা চালিত এবং 65W দ্রুত চার্জিং সাপোর্ট সহ আরও অত্যাধুনিক স্পেসিফিকেশন উপলব্ধ। ডিভাইসটির ভালো পারফরম্যান্স, বড় ডিসপ্লে ফ্রেমওয়ার্ক এবং দুর্দান্ত কোয়ালিটির ডিসপ্লের সুবিধে রয়েছে, তবে ডিভাইসটি উপলব্ধ ফিচারের তুলনায় অনেকটা দামি।

OnePlus 10R 5G-

সাশ্রয়ী মূল্যের মধ্যে সবচেয়ে ভালো ডিভাইস এটি।

কাদের কেনা উচিত-

প্রফেশনাল ব্যক্তিত্ব এবং শিক্ষার্থীরা যাঁরা অপেক্ষাকৃত কম মূল্যে একটি প্রিমিয়াম ডিভাইস খুঁজছেন।

OnePlus 10R 5G-তে রয়েছে ডুয়াল-টোন ডিজাইন এবং ডুয়াল ব্যাটারি ভেরিয়েন্টের সুবিধে। ডিভাইসটিতে 120Hz রিফ্রেশ রেট সহ একটি ৬.৭-ইঞ্চি ফুল HD+ AMOLED ডিসপ্লে রয়েছে। উচ্চ রিফ্রেশ রেটযুক্ত ডিসপ্লে গেমিংয়ের জন্য এককথায় দারুন। MediaTek Dimensity 8100-Max চিপসেট দ্বারা চালিত ও 12GB RAM এবং 256GB ইন্টারনাল স্টোরেজ সহ এই ডিভাইসটি তুলনামূলক ভাবে ভালো পারফরম্যান্স দেয়। ডিভাইসের পেছনে একটি ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ রয়েছে এবং সামনে 6MP সেলফি ক্যামেরা রয়েছে যা ছবির কোয়ালিটির সঙ্গে কোনও রকম আপোস করবে না। এই ডিভাইসটির দুটি ব্যাটারি ভ্যারিয়েন্ট রয়েছে, প্রথমটি হল 5,000mAh ব্যাটারিযুক্ত ভ্যারিয়েন্ট যা 80W ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট সহ পাওয়া যায় এবং অন্যটি হল 4,500mah ব্যাটারি ভ্যারিয়েন্ট যা 150W ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট সহ বাজারে উপলব্ধ। এই ডিভাইসটিতে দ্রুত চার্জিং এবং ভালো পারফরম্যান্স, ভালো কোয়ালিটির ডিসপ্লে, বড় ডিসপ্লে ফ্রেমওয়ার্ক থাকলেও ক্যামেরার মান কিন্তু তুলনামূলক ভাবে (6MP সেলফি ক্যামেরা) গড়।

OnePlus 9 5G

কাদের কেনা উচিত–

সাশ্রয়ী মূল্যের মধ্যে শিক্ষার্থীদের জন্য সবচেয়ে ভালো, যাঁরা গেমিং এবং ভালো ডিসপ্লে সেটিংসের সুবিধে চান। দুর্দান্ত হার্ডওয়্যার স্পেসিফিকেশন সহ এই ডিভাইসটি কোম্পানি অনেক আগে লঞ্চ করলেও এটির পারফরম্যান্স দারুন। ডিভাইসটি 90Hz রিফ্রেশ রেট এবং 1100 নিট ব্রাইটনেস সহ ৬.৫৫ ইঞ্চি ফুল HD+ AMOLED ডিসপ্লে সহ উপলব্ধ। এতে বাইরের আলোতেও ডিসপ্লেকে উজ্জ্বল দেখায়। ডিভাইসটি প্রো ভ্যারিয়েন্টের মতো একই Snapdragon 888 চিপসেট দ্বারা চালিত এবং 12GB RAM এবং 256GB ইন্টারনাল স্টোরেজ সহ উপলব্ধ। এবারে অপটিক্সের ক্ষেত্রে আসা যাক, এতে রয়েছে ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ এবং একটি 16MP সেলফি ক্যামেরা। দিনের আলো এবং কম আলোতে এটি দুর্দান্ত ছবি ক্যাপচার করে। আগ্রহী ফটোগ্রাফাররা দুর্দান্ত অলটারনেটিভ ডিভাইস হিসেবে এটি ব্যবহার করতে পারেন। এতে রয়েছে 4,500mAh ব্যাটারি এবং 65W দ্রুত চার্জিং পাওয়ারের সুবিধে। 65W দ্রুত চার্জিং পাওয়ারের সঙ্গে ফোনটি মাত্র ২৯ মিনিটে সম্পূর্ণ চার্জ হয়ে যায়। ডিভাইসটিতে ভালো পারফরম্যান্স, বড় ডিসপ্লে ফ্রেমওয়ার্ক এবং দুর্দান্ত কোয়ালিটির ডিসপ্লে থাকলেও ওয়্যারলেস চার্জিংয়ের সুবিধে নেই।

OnePlus Nord 2T-

মিড-রেঞ্জ অফারের মধ্যে দুর্দান্ত ফোন। OnePlus Nord 2T হল মিড-রেঞ্জের মধ্যে লেটেস্ট আপডেটেড ডিভাইস। ডিভাইসের পেছনে ব্যাক ক্যামেরা মডিউলের সুবিধে রয়েছে। ডিভাইসটিতে রয়েছে 90Hz রিফ্রেশ রেট সহ ৬.৪৩-ইঞ্চির ফুল HD+ AMOLED ডিসপ্লের ফিচার। এছাড়াও রয়েছে উজ্জ্বল ডিসপ্লে এবং Gorilla Glass 5-এর সুরক্ষা। OnePlus Nord 2T-তে আরও আছে মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি 1300 চিপসেট এবং 12GB RAM এবং 256GB ইন্টারনাল স্টোরেজের সুবিধে। দুর্দান্ত হার্ডওয়্যার স্পেসিফিকেশন সহ ডিভাইসটির পিছনে রয়েছে ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ এবং 32MP সেলফি ক্যামেরা। ডিভাইসটি 80W দ্রুত চার্জিং সাপোর্ট যুক্ত ও 4,500mAh ব্যাটারি পাওয়ার যুক্ত, যাতে মাত্র ২৭ মিনিটে সম্পূর্ণ চার্জ করা যায়।

OnePlus Nord CE 2 5G-

মিড-রেঞ্জের মধ্যে নির্ভরযোগ্য ডিভাইস

কাদের কেনা উচিত- দৈনিক ব্যবহারের জন্য ভালো পারফরম্যান্স এবং ইউজার ইন্টারফেস সহ মিড রেঞ্জের মধ্যে দারুন ফোন। শিক্ষার্থী থেকে শুরু করে ফাস্ট জেন স্মার্টফোন ব্যবহারকারীরা এটি সহজেই পরিচালনা করতে পারবেন। ডিভাইসটি 80W দ্রুত চার্জিং সাপোর্ট সহ 4,500mAh ব্যাটারি দ্বারা চালিত, যাতে মাত্র ৩২ মিনিটে সম্পূর্ণ চার্জ করা যায়। 4,500mAh ব্যাটারি দ্বারা চালিত। এতে রয়েছে ৬.৪৩-ইঞ্চি ফুল HD+ AMOLED ডিসপ্লে, 90Hz রিফ্রেশ রেট MediaTek Dimensity 900 চিপসেট এবং ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ ও 16MP সেলফি ক্যামেরার ফিচার রয়েছে। ভালো ব্যাটারি লাইফ ও পারফরম্যান্স থাকলেও এর এটি মাত্র 90Hz ডিসপ্লেযুক্ত।

OnePlus Nord CE 2 Lite 5G-

যাঁরা এন্ট্রি-লেভেল ওয়ানপ্লাস ডিভাইস খুঁজছেন তাঁদের জন্য উপযুক্ত কাদের কেনা উচিত- 120Hz রিফ্রেশ রেট, ৬.৫৯-ইঞ্চি ফুল HD+ LCD ব্রাইট ডিসপ্লে, Snapdragon 695 চিপসেট সহ যাঁরা মিড রেঞ্জের মধ্যে কটি OnePlus ডিভাইস খুঁজছেন তাঁরা এই সেটটি নিতে পারেন। যাঁরা প্রথমবারের মতো OnePlus-এর অভিজ্ঞতা নিতে চান তাঁদের জন্য OnePlus Nord CE 2 Lite 5G আদর্শ। এর ফুল অফ ডিভাইস সরাসরি সূর্যের উজ্জ্বল আলোতেও ডিসপ্লেকে পরিস্কার দেখায়। এই ডিভাইসটিতে রয়েছে 8GB পর্যন্ত RAM এবং 128GB ইন্টারনাল স্টোরেজের সুবিধে। ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ এবং 6MP সেলফি ক্যামেরাও রয়েছে এতে। এছাড়াও ডিভাইসে রয়েছে 33W দ্রুত চার্জিং সাপোর্ট এবং 5,000mAh ব্যাটারি পাওয়ারের ফিচার। ডিভাইসটি 120Hz ডিসপ্লে সহ ভালো পারফরম্যান্স দিলেও ক্যামেরার (6MP সেলফি ক্যামেরা) মান তুলনামূলক ভাবে গড়।

Published by:Rachana Majumder
First published:

Tags: Android Phones, Smart phone

পরবর্তী খবর