• Home
  • »
  • News
  • »
  • sports
  • »
  • India vs Pakistan In WT20: এদিকে ধোনি, ওদিকে ইমরান! ভারতকে হারাতে এবার বড় ভূমিকায় খানসাহেব

India vs Pakistan In WT20: এদিকে ধোনি, ওদিকে ইমরান! ভারতকে হারাতে এবার বড় ভূমিকায় খানসাহেব

India vs Pakistan In WT20: এপারে ধোনি। ওপারে ইমরান খান। ভারতকে বিশ্বকাপের ম্যাচে হারাতে নেমে পড়লেন খোদ পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী!

India vs Pakistan In WT20: এপারে ধোনি। ওপারে ইমরান খান। ভারতকে বিশ্বকাপের ম্যাচে হারাতে নেমে পড়লেন খোদ পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী!

India vs Pakistan In WT20: এপারে ধোনি। ওপারে ইমরান খান। ভারতকে বিশ্বকাপের ম্যাচে হারাতে নেমে পড়লেন খোদ পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী!

  • Share this:

    #দুবাই: একদিকে ধোনি। আরেকদিকে ইমরান। লড়াই তো তা হলে এবার সত্যিই জমজমাট। ভারত-পাকিস্তান ক্রিকেট মাঠের লড়াই তা হলে বাউন্ডারি লাইনের বাইরেও প্রভাব ফেলেছে! না হলে খোদ পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী কেন ভারতকে হারাতে মাঠে নেমে পড়বেন! না, ইমরান খান ক্রিকেটার হিসেবে নিশ্চয়ই আর মাঠে নামছেন না। তবে তিনি ভারতকে হারাতে পাকিস্তান দলকে বড়সড় সহায়তা করছেন বলেই খবর। বিরাট কোহলি- বাবর আজমদের লড়াইয়ে এবার ধোনি, ইমরান খানের মতো বিশ্বকাপজয়ীরাও জুড়ে গেলেন।

    ১৯৯২ সালে ওয়ান ডে বিশ্বকাপজয়ী দলের অধিনায়ক ছিলেন ইমরান খান। এখনও পর্যন্ত ওই একটাই বিশ্বকাপ জিততে পেরেছে পাকিস্তান। আর সেটা সম্ভব হয়েছিল ইমরান খানের স্বপ্নে পাকিস্তান দলের সৌজন্যে। তার পরও অনেক প্রতিভাবান তারকাদের নিয়ে দল গড়েছে পাকিস্তান। কিন্তু বিশ্বকাপ আর ঘরে ওঠেনি। গত কয়েক বছরে তো পাকিস্তান ক্রিকেটের কঙ্কালসার দশা হয়েছে। তা নিয়ে বহু পাক তারকা সরবও হয়েছেন। তবে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড বরাবর জানিয়েছে, তাদের দেশের ঘরোয়া ক্রিকেটের জীর্ণ দশা। ফলে পাকিস্তান ক্রিকেটের উন্নতি থমকে রয়েছে।

    আরও পড়ুন- ১২-০! আগেই কি হেরে গেল পাকিস্তানিরা! চাঙ্গা হতে ভরসা শেষে এই ভিডিও

    রাত পোহালেই ভারত-পাকিস্তান ম্য়াচ। তাও আবার বিশ্বকাপের মতো বড় মঞ্চে। তা নিয়ে এখন উত্তেজনার পারদ চড়ছে। ভারতের বিরুদ্ধে বিশ্বকাপে প্রতিটি ম্যাচে হেরেছে পাকিস্তান। মুখোমুখি সাক্ষাতের ফল ১২-০। তবে এবার সেই লজ্জার রেকর্ড থেকে নিষ্কৃতি পেতে মরিয়া পাকিস্তান। যেভাবেই হোক ১২-১ করতে চাইছে তারা। আর তাই গোটা দল দেশের একমাত্র বিশ্বকারজয়ী অধিনায়ক ও প্রঝানমন্ত্রীর দ্বারস্থ। ইমরান খান নাকি বাবর আজমদের ১৯৯২ সালের বিশ্বকাপের অভিজ্ঞতার কথা বলছেন। বড় ম্যাচের দলকে চাঙ্গা করতে নেমে পড়েছেন খানসাহেব।

    বাবর আজমও জানিয়েছেন, ইমরান খানের সঙ্গে কথা বলে গোটা দল চাঙ্গা হয়েছে। ১৯৯২ বিশ্বকাপের অভিজ্ঞতার কথা দলের সঙ্গে শেয়ার করে প্রত্যেকের মনোবল বাড়াতে চেয়েছেন ইমরান খান। বাবর আজম বলছিলেন, ''দুবাইতে আসার আগে টিম মিটিং হয়েছিল। সেই মিটিংয়ে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানও ছিলেন। বিশ্বকাপে তাঁর অভিজ্ঞতার কথা শেয়ার করেছিলেন তিনি। ইমরান খান গোটা দলকে জানিয়েছেন, বিশ্বকাপের মতো বড় মঞ্চে খেলতে নামলে বডি ল্যাঙ্গুয়েজ শেষ কথা। আমরা সেই পরামর্শ মেনে চলার চেষ্টা করব।''

    Published by:Suman Majumder
    First published: