প্রযুক্তি

corona virus btn
corona virus btn
Loading

দূষণের হাত থেকে বাঁচুক পৃথিবী, অ্যাপেলের আইফোন ১২-এ থাকছে না কোনও পাওয়ার অ্যাডাপ্টার

দূষণের হাত থেকে বাঁচুক পৃথিবী, অ্যাপেলের আইফোন ১২-এ থাকছে না কোনও পাওয়ার অ্যাডাপ্টার

ক্রেতাদের মনখারাপের বিষয় হলেও ব্যাপারটা না কি পৃথিবীর পক্ষে বেশ ভাল

  • Share this:

এর আগে যখন চলতি বছরের সেপ্টেম্বর মাসে Apple iPad এবং Apple Watch লঞ্চ করা হয়েছিল, তখন তার সঙ্গে পাওয়ার অ্যাডাপটার ক্রেতাদের হাতে তুলে দেয়নি সংস্থা। ওই মাসেরই ১৫ তারিখে যখন iPhone 12 লঞ্চের কথা ঘোষণা করা হয়েছিল, স্বাভাবিক ভাবেই দেখা দিয়েছিল কৌতূহল- এ বার কি পাওয়ার অ্যাডাপটার পাওয়া যাবে? কিন্তু এ প্রসঙ্গে কোনও কথাই জানা যায়নি সংস্থার তরফে, বিষয়টাকে স্রেফ এড়িয়ে গিয়েছিল Apple। এই সব পর্ব পেরিয়ে এসে এ বার মিলেছে পাকা খবর- দুর্ভাগ্যবশত iPhone 12-এর বাক্সে পাওয়ার অ্যাডাপটার থাকছে না! ক্রেতাদের পক্ষে এ খারাপ খবর হলেও, তাঁদের মনখারাপের বিষয় হলেও ব্যাপারটা না কি পৃথিবীর পক্ষে বেশ ভালো। Apple-এর তরফ থেকে নেওয়া এই উদ্যোগ না কি পরিবেশবান্ধব! মানে iPhone 12-এর বাক্সে পাওয়ার অ্যাডাপটার না থাকা আখেরে পরিবেশকে দূষণের হাত থেকে বাঁচাবে!

কিন্তু কী ভাবে ? Apple দাবি করেছে যে এই iPhone 12-এর বাক্সে পাওয়ার অ্যাডাপটার না থাকা বছরে ২ মিলিয়ন মেট্রিক টন কার্বন নিঃসরণের হাত থেকে পৃথিবীকে বাঁচাবে! যদি গাড়ির দিক থেকে ধরতে হয়, তা হলে পরিসংখ্যানটা দাঁড়াচ্ছে ৪৫০,০০০। মানে, বছরে ৪৫০,০০০টা গাড়ি রাস্তা থেকে তুলে নিলে যে পরিমাণ কার্বন নিঃসরণ বন্ধ হয়, এ ক্ষেত্রেও ঠিক তাই হবে! নিঃসন্দেহেই এই পরিসংখ্যান আমাদের চমকে দেওয়ার পাশাপাশি মনে ভয়ও জাগায়! সেই জায়গা থেকে Apple-এর এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানাতেই হয়!

কিন্তু এর পাশাপাশিই iPhone 12-এর বাক্সে পাওয়ার অ্যাডাপটার না থাকা নিয়ে বাণিজ্যিক কূটকচালি এক অন্য হিসেবও তুলে ধরেছে। বলছে যে iPhone 12-এর বাক্সে পাওয়ার অ্যাডাপটার না থাকার কারণে স্বাভাবিক ভাবেই বাক্সটা ছোটখাটো হবে। আর স্রেফ এই আকার কমে যাওয়ার কারণে একই সময় এবং পরিবহন মাধ্যমে আগের তুলনায় ঢের বেশি iPhone 12 সরবরাহ করা যাবে। যা সংস্থার খরত বাঁচিয়ে মুনাফার অঙ্কটাকেই করে তুলবে জবরদস্ত!

তা, পরিবেশের কথা মাথায় রেখে সংস্থা যদি দুটো বাড়তি পয়সার মুখ দেখেই, তাতে কি আপত্তি করা যায়?

Published by: Ananya Chakraborty
First published: October 14, 2020, 1:43 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर