ভোটের মধ্যেই বিয়ের জন্য ছুটি চেয়েছিলেন, না দেওয়ায় জওয়ানের রাইফেল থেকে চলল গুলি, মৃত ১

ভোটের মধ্যেই বিয়ের জন্য ছুটি চেয়েছিলেন, না দেওয়ায় জওয়ানের রাইফেল থেকে চলল গুলি, মৃত ১
  • Share this:

#বাগনান: বিয়ের জন্য বাড়ি ফিরতে চেয়েছিলেন ভোটের কাজে আসা এক জওয়ান। ছুটি পাননি। তা নিয়ে তর্কাতর্কির মাঝে সার্ভিস রাইফেল থেকে গুলি ছুঁড়লেন জওয়ান। তাঁর গুলিতে নিহত অসম রাইফেলসের এএসআই। আহত আরও দুই জওয়ান। ভোটে সাধারণ মানুষকে নিরাপত্তা দিতে যে কেন্দ্রীয় বাহিনীকে আনা হয়েছিল, তারাই নিরাপত্তার জন্য দৌড়ে বেড়াল স্থানীয়দের দরজায় দরজায়। বুধবার থেকে নিখোঁজ ছিলেন লক্ষীকান্ত বর্মন নামে এক জওয়ান। বৃহস্পতিবার সকালে ৬ নম্বর জাতীয় সড়কের কাছ থেকে তাঁকে ফিরিয়ে আনে পুলিশ। স্কুলে ফিরেই তিনি ফের বাড়ি ফেরার জন্য ঝামেলা শুরু করেন। অভিযোগ, বচসার মাঝেই হঠা‍ৎ সার্ভিস রাইফেল থেকে গুলি ছুঁড়তে শুরু করেন লক্ষীকান্ত। ১৫ থেকে ২০ রাউন্ড গুলি চলে বলে অভিযোগ। গুলি লেগে মৃত্যু হয় অসম রাইফেলসের এএসআই ভোলানাথ দাসের। আহত আরও দুই জওয়ান রন্টুমনি বোধক ও অনিল রাজবংশি। বেশ কিছুক্ষণ বন্দুক উঁচিয়ে এলাকায় দাপিয়ে বেড়ান লক্ষীকান্ত। খবর পেয়ে বাগনান থানার পুলিশ ও কেন্দ্রীয় বাহিনী এসে পৌঁছয়। কোনও রকমে নিরস্ত্র করে গ্রেফতার করা হয় লক্ষীকান্ত বর্মনকে। বাগনানে সভা সেরে ঘটনাস্থলে আসেন বিজেপি নেতা কৈলাস বিজয়বর্গী। নিরাপদে ভোট করার জন্যই কেন্দ্রীয় বাহিনী আনা হয়েছিল। সেই কেন্দ্রীয় বাহিনীর আচরণেই আতঙ্কিত বাগনানের বাসিন্দারা। এমনকী ভোট দিতে যেতেও রাজি নন তাঁরা।

First published: 06:06:12 PM May 03, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर