বিয়েতে পেট পুরে খাওয়া দাওয়া, অতিথিদের হেলমেট ও মেহগনি গাছ উপহার দম্পতির

বিয়েতে পেট পুরে খাওয়া দাওয়া, অতিথিদের হেলমেট ও মেহগনি গাছ উপহার দম্পতির

বৌ ভাতের অনুষ্ঠানের প্যান্ডেলের সামনেই সেভ লাইফ সেভ ড্রাইভ প্রচার

  • Share this:

#মুর্শিদাবাদ: পেট পুরে খাওয়া দাওয়ার পর আমন্ত্রিতদের হাতে একটি করে হেলমেট ও একটি মেহগনি গাছ দিয়ে আপ্যায়ন করছেন স্বয়ং নবদম্পতি। সালার থানার সিভিক পুলিশে কর্মরত অটল বিহারী দাসের বৌভাতের অনুষ্ঠানে এভাবেই আমন্ত্রিতদের আপ্যায়ন করা হয় বৃহস্পতিবার রাতে। বৌ ভাতের অনুষ্ঠানের প্যান্ডেলের সামনেই সেভ লাইফ সেভ ড্রাইভ প্রচার যেমন ছিল, ঠিক তেমনি গাছ লাগান প্রাণ বাঁচান, বাল্যবিবাহ দেবেন না এই হোডিং-এ ছয়লাপ ছিল অনুষ্ঠান বাড়ি। সালারের সোনারূন্দী গ্রামের অটল দাসের মঙ্গলবার বিয়ে হয় রামপুরহাটে রুমকি দাস এর সাথে। অটল দাস দীর্ঘদিন ধরে সালার থানায় সিভিক পুলিশে কর্মরত। চাকরি করার সূত্রে তারক উপলব্ধি সেভ লাইফ সেভ ড্রাইভ নিয়ে যতই প্রচার করা হোক না কেন সবাই চেষ্টা না করলে এ ব্যাধি দূর করা সম্ভব নয়। আর সেই কারণেই অটল তার বিয়েতে সামাজিক দায়িত্ব পালনে এই আনন্দ অনুষ্ঠান কেই বেছে নেন। প্রত্যেক আমন্ত্রিতদের হাতে একটি করে গাছ ও একটি করে হেলমেট দিয়ে তাদের অভ্যর্থনা জানানো হয়। নববধূর সঙ্গে সালার থানার ওসি উপস্থিত ছিলেন। আটল দাস বলেন, থানা থেকে আমরা প্রচার করি, সকলে মিলে যদি এইভাবে অনুষ্ঠানের প্রচার করা হয় তাহলে মানুষ যদি একটু সচেতন হয় তাহলে ভাল লাগবে। সেই কারণে আমি এই উদ্যোগ নিয়েছে। শালার থানার ওসি ইন্দ্রনীল বিশ্বাস বলেন, অটল যা করে দেখালো তা প্রশংসনীয়। আমরা গর্বিত। শুধু হেলমেট নয়, প্রত্যেককে গাছ ও বাল্যবিবাহ নিয়ে সচেতন করা হয়েছে এই অনুষ্ঠানে। জেলা পুলিশ সুপার অজিত সিং যাদব বলেন, প্রশংসনীয় উদ্যোগ। নববধূকে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে সংবর্ধনা দেওয়া হবে।

Pranab Kumar Banerjee

First published: March 13, 2020, 9:38 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर