মাধ্যমিকের প্রাপ্ত নম্বরের নিরিখে উচ্চমাধ্যমিকের মূল্যায়ন? চিন্তা-ভাবনা সংসদের

এই পদ্ধতিতে মূল্যায়ন হলে কলেজ বা বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছাত্র-ছাত্রীদের ভর্তিতে সুবিধা হবে বলেই মনে করছেন দপ্তরের আধিকারিকরা।

এই পদ্ধতিতে মূল্যায়ন হলে কলেজ বা বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছাত্র-ছাত্রীদের ভর্তিতে সুবিধা হবে বলেই মনে করছেন দপ্তরের আধিকারিকরা।

  • Share this:

#কলকাতা:

উচ্চ মাধ্যমিকের মার্কশিটে এবার মাধ্যমিকের নম্বরকেও গুরুত্ব দিচ্ছে উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। অন্তত এমনটাই খবর স্কুল শিক্ষা দপ্তর সূত্রে। অর্থাৎ দু'বছর আগে ছাত্রছাত্রীরা মাধ্যমিকের যে নম্বর পেয়েছিল, তার নিরিখেই এবছর উচ্চ মাধ্যমিকের মূল্যায়ন হতে চলেছে বলে স্কুল শিক্ষা দপ্তর সূত্রে খবর। পাশাপাশি উচ্চমাধ্যমিকে প্র্যাক্টিকাল ও প্রোজেক্ট নম্বরের নিরিখেও মূল্যায়ন হবে। অর্থাৎ মাধ্যমিকের প্রাপ্ত নম্বর এবং উচ্চ মাধ্যমিকের প্র্যাক্টিকাল ও প্রোজেক্ট ওয়ার্ক-এর নম্বর, এই দুটিকে একসঙ্গে মিলিয়েই উচ্চমাধ্যমিকের ছাত্র-ছাত্রীদের নম্বর দেওয়া হবে। এর ফলে এ যদিও এই বিষয়ে কোনো প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের সভাপতি মহুয়া দাসের।

ইতিমধ্যেই উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা বাতিল করার ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু কীভাবে মূল্যায়ন হবে তা নিয়ে সাতদিনের মধ্যে সিদ্ধান্ত নেওয়ার কথা উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদকেও জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। মূল্যায়নের বিষয় নিয়ে মঙ্গলবারের বৈঠকে বসে উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। মঙ্গলবারের বৈঠকে কোনো সিদ্ধান্ত না হলেও বুধবার ফের বৈঠকে বসেন সংসদের আধিকারিকরা। প্র্যাক্টিকাল ও প্রোজেক্ট নম্বরের নিরিখেই ছাত্র-ছাত্রীদের নম্বর দেওয়ার বিষয়ে একপ্রস্থ আলোচনা হয়। সূত্রের খবর, এই বিষয় নিয়ে রাজ্য স্কুল শিক্ষা দপ্তরের সচিবের সঙ্গে বৈঠকে বসেন উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের সভাপতি বুধবার। ওই বৈঠকেই মাধ্যমিকের প্রাপ্ত নম্বরকেও মূল্যায়নে যোগ করতে বলা হয় বলেই সূত্রের খবর। সেক্ষেত্রে দুটিকে এক করেই উচ্চমাধ্যমিকে ছাত্র-ছাত্রীদের মার্কশিটের প্রস্তাব উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের তরফে রাজ্যকে দেওয়া হচ্ছে বলে জানা গিয়েছে।

এক্ষেত্রে উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদকে প্রত্যেকটি স্কুল থেকেই ছাত্র-ছাত্রীর মাধ্যমিকের নম্বর জানতে হবে। অর্থাৎ উচ্চ মাধ্যমিকের জন্য এখনো পর্যন্ত যত সংখ্যক ছাত্রছাত্রী রেজিস্ট্রেশন করিয়েছে তাদের সবার মাধ্যমিকের নম্বর নিতে হবে সংসদকে। ইতিমধ্যেই সংসদের কাছে জমা পড়েছে সেই সব ছাত্রছাত্রী উচ্চমাধ্যমিকের প্র্যাক্টিকাল বা প্রজেক্ট ওয়ার্ক-এর নম্বর। দুটি নম্বর যোগ করে একটি নির্দিষ্ট ফর্মুলাতে নম্বর দেওয়া হবে। যদিও উচ্চমাধ্যমিকের একাধিক বিষয় রয়েছে যেগুলি মাধ্যমিকে নেই। সেক্ষেত্রে সেই বিষয়গুলিতে কীভাবে নম্বর দেওয়া হবে তা নিয়ে অবশ্য নির্দিষ্টভাবে কিছু জানা যায়নি। সূত্রের খবর, উচ্চমাধ্যমিকের যে মার্কশিট দেওয়া হবে সেটিতে ছাত্র-ছাত্রীদের দু'বছর আগে পাওয়া মাধ্যমিকের প্রাপ্ত নম্বর উল্লেখ করা থাকতে পারে। সেক্ষেত্রে কলেজ গুলিতে ছাত্র-ছাত্রী ভর্তির ক্ষেত্রে অনেকটা সুবিধা হতে পারে বলেই মনে করছে বিশেষজ্ঞদের একাংশ।

Published by:Suman Majumder
First published: