Home /News /south-bengal /
West Bengal News: পিঠে জমাট বাঁধা রক্ত, সামনে শ্বশুর-শাশুড়ি! গোঘাটে মধ্যযুগীয় বর্বরতার শিকার যুবক

West Bengal News: পিঠে জমাট বাঁধা রক্ত, সামনে শ্বশুর-শাশুড়ি! গোঘাটে মধ্যযুগীয় বর্বরতার শিকার যুবক

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

West Bengal News: আক্রান্ত এই যুবকের নাম সৌরভ ঘোষ। জানা গেছে, বছর তিনেক আগে সৌরভের বিয়ে হয় শ্রীপুরের বাসিন্দা সুষমা ঘোষ প্রামানিকের।

  • Share this:

    #গোঘাট: আবারও মধ্যযুগীয় বর্বরতার সাক্ষী থাকল গোঘাটের কামারপুকুর। সালিশি সভায় মীমাংসা করে দেওয়ার নাম করে তুলে নিয়ে গিয়ে নৃশংস ভাবে এক যুবককে মারধরের অভিযোগ উঠল বুম্বা ও আজিম নামে দুই ব্যক্তির বিরুদ্ধে । যেভাবে মারধর করা হয়েছে তা অত্যন্ত নৃশংস। মারধর করার পরেও থামেনি তারা। প্রাণ নাশেরও হুমকি দেওয়া হয় ওই যুবককে।

    তার বাড়ি কামারপুকুর এলাকায়। পিঠে রক্ত জমে গেছে মারধরের ফলে। দাগ হয়ে গেছে গোটা পিঠে। ঘটনার পরে গোঘাট থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের হলেও এখনো কেউ গ্রেফতার হয়নি। তাকে বাঁশ দিয়ে পেটানো হয়েছে বলে অভিযোগ। আপাতত তাকে প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য কামারপুকুর গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। স্বামী-স্ত্রীর বনিবনা নিয়ে গন্ডগোলের অভিযোগে স্বামীকে দোকান থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে এই ভাবেই পৈচাশিক নির্যাতন করা হয়। তাও আবার তার শ্বশুর শাশুড়ির সামনে এই ভাবে মারধর করা হয় বলে অভিযোগ।

    আরও পড়ুন: সরাসরি রাজনৈতিক প্রচার, প্রেসিডেন্সিতে TMC-র বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ SFI-এর!

    আক্রান্ত এই যুবকের নাম সৌরভ ঘোষ। জানা গেছে, বছর তিনেক আগে সৌরভের বিয়ে হয় শ্রীপুরের বাসিন্দা সুষমা ঘোষ প্রামানিকের। পরিবারের দাবি, বিয়ের পর থেকেই স্বামীর সঙ্গে স্ত্রীর বনিবনা হচ্ছিল না। সেই থেকেই নানান ভাবে অশান্তি হত দু'জনের মধ্যে। কিছু বললেই আত্মহত্যা করব বলে হুমকি দিত স্ত্রী সুষমা। এর আগেও অনেক বার মিটমাট করার চেষ্টা করা হয়। কিন্তু কোন লাভ হয়নি। তাই স্ত্রীর বাপের বাড়ির লোকজন স্থানীয় একটি ক্লাবের ছেলেদের সঙ্গে যোগাযোগ করে।

    আরও পড়ুন: ভাসবে উত্তরবঙ্গ, দক্ষিণবঙ্গের ৫ জেলায় প্রবল বৃষ্টি! হাওয়া অফিসের বড় সতর্কতা

    তারাই তাঁকে সালিশি সভার নামে দোকান থেকে ডেকে নিয়ে গিয়ে এই ভাবেই মারধর করে। যদিও তৃণমূলের গোঘাট ২ নং ব্লক সভাপতি তথা কামারপুকুর গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান তপন মণ্ডল বলেন, ''ঘটনাটা শুনেছি। অত্যন্ত নিন্দনীয় ঘটনা। যারা করেছে তারা যদি দলের কেউ হন বা কোন ভাবে দলের সঙ্গে যুক্ত থাকে, তাহলে তাদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আমি অঞ্চল তৃণমূল সভাপতিকে বলেছি। পাশাপাশি পুলিশকেও বলেছি বিষয়টি নিরপেক্ষ ভাবে তদন্ত করে ব্যবস্থা নিতে।''

    ----বাপন সাঁতরা
    Published by:Suman Biswas
    First published:

    Tags: Hooghly news, West Bengal news

    পরবর্তী খবর