Home /News /sports /
ঐতিহাসিক মুহূর্ত স্মরণ করে রাখতে নিজের পায়ে কোপার আদলে ট্যাটু ডি মারিয়ার

ঐতিহাসিক মুহূর্ত স্মরণ করে রাখতে নিজের পায়ে কোপার আদলে ট্যাটু ডি মারিয়ার

নিজের পায়ে কোপা আমেরিকার ট্যাটু করালেন ডি মারিয়া

নিজের পায়ে কোপা আমেরিকার ট্যাটু করালেন ডি মারিয়া

নিজের ওই পায়ে একটা বিশাল ট্যাটু করালেন ডি মারিয়া, এক্কেবারে কোপা আমেরিকার আদলে। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি এবং ভিডিও শেয়ার করেছেন তিনি

  • Share this:

    #প্যারিস: আজ থেকে ঠিক ১৩ বছর আগে বেজিং অলিম্পিকে ফুটবলে সোনা জিতেছিল আর্জেন্টিনা। ফাইনালে নাইজেরিয়ার বিরুদ্ধে একমাত্র গোলটি করেছিলেন অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া। লিওনেল মেসির পাস থেকে। সেই সোনালী মুহূর্তের দীর্ঘদিন পরে আবার মারাকানায় কোপা আমেরিকার ফাইনালে ডি মারিয়ার গোলেই চ্যাম্পিয়ন হয়েছে আর্জেন্টিনা। চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ব্রাজিলকে হারিয়ে। দুটো ক্ষেত্রেই মারিয়ার বিখ্যাত বা পা খুঁজে নিয়েছিল বিপক্ষের জাল।

    তাই এবার নিজের ওই পায়ে একটা বিশাল ট্যাটু করালেন ডি মারিয়া, এক্কেবারে কোপা আমেরিকার আদলে। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি এবং ভিডিও শেয়ার করেছেন তিনি। সদ্য সমাপ্ত কোপা আমেরিকার সেরা একাদশ ঘোষণা করেছে কোপা আমেরিকার আয়োজক ও দক্ষিণ আমেরিকার সর্বোচ্চ ফুটবল নিয়ন্ত্রক সংস্থা কনমেবল। দু'দিন আগেই টুইটারে সেরা একাদশ ঘোষণা করে আয়োজকরা। সেই একাদশে জায়গা হয়নি ফাইনালের নায়ক অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়ার।

    তবু একাদশে চ্যাম্পিয়ন আর্জেন্টিনারই জয়জয়কার। ঘোষিত সেই একাদশে আর্জেন্টিনা দলেরই চারজন স্থান পেয়েছেন। রানার্সআপ ব্রাজিলের তিনজন জায়গা করে নিয়েছেন সেই একাদশে। এছাড়া চিলি, ইকুয়েডর, কলম্বিয়া ও পেরু থেকে জায়গা পেয়েছেন একজন করে। আর্জেন্টিনার চার জন হলেন: ‘গোল্ডেন বল’ ও ‘গোল্ডেন বুট’ জেতা লিওনেল মেসি, গোলরক্ষক এমিলিয়ানো মার্টিনেজ, রদ্রিগো দে পল ও ক্রিস্তিয়ান রোমেরো।

    তিন ব্রাজিলিয়ান হলেন আসরের অন্যতম সেরা তারকা নেইমার, ডিফেন্ডার মার্কিনিয়োস ও মিডফিল্ডার কাসেমিরো। বাকি খেলোয়াড়রা হলেন ইকুয়েডরের পেরভিস এস্তুপিনান, পেরুর ইয়োশিমার ইয়োতুন ও চিলির মাউরিসিও ইসলা এবং কলম্বিয়ার ফুটবলার লুইস দিয়াস। কিন্তু তাতে মন খারাপ করতে রাজি নয় ডি মারিয়া। প্রচন্ড আনন্দে রয়েছেন তিনি।

    সেরা দলে জায়গা পাওয়া গুরুত্বপূর্ণ নয় তার কাছে। ফাইনালে গোল করে দলকে চ্যাম্পিয়ন করেছেন সেটাই আসল। একাধিকবার জানিয়েছেন এই মুহূর্তের জন্য দেশের জার্সি গায়ে খেলা চালিয়ে গিয়েছিলেন। অতীতে একাধিক ফাইনালে ব্যর্থ হওয়া সত্ত্বেও আশা ছেড়ে দেননি। ঈশ্বরকে ধন্যবাদ জানাচ্ছেন শেষপর্যন্ত আর্জেন্টিনা জার্সিতে ট্রফি জিতেছেন বলে। আর নিজের প্রিয় বা পায়ের ওই ট্যাটু দেখলেই নিজেকে মোটিভেট করতে পারবেন বলে জানিয়েছেন লিওনেল মেসি জাতীয় দলের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সদস্য। উঠতে-বসতে ঘুমোতে ওই ট্যাটু তাঁকে স্মরণ করিয়ে দেবে সেরা হওয়ার মুহূর্ত।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published:

    Tags: EURO 2020 Copa 2021, Euro Cup 2020

    পরবর্তী খবর