Home /News /south-bengal /
Renu Khatun: 'লড়াই করুন', স্বামী হাত কেটেছিল, হাসপাতাল থেকে বেরিয়ে তবু লড়াইয়ে আত্মবিশ্বাসী রেণু

Renu Khatun: 'লড়াই করুন', স্বামী হাত কেটেছিল, হাসপাতাল থেকে বেরিয়ে তবু লড়াইয়ে আত্মবিশ্বাসী রেণু

নিজস্ব চিত্র

নিজস্ব চিত্র

Renu Khatun: তারপরেও এই ঘৃণ্য শক্তি দমিয়ে রাখতে পারেনি রেণুকে। রেণুর চিকিৎসার খরচ বহন করেছে রাজ্য সরকার। গ্রেফতার হয়েছে শ্বশুর শাশুড়ি-সহ ৬ জন ।

  • Share this:

    #দুর্গাপুর: স্বামী নৃশংসতাও দমাতে পারেনি তাঁকে। বরং তিনি বলছেন, লড়তে হবে এভাবেই। কেতুগ্রামের রেণু খাতুন এখন লড়াইয়ের অনুপ্রেরণা, তিনি নতুন করে নিজেকে গড়ে তুলতে চান। সরকারি চাকরিতে আপত্তি ছিল কেতুগ্রামের নার্সিং স্টাফ রেণুর স্বামীর। সরকারি নার্সিং চাকরির লিস্টে নাম আসতেই সুপারি কিলারদের সঙ্গে নিয়ে নিশংসভাবে রেণু খাতুনের ডান হাতের কব্জি কেটে দেয় তার স্বামী শের মহম্মদ।

    আরও পড়ুন: ২৬ জুন পর্যন্ত বাড়ছে গরমের ছুটি! নির্দেশিকা জারি করল স্কুল শিক্ষা দফতর

    তারপরেও এই ঘৃণ্য শক্তি দমিয়ে রাখতে পারেনি রেণুকে। রেণুর চিকিৎসার খরচ বহন করেছে রাজ্য সরকার। গ্রেফতার হয়েছে শ্বশুর শাশুড়ি-সহ ৬ জন । রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের রেনুর পাশে দাঁড়িয়েছেন। কাটা হাতে বসবে কৃত্রিম হাতও, সেই আশ্বাস দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। আট দিন ধরে দুর্গাপুরের বেসরকারি হাসপাতালে লড়াই করার পর এখন সম্পূর্ণ সুস্থ রেণু। বেসরকারি হাসপাতাল থেকে ছুটি হতেই রেণুর মুখে যেন আরো একটু হাসি ফুটল।

    রেনুর বার্তা, যাঁরা এই ধরনের ঘটনার সাক্ষী হচ্ছে তাঁরা যেন চুপ করে বসে না থাকেন, লড়াইয়ে এগিয়ে আসেন। নতুন জীবনের লড়াইটা আরেকটু নতুনভাবে শুরু হল হার না মানা রেণুর। রেণু জানান, সরকারকে তাঁর যেমন ধন্যবাদ জানানোর কোনও ভাষা নেই ঠিক তেমনই চিকিৎসকদেরও ধন্যবাদ জানানোরও ভাষা নেই। চিকিৎসকরা জানান, এখন সম্পূর্ণ সুস্থ রেণু। তাঁর ডান হাতের কব্জি কেটে গেলেও কৃত্রিম হাত যাতে বসানো যায় সে নিয়েও চিকিৎসা চলছে। তবে যাই হোক, রেণু আর যেতে চান না শ্বশুরবাড়িতে। নতুন করে সংসার নিয়েও এখনও চিন্তা করেননি রেণু খাতুন।

    অর্পণ চক্রবর্তী

    Published by:Uddalak B
    First published:

    Tags: Renu Khatun

    পরবর্তী খবর