চায়ের দোকানের আড়ালে চলছে গুলি, মদের বেআইনি ব্যবসা ! পুলিশ ও বিএসএফের অভিযানে পর্দা ফাঁস

চায়ের দোকানের আড়ালে চলছে গুলি, মদের বেআইনি ব্যবসা ! পুলিশ ও বিএসএফের অভিযানে পর্দা ফাঁস

সূত্রের খবর বেশ কিছুদিন ধরেই দোকানের ওপর নজর রাখছিলেন বিএসএফের গোয়েন্দারা।

  • Share this:

#মালদহ:  দিনরাত লোকজনের ভিড়। নানান রকমের মানুষের যাতায়াত ওঠাবসা। মালদহের হবিবপুরের আইহো হাটের চায়ের আড্ডার আড়ালে অস্ত্র আর মদের কারবারের পর্দা ফাঁস করল পুলিশ ও বিএসএফ। সূত্রের খবর বেশ কিছুদিন ধরেই দোকানের ওপর নজর রাখছিলেন বিএসএফের গোয়েন্দারা।  আইহো হাটের চায়ের দোকান থেকে খুব বেশী দূরে নয় বাংলাদেশ সীমান্ত। আশপাশের ব্যবসায়ী থেকে সাধারন মানুষ সকলেই জানতেন নিছক চায়ের ব্যবসা।  কিন্তু বৃহস্পতিবার সকালে পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে বিএসএফ হানা দিতেই সব রহস্য ভেদ।

উদ্ধার ২০ রাউণ্ড গুলি, প্রায় পঞ্চাশ বোতল মদ, বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে  একটি দুই চাকার গাড়িও। যদিও খোঁজ মেলেনি দোকান মালিক দীপঙ্কর দাসের।  মালদহের হবিবপুর থানার আইহো বাংলাদেশ সীমান্ত ঘেষা এলাকা। বৃহস্পতিবার সকালে স্থানীয় মাছ বাজার হাট সংলগ্ন ওই দোকানে হানা দেয় পুলিশ ও বিএসএফ। বৃহস্পতিবার সাপ্তাহিক ছুটির দিন হওয়ায় এদিন সকাল থেকেই দোকান বন্ধ ছিল। এরপরেও এলাকা ঘিরে ফেলে দোকানে তল্লাশী শুরু করে পুলিশ ও বিএসএফ।  অভিযানের নেতৃত্বে ছিলেন বিএসএফের ৪৪ নম্বর ব্যাটেলিয়ানের অ্যাসিসট্যান্ট কমাণ্ডাণ্ট এবং হবিবপুর থানার আইসি। আচমকা বন্ধ দোকানখুলে তল্লাশীতে এলাকায় হৈচৈ পড়ে যায়। প্রথমে স্থানীয় অনেকেই ক্ষোভ প্রকাশ করেন। পরে দোকানের ভিতর থেকে গুলি ও মদ উদ্ধার হতেই অভিযানের কারণ স্পষ্ট হয়ে যায়। পলাতক ওই ব্যবসায়ীর খোঁজে তল্লাশী শুরু করেছে হবিবপুর থানার পুলিশ। কোথা থেকে কি উদ্দেশ্যে গুলি আনা হযেছিল তারও হদিশ পাওয়ার চেষ্টা হচ্ছে। ঘটনার সঙ্গে সীমান্তের ওপারের কোনো দুষ্কৃতিদের যোগ সাজশের সম্ভবনাও উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না।

সেবক দেবশর্মা 
First published: February 27, 2020, 11:28 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर