সাত ঘণ্টার অবরোধে বিধ্বস্ত রাজ্যের রেল পরিষেবা, বাতিল বহু ট্রেন

সাত ঘণ্টার অবরোধে বিধ্বস্ত রাজ্যের রেল পরিষেবা, বাতিল বহু ট্রেন
নিজস্ব চিত্র

সাত ঘণ্টার অবরোধে বিধ্বস্ত রাজ্যের রেল পরিষেবা, বাতিল বহু ট্রেন

  • Share this:

 #কলকাতা: ঝাড়খণ্ড দিশম পার্টির সাত ঘণ্টার অবরোধে বিধ্বস্ত রাজ্যের রেল পরিষেবা। জোরালো ধাক্কা লেগেছে বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, দুই দিনাজপুর ও মালদহের ট্রেন চলাচলে। ফলে, ব্যাহত উত্তরবঙ্গ ও উত্তর-পূর্ব ভারতের রেল পরিষেবাও। বাতিল করা হয়েছে একাধিক ট্রেন। অস্বাভাবিক দেরিতে চলছে বহু এক্সপ্রেস ও প্যাসেঞ্জার।

আদিবাসীদের রেল অবরোধের জেরে উত্তর-পূর্ব রেলের মোট ৩৪ ট্রেন বাতিল করা হয়েছে ৷ বাতিল বেশ কয়েকটি প্যাসেঞ্জার ও এক্সপ্রেস ট্রেন ৷ সেগুলি হল-

বাতিল টাটা-দানাপুর এক্সপ্রেস

বাতিল বিষ্ণুপুর-ধানবাদ প্যাসেঞ্জার ট্রেন

বাতিল মেদিনীপুর-আদ্রা প্যাসেঞ্জার ট্রেন

বাতিল আদ্রা-আসানসোল প্যাসেঞ্জার ট্রেন

বাতিল আসানসোল-টাটা প্যাসেঞ্জার ট্রেন

এছাড়া মারাত্মক রকমের দেরিতে চলছে বহু গুরুত্বপূর্ণ ট্রেন ৷

কলকাতা রাজধানী ভায়া গয়া চলছে ৯ ঘণ্টা দেরিতে

পূর্বা এক্সপ্রেস সাত ঘণ্টা দেরিতে

কালকা মেল চলছে ১০ ঘণ্টা দেরিতে

নয়াদিল্লি-শিয়ালদহ রাজধানী এক্সপ্রেসও ১০ ঘণ্টা দেরিতে

উপাসনা এক্সপ্রেস ১১ ঘণ্টা দেরি

সরাইঘাট এক্সপ্রেস ১০ ঘণ্টা দেরি

বিক্রমশীলা এক্সপ্রেস ৯ ঘণ্টা দেরি

অমৃতসর মেল ১৫ ঘণ্টা দেরি

দুন এক্সপ্রেস ১০ ঘণ্টা দেরি

বাঘ এক্সপ্রেস ৬ ঘণ্টা দেরিতে চলছে

ঘুম ভাঙতেই রেল অবরোধের খবর। স্তব্ধ ট্রেনের মধ্যে বসে দুর্ভোগ পোহালেন যাত্রীরা। সোমবার সকালে ঝাড়খণ্ড সরকারের নীতির বিরোধিতায় উত্তরবঙ্গ ও জঙ্গলমহলে আদিবাসীদের রেল অবরোধের জেরে ভোগান্তিতে পড়েন যাত্রীরা। মায়ের মৃত্যু সংবাদ পেয়েও পৌঁছতে পারলেন না কেউ। অসুস্থ আত্মীয়কে নিয়ে ট্রেনে বসে আশঙ্কায় প্রহর গুনলেন কোনও যাত্রী। খাবার বা জল না পেয়ে বাড়ল ক্ষোভ।

ঝাড়খণ্ড সরকারের জমি অধিগ্রহণ বিল ও ধর্মান্তকরণ আইন প্রত্যাহারের দাবি। সপ্তাহের প্রথম দিনেই রেল অবরোধে নামে আদিবাসীদের দুই সংগঠন। মালদা, দুই দিনাজপুর, পুরুলিয়া ও বাঁকুড়ায় রেল অবরোধের জেরে আটকে পড়ে একাধিক দূরপাল্লার ট্রেন ও এক্সপ্রেস ট্রেন। এ-রাজ্যের সঙ্গে উত্তরপূর্বের রেল যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। চরম সমস্যায় পড়েন যাত্রীরা। মজুত করা খাবার বা জল ফুরিয়ে যাওয়ায় সমস্যা আরও বাড়ে। রেলের তরফে কোথাও শুকনো খাবার দেওয়া হলেও তাতে সমস্যা মেটেনি।

First published: 06:03:25 PM Jan 08, 2018
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर